মেনু নির্বাচন করুন
Text size A A A
Color C C C C
পাতা

কার্যবিবরনী ও গুরুত্বপূর্ন সিদ্ধান্ত

 

 

গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার

উপজেলা নির্বাহী অফিসারের কার্যালয়

মুন্সীগঞ্জ সদর, মু্ন্সীগঞ্জ।

 

মুন্সীগঞ্জ সদর উপজেলা সন্ত্রাস ও নাশকতা প্রতিরোধ কমিটির ডিসেম্বর মাসের সভার কার্যবিবরনী

 

সভাপতি

 

 

সভার তারিখ

সময়

স্থানঃ

:

 

 

:

 

 

শারাবান তাহুরা

উপজেলা নির্বাহী অফিসার

মুন্সীগঞ্জ সদর, মুন্সীগঞ্জ।

১৭/১২/২০১৫ খ্রিঃ।

১১.০০ঘটিকা।

উপজেলা পরিষদ মিলনায়তন, মুন্সীগঞ্জ।

 

সভায় উপস্থিত সদস্যদের হাজিরা পরিশিষ্ট ‘‘ক’’

 

 

সভার প্রারম্ভে সভাপতি সকল সদস্যকে স্বাগত জানিয়ে সভা শুরু করেন। তিনি অত্র কমিটির উপদেষ্টা জনাব আনিছ উজ্জামান, চেয়ারম্যান, সদর উপজেলা পরিষদকে স্বাগত জানান। ১১ ডিসেম্বর মুন্সীগঞ্জ হানাদার মুক্ত দিবস, ১৪ ডিসেম্বর শহীদ বুদ্ধিজীবি দিবস এবং ১৬ ডিসেম্বর মহান বিজয় দিবস উদ্যাপনের পর ১৭ ডিসেম্বর মুন্সীগঞ্জ সদর উপজেলা সন্ত্রাস ও নাশকতা প্রতিরোধ কমিটির উপস্থিত সকল সদসকে ধন্যবাদ জানান। অত:পর সদস্য-সচিবকে গত সভার কার্যবিবরণীর সিদ্ধান্তে সমূহ তুলে ধরার জন্য বলেন এবং  সিদ্ধান্তে বিষয়ে কারো কোনো বক্তব্য থাকলে তা উত্থাপনের জন্য বলেন। এবিষয়ে কারো কোনো আপত্তি না থাকায় গত সভার কার্যবিবরণী সর্বসম্মতিক্রমে গৃহীত হয়। অত:পর উপস্থিত সকল সদস্যকে সন্ত্রাস ও নাশকতা বিষয়ে বক্তব্য ও  প্রতিকার বিষয়ে প্রস্তাব তুলে ধরার অনুরোধ করা হয়।

 

জনাব মো: পিয়ার হোসেন, সভাপতি, উপজেলা কৃষক লীগ, মুন্সীগঞ্জ ও সদস্য, সন্ত্রাস ও নাশকতা প্রতিরোধ কমিটি বলেন, আমরা বিজয়ের তাৎপর্যপুর্ন একটি মাসে অদ্যকার সভায় মিলিত হয়েছি। মুক্তিযুদ্ধের বিনিময়ে একটি স্বাধীন দেশ পেয়েছি। ১৯৭১ এর স্বাধীনতা যুদ্ধে ২ লক্ষ মা বোন ও ৩০ লক্ষ শহীদের রক্তের বিনিময়ে এদেশ পেয়েছি। আসন্ন পৌরসভা নির্বাচনকে কেন্দ্র করে আইন-শৃঙ্খলা অবনতির কোন ঘটনা বা নাশকতা যাতে না হয় তার নজরদারি করার জন্য আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীসহ সকলের প্রতি অনুরোধ রাখেন। শান্তিপুর্ন নির্বাচন সম্পন্ন করার লক্ষ্য নির্বাচন পর্যবেক্ষনের জন্য একটি মনিটরিং টিম গঠন করার অনুরোধ জানান।

 

জনাব জিয়াউল হাসান বিরিন,সদস্য, সন্ত্রাস ও নাশকতা প্রতিরোধ কমিটি বলেন,এমাসেই পৌরসভা নির্বাচন। মিটিং মিছিলে কোন দুস্কৃতিকারী যেন সন্ত্রাসী কার্যক্রম বা নাশকতা করতে না পারে তার অনুরোধ জানান।

 

জনাব হাকিম বেপারী, সদস্য, সন্ত্রাস ও নাশকতা প্রতিরোধ কমিটি বলেন, রামপাল ইউনিয়নে কোন সন্ত্রাস ও নাশকতা নাই। তবে চুপ থাকলে হবে না সবাইকে সজাগ থাকতে হবে। সন্ত্রাস ও নাশকতা প্রতিরোধে সৌদি আরবসহ ৩৪টি দেশ নিয়ে সন্ত্রাস ও নাশকতার বিরুদ্ধে সরকার যে কার্যক্রম নিয়েছেন তার জন্য ধন্যবাদ জানান।

 

জনাব জলিল মাতবর, কাউন্সিলর, মিরকাদিম পৌরসভা, সদস্য, সন্ত্রাস ও নাশকতা প্রতিরোধ কমিটি বলেন, তিনি আসন্ন পৌরসভা নির্বাচনে পুনরায় কাউন্সিলর পদে প্রার্থী হয়েছেন। এজন্য সকলের নিকট দোয়া চান। তিনি নির্বাচন পরিস্থিতির দিকে খেয়াল রাখার বিষয়ে সকলের প্রতি অনুরোধ জানান। কারণ জনগন পরিস্থিতির কথা চিমত্মা করে ভোট দিতে যাওয়ার বিষয়ে ভীত।

 

জনাব মোঃ ইউনুস, ইমাম, উপজেলা পরিষদ মসজিদ ওসদস্য, সন্ত্রাস ও নাশকতা প্রতিরোধ কমিটি বলেন,  ইউরোপিয়ান কান্ট্রিগুলো পরিস্কার পরিচ্ছন্ন , কিন্তু আমাদের দেশ পরিস্কার না, তবে শাস্তির দেশ। তিনি বলেন, ইসলামের অনুশাসনে চললে সন্ত্রাস ও নাশকতা থাকবে না। আল্লাহ নবীজিকে বলেছেন, আপনি উম্মতদের নামাজ কায়েম করার নির্দেশ দিবেন। যত খারাপ কাজ আছে নামাজ তা থেকে ফিরাবে। সন্ত্রাস ও নাশকতা হবেনা। কারন যে নামাজ পড়বে সে আল্লাহ্র ঝান্ডা নিয়ে বেরুবে। আর যে নামাজ ছেড়ে দেবে সে শয়তানের ঝান্ডা নিয়ে বেরুবে। তার দ্বারা অনিষ্ট বা অনিয়ম কাজ হবেই। একজন মুসলমান আরেকজন মুসলমানকে নামাজের দাওয়াত দিলে হাত ধরলে কেউ এর বিরোধিতা করবে না। এভাবে নামাজে আকৃষ্ট হলেই সকল খারাপ কাজ বন্ধ হয়ে যাবে। শান্তি নেমে আসবে।

 

জনাব মো: মোশারফ হোসেন পুসিত্ম, চেয়ারম্যান, রামপালবলেন, রামপালের কিছু স্পট আছে যেখানে হোন্ডা নিয়ে কিছু ছেলেপেলে ঘোরাফেরা করে। সন্ত্রাস ও নাশকতা নিয়ে তার ইউনিয়নে সকলেই সজাগ রয়েছেন। এ অবস্থা বিরাজ থাকার জন্য নিয়মিত মিটিংয়ের মাধ্যমে সকলকে পরামর্শের মাধ্যমে সচেতনতা সৃষ্টি করা হচ্ছে বলে জানান।

 

জনাব মো: সোহরাব হোসেন, চেয়ারম্যান, আধারা ইউনিয়ন পরিষদবলেন, তার ইউনিয়নে সন্ত্রাস নাই। তবে ১৬ ডিসেম্বর চিটাগাং-এ বিজয় মিছিলে সন্ত্রাসী হামলা হওয়ায় সকলকে সজাগ থাকার অনুরোধ জানান।

 

জনাব তোতা মিয়া মুন্সী,চেয়ারম্যান, বজ্রযোগিনী ইউনিয়ন পরিষদ বলেন, স্বাধীনতার বিজয় মাসে তার ইউনিয়নে নাশকতা ও আইন-শৃঙ্খলা পরিস্থিতি ভাল রয়েছে। মাঝে মাঝে জায়গা সম্পত্তি ও নারী সংক্রান্তে কিছু ঘটনায় আইন-শৃঙ্খলা পরিস্থিতি বিঘ্ন হয়। তবে সকল ব্যপারে সজাগ থাকায় পরিস্থিতি ভাল রয়েছে এবং কোন খারাপ অবস্থা যেন না হয় সেদিকে দৃষ্টি রেখেছেন।

 

জনাব মো: সোহরাব হোসেন নান্নু, চেয়ারম্যান, বাংলাবাজার ইউনিয়ন পরিষদবলেন, পরিস্থিতি ভাল রয়েছে। তবে শীতের মৌসুমে ওয়াজ মাহফিলের ব্যাপক প্রসার ঘটে। সেখানে দাওয়াতী হিসেবে উপস্থিত থাকেন। এসকল ওয়াজ মাহফিলে সন্ত্রাস ও নাশকতা প্রতিরোধে বক্তব্য রাখা হলে এর ব্যাপক প্রসার ও সফলতা আসবে বলে তিনি মনে করেন।

 

জনাব আক্তারুজ্জামান, চেয়ারম্যান, চরকেওয়ার, ইউনিয়ন পরিষদবলেন, বিজয়ের মাসে শ্রদ্ধার সাথে স্মরন করেন যার নেতৃত্বে একটি স্বাধীন বাংলাদেশ পেয়েছেন, যিনি একটি সুন্দর পতাকা উপহার দিয়েছেন বাঙ্গালী জাতিকে। বঙ্গবন্ধুর ডাকে সাড়া দিয়ে যারা মুক্তিযুদ্ধ করেছেন, দেশ মাতৃকার স্বাধীনতার জন্য যারা যুদ্ধে শহীদ হয়েছেন। যারা বেঁচে আছেন, তাদেরও তিনি শ্রদ্ধা ও সম্মান করেন। তিনি বলেন, মুক্তিযোদ্ধারা দেশ স্বাধীন না করলে আজ স্বাধীন দেশে কথা বলার অনুমতি পেতেননা। তিনি আরও বলেন, তার ইউনিয়নে সন্ত্রাস ও নাশকতা পরিস্থিতি ভাল। তার ইউনিয়নে কেউ সন্ত্রাস করে থাকতে পারবেনা বলে জানান।

 

জনাব জামাল হোসেন, প্রতিনিধি,সন্ত্রাস ও নাশকতা প্রতিরোধ কমিটি বলেন, বিজয়ের মাসে গভীর শ্রদ্ধার সাথে স্মরন করতে হয় যার নেতৃত্বে শ্রমিক, জনতাসহ সমগ্র দেশবাসী ঝাঁপিয়ে পড়েছিল সেই জাতির পিতাকে। জাতীয় চার নেতাকে স্মরন করেন। মুক্তিযুদ্ধে ৩০ লক্ষ শহীদের রক্তের বিনিময়ে প্রাপ্ত এদেশের শহীদদের আত্মার মাগফেরাত কামনা করেন। বিজয়ের মাসে প্রাপ্তি হচ্ছে ১১ ডিসেম্বর হানাদার মুক্ত দিবসে মুন্সীগঞ্জের সকল মুক্তিযোদ্ধা এক হয়েছিল। ভবিষ্যৎ প্রজন্মকে শিক্ষা দেওয়ার জন্য এভাবে ব্যবস্থা নিতে হবে। কারন ৭৫ এর পর যে সকল নাট্যকার, যারা স্বাধীনতা বিরোধিতা করেছে বিগত সরকার তাদের লালন পালন করে আসছে। প্রতিটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে জাতীয় পতাকা উত্তোলন, জাতীয় সঙ্গীত গাওয়া বাধ্যতামূলক। ১৪ ডিসেম্বর শিক্ষা মন্ত্রীর দেয়া ভাষনের বিষয়ে বলেন, শিক্ষামন্ত্রী বলেছেন, জাতীয় সঙ্গীত গাওয়া ও পতাকা আমাদের অহঙ্কার। মাদ্রাসাগুলোতে পতাকা উত্তোলিত হয়না। জাতি যদি পতাকাকে সম্মান না দেয় তাহলে প্রজন্ম সঠিক ইতিহাস জানবেনা। জাতীয় সঙ্গীত ও পতাকা বিষয়ে আইন আছে তা প্রয়োগ করতে হবে। সাংবিধানিকভাবে মসজিদে পতাকা উত্তোলনের বিধান নাই। মাদ্রাসা হচ্ছে শিক্ষা প্রতিষ্ঠান। সংবিধান অনুযায়ী শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে পতাকা উত্তোলিত হবে। আসন্ন নির্বাচন উপলক্ষ্যে ভাড়াটিয়া লোকদিয়ে নিজেদের উপর আক্রমন করে ঘটনা সাজানো হচ্ছে বলে জানান। ১৪ ডিসেম্বর রাত ২.১০ মিনিটের কিছুক্ষন পর মসজিদে ডাকাত বলে চিৎকার শুনা গেছে। নির্বাচন নিয়ে ব্যসত্ম থাকার কারনে সন্ত্রাসীরা ডাকাতির ঘটনা ঘটিয়ে যেতে পারে মর্মে ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তাকে বিষয়টি দেখার অনুরোধ করেন। নির্বাচনের আগে সন্ত্রাসীদের এবং যাদের অস্ত্র আছে, সেসকল সন্ত্রাসীদের গ্রেফতার করলে নির্বাচন পরিস্থিতি সুন্দর হবে এবং পৌরসভার কিছু কেন্দ্রে সন্ত্রাসী গ্রপের তৎপরতা রয়েছে বলেও সেদিকে দৃষ্টি রাখার অনুরোধ রাখেন।

 

Rbve mvgQzj কবির, সদস্য-সচিব,উপজেলা সন্ত্রাস ও নাশকতা প্রতিরোধ কমিটি বলেন,  ডিসেম্বর বিজয়ের মাস। এমাসে ১১ তারিখ মুন্সীগঞ্জ হানাদার মুক্ত দিবসে উপজেলা চেয়ারম্যান ও জেলা কমান্ডারের নেতৃত্বে সর্বসত্মরের জনগন প্রতি উপজেলার মুক্তিযোদ্ধাদের সমন্বয়ে সুন্দরভাবে পালন করা হয়েছে। সদর উপজেলায় সকলের সক্রিয়তা ও আন্তেরিক পরিশ্রমের কারনে সব মিলিয়ে সকলে ভাল রয়েছে। সেজন্য আন্তেরিক অভিনন্দন ও শুভেচ্ছা জানান। তিনি বলেন, সভায় সকলে উপস্থিত থেকে প্রত্যেকের কাজ সুষ্ঠভাবে সম্পন্ন করলে সুন্দর ও শান্তিতে থাকা যাবে আশা রাখেন। মুন্সীগঞ্জ ও মিরকাদিম পৌরসভার নির্বাচন যেন সুন্দরভাবে সম্পন্ন করা যায় তার জন্য ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তার প্রতি অনুরোধ রাখেন।

 

জনাব মো: ইউনুচ, ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা, মুন্সীগঞ্জ সদর থানা বলেন, পৌরসভা নির্বাচন উপলক্ষ্যে কেউ যেন পরিস্থিতি ঘোলাটে করতে না পারে তা আগে থেকেই নজর রাখা হচ্ছে বলে জানান। কেউ সন্ত্রাস ও নাশকতার মাধ্যমে পরিস্থিতি খারাপ করতে চাইলে তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে। যদি কারো কাছে তথ্য থাকে অস্ত্রের মাধ্যমে কেউ সন্ত্রাস করতে চায় তাহলে খবর দেয়ার অনুরোধ করেন। সেটা রাত ০২.০০টা অথবা ০৩.০০ টা হোক। সন্ত্রাসীদের সাথে কোন আপোষ নেই বলে জানান। কেউ সরকারের ভাবমূর্তি ক্ষুন্ন করতে চাইলে তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিবেন বলে জানান। প্রতিনিধি জামাল হোসেনের ডাকাত বক্তব্য বিষয়ে বলেন, রাতে ডাকাত বলে যে মাইকিং হয়েছিল তা মোল্লারচর । তিনি সেখানে গিয়ে খোঁজ নিয়েছেন এধরনের কোন ঘটনা ঘটেনি। একটি বাড়ীতে কে বা কারা গরুর দড়ি কেটে দিয়েছে, এটা নিয়ে মসজিদে ডাকাত বলা হয়েছে।

 

বেগম মেহেরুননেছা নাজমা, ভাইস চেয়ারম্যান, (মহিলা)বলেন, ডিসেম্বর বিজয়ের মাস। চলতি মাসের আইন-শৃঙ্খলা পরিস্থিতি ভাল ছিল। সকল অনুষ্ঠান সুন্দরভাবে সম্পন্ন হয়েছে। মুক্তিযুদ্ধে ৩০ লক্ষ শহীদ  হয়েছেন, তিনি তাদের আত্মার মাগফেরাত কামনা করেন। ২ লক্ষ মা বোনের ইজ্জতের বিনিময়ে এ দেশ। যে সকল মুক্তিযোদ্ধা বেঁচে আছেন তাদের সুস্বাস্থ্য কামনা করেন। তিনি বলেন, প্রথমবারের মত স্থানীয় সরকারে দলীয় প্রতিকে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে। একটি ষড়যন্ত্রকে উপেক্ষা করে বর্তমান সরকার যেভাবে দেশবাসীকে সামনের দিকে নিয়ে যাচ্ছে, তা প্রতিহত করার জন্য বিরোধিরা একটার পর একটা ষড়যন্ত্র করে যাচ্ছে। মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় যারা আছেন তাদের মাধ্যমে যেন নির্বাচন সুন্দর হয়, জনগনের ইচ্ছার প্রতিফলন হয় তার আশা রাখেন বলে জানান।

 

জনাব আনিছ উজ্জামান, চেয়ারম্যান, উপজেলা পরিষদ, সদর ও উপদেষ্টা,উপজেলা সন্ত্রাস  ও নাশকতা প্রতিরোধ কমিটি বলেন, শেষ বলে কোন কথা নেই। সকলে মিলে সামনের দিকে এগিয়ে যেতে হবে। ২০১৫ সে অর্থে শেষ নয়। মুন্সীগঞ্জের আইন-শৃঙ্খলা পরিস্থিতি ভাল থাকার কারনে সকলেই ভাল রয়েছে। উদিচী ও রমনা বটমূলে যে সন্ত্রাসের সূচনা হয়েছিল হেফাজতের ঘটনায় বর্তমান সরকারের প্রচেষ্টায় এখন অনেক সুন্দর হয়েছে। স্বাধীনতা বিরোধিরা বিদেশের কাছে আমাদের ভাবমূর্তি নষ্ট করার জন্য চেষ্টা করে যাচ্ছে। তিনি বলেন, জাতীয় পতাকা উত্তোলন এবং জাতীয় সঙ্গীত গাওয়া বিষয়ে মাদ্রাসার প্রিন্সিপালদের ডাকা হয়েছিল। তাদের পরামর্শ দেয়া হয়েছে। আইন ভঙ্গ করলে শাসিত্মর ব্যবস্থা রয়েছে। যেভাবে সকলে কাজ করে যাচ্ছে এভাবে চালিয়ে গেলে সন্ত্রাস কমে যাবে, পরিস্থিতি ভাল থাকবে। ৩০ ডিসেম্বর নির্বাচন সরকারের কাম্যমতে সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন করার বিষয়ে সকলের প্রতি অনুরোধ রাখেন। সরকার দেশবাসীকে একটা সুন্দর নির্বাচন উপহার দিতে পারেন সে ব্যপারে দলের নেতৃবৃন্দের প্রতি অনুরোধ রাখেন। বঙ্গবন্ধুর নেতৃত্বে স্বাধীন দেশের সকল মুক্তিযোদ্ধাদের প্রতি সম্মান জানান।

 

জনাব শারাবান তাহুরা, উপজেলা নির্বাহী অফিসার ওসভাপতি, উপজেলা সন্ত্রাস  ও নাশকতা প্রতিরোধ কমিটি বলেন, ইউনিয়নে কারো চোখে কোন সন্ত্রাস ধরা পড়লে সাথে সাথে যেন জানানো হয়। তাহলে তড়িৎ ব্যবস্থা নেয়া হবে। সভাপতি, মাদ্রাসাগুলোতে নিয়মিত জাতীয় সঙ্গীত গাওয়া হয় কিনা এবং জাতীয় পতাকা উত্তোলিত হয় কিনা; এ বিষয়টি সংশ্লিষ্ট  সকলকে নজর রাখা এবং তালিকা তৈরীর অনুরোধ জানান। এবিষয়ে  দেশ ও জাতির মঙ্গলের বিষয়গুলো ইমামদের এবং মাদ্রাসার শিক্ষকদের বুঝাতে হবে। সংশ্লিষ্ট ইউনিয়ন কমিটির সভাপতি সভার আয়োজন করবেন এবং তাদের বুঝাবেন। তিনি আরও বলেন, কোন্ কোন্ মাদ্রাসায় জাতীয় সঙ্গীত গাওয়া এবং জাতীয় পতাকা উত্তোলন করা হয়না সেসকল মাদ্রাসার সুপার, অধক্ষ্য, প্রতিষ্ঠাতা, পরিচালক এর ফোন নম্বরসহ তালিকা তৈরী কাজে জনাব এম এ কাদের, উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার ও বীর মুক্তিযোদ্ধাদেরসহ দায়িত্ব দেয়া হবে বলে জানান।

 

 

সভায় বিস্তারিত আলোচনান্তে সর্বসম্মতিক্রমে নিমণরূপ সিদ্ধান্তে গৃহীত হয়ঃ

 

ক্র:

সিদ্ধান্তে

বাসত্মবায়নে

০১

প্রতি জুমার খুতবার পূর্বে বয়ানে সন্ত্রাস বিরোধী কার্যক্রম সম্পর্কে আলোচনার জন্য মসজিদ-মাদ্রাসার ইমামদের উদ্বুদ্ধ করতে হবে।

সভাপতি, ইউনিয়ন সন্ত্রাস ও নাশকতা প্রতিরোধ কমিটি।

০২

ইউনিয়ন ও প্রতি ওয়ার্ডে প্রতি মাসে সভা করে সভার কার্যবিবরণী সভাপতি, জেলা ও উপজেলা সন্ত্রাস ও নাশকতা প্রতিরোধ কমিটি ব­রাবর প্রতি মাসের ০৩ তারিখের মধ্যে প্রেরণ করতে হবে।

চেয়ারম্যান/সভাপতি, ইউনিয়ন/ওয়ার্ড সন্ত্রাস ও নাশকতা প্রতিরোধ কমিটি।

০৩

উপজেলায় অবস্থিত মাদ্রাসাগুলোতে নিয়মিত জাতীয় সঙ্গীত গাওয়া হয় কিনা এবং জাতীয় পতাকা উত্তোলন করা হয় কিনা; সে বিষয়ে তথ্য প্রদানের সিদ্ধান্তে গৃহীত হয়।

চেয়ারম্যান/সভাপতি, ইউনিয়ন/ওয়ার্ড সন্ত্রাস ও নাশকতা প্রতিরোধ কমিটি।

০৪

কোন্ কোন্ মাদ্রাসায় জাতীয় সঙ্গীত গাওয়া হয়না এবং জাতীয় পতাকা উত্তোলন করা হয়না সেসকল মাদ্রাসার সুপার, অধক্ষ্য প্রতিষ্ঠাতা, পরিচালক এর ফোন নম্বরসহ তালিকা তৈরী কাজে জনাব এম এ কাদের, উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার এর প্রস্তাবের আলোকে দায়িত্ব দেয়ার সিদ্ধান্তে গৃহীত হয়।

সভাপতি/সদস্য-সচিব, সন্ত্রাস ও নাশকতা প্রতিরোধ কমিটি।

 

        

  অতঃপর, আর কোন আলোচনার বিষয়  না থাকায় সভাপতি সকলকে ধন্যবাদ জানিয়ে সভার সমাপ্তি ঘোষনা করেন।

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

উপজেলা নির্বাহী অফিসার

মুন্সীগঞ্জ সদর, মুন্সীগঞ্জ।

 

 


 

স্মারক নং- ০৫.৩০.৫৬৫৯.০০৬.০১.০০২.১৪-           (৭০)                                          তারিখ :        -০১-২০১৬ খ্রিঃ।

 

অনুলিপিঃ  সদয় জ্ঞাতার্থেঃ

০১।  মাননীয় সংসদ সদস্য, মুন্সীগঞ্জ-৩ আসন, মুন্সীগঞ্জ।

০২।  জেলা প্রশাসক, মুন্সীগঞ্জ।

০৩।  চেয়ারম্যান, উপজেলা পরিষদ, মুন্সীগঞ্জ সদর, মুন্সীগঞ্জ।

 

অনুলিপিঃ  জ্ঞাতার্থে ও কার্যার্থেঃ

 

০১।  অফিসার ইনচার্জ, মুন্সীগঞ্জ সদর থানা, মুন্সীগঞ্জ।

০২।  সভাপতি/সদস্য-সচিব,...............................................

        ইউনিয়ন সন্ত্রাস ও নাশকতা প্রতিরোধ কমিটি, মুন্সীগঞ্জ সদর, মুন্সীগঞ্জ।

০৩।  জনাব.............................................      

উপজেলা নির্বাহী অফিসার

মুন্সীগঞ্জ সদর, মুন্সীগঞ্জ।

 

 

উপজেলা পরিষদ

মুন্সীগঞ্জ সদর, মুন্সীগঞ্জ

মুন্সীগঞ্জ সদর উপজেলা পরিষদের জুলাই / ২০১৫ মাসে অনুষ্ঠিত মাসিক সভার কার্যবিবরণী।

আলোচ্য মাস- জুন / ২০১৫

 

সভাপতি     :

 

 

জনাব মোঃ আনিছ উজ্জামান

চেয়ারম্যান, উপজেলা পরিষদ,

মুন্সীগঞ্জ সদর, মুন্সীগঞ্জ।

স্থান           :

উপজেলা পরিষদ সম্মেলন কক্ষ।

তারিখ ও সময়ঃ

২৯.০৭.২০১৫ খ্রিঃ বেলা ১২.০০ ঘটিকা

 

(সভায় উপস্থিত সদস্যদের তালিকা পরিশিষ্ট -‘ক’ )

( সভায় অনুপস্থিত সদস্যদের তালিকা পরিশিষ্ট-‘খ’)

 

সভাপতি উপস্থিত সকলকে স্বাগত জানিয়ে সভার কাজ শুরু করেন।  সভাপতি গত সভার কার্যবিবরণী পাঠ ও অনুমোদনের জন্য সকলকে আহবান জানান। 

আলোচ্যসূচি-০১: বিগত সভার কার্যবিবরণী পাঠ ও অনুমোদন- বিগত সভার কার্যবিবরণী পাঠ করে শুনানো হয় এবং তা যথাযথভাবে উপস্থাপিত হওয়ায় সর্বসম্মতিক্রমে অনুমোদন করা হয়।

আলোচ্যসূচি-০২: বিগত সভায় গৃহীত সিদ্ধান্ত বাস্তবায়ন ও অগ্রগতি পর্যালোচনা।

নং

বিভাগ

সিদ্ধান্ত

অগ্রগতি

০১

 উপজেলা স্বাস্থ্য বিভাগ

০১। কমিউনিটি ক্লিনিক এবং ইউনিয়ন স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ কেন্দ্রের সকল কাজ নিয়মিত মনিটরিং করতে হবে। ০২। উপজেলা স্বাস্থ্য কমপেস্নক্সে সেবার মান বৃদ্ধি করতে হবে।

০১। কার্যক্রম চলমান আছে।

০২

উপজেলা কৃষি বিভাগ

 

০১। বিশেষ কর্মসূচী ও মাননীয় প্রধানমন্ত্রী কর্তৃক নির্দেশিত কার্যক্রম বাস্তবায়নের জন্য গুরুত্ব দিতে হবে।

০১। কার্যক্রম চলমান আছে।

০৩

উপজেলা প্রাণীসম্পদ বিভাগ

 

০১। ১০০ জন খামারীর হাতে কলমে প্রশিক্ষণ প্রদান ও প্রয়োজনীয় ঔষধ  ও প্রতিষেধক টিকা সরবরাহের সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

 

০২। কার্যক্রম চলমান আছে

০৪

উপজেলা প্রকৌশল বিভাগ

০১। সভায় বিস্তারিত আলোচনা হয়। আলোচনামেত্ম সংশ্লিষ্ট ঠিকাদারের কার্যাদেশ  বাতিলসহ ১ বছরের জন্য কালোতালিকাভূক্ত করার সর্বসম্মত  সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।  

০১। চলমান আছে।

০৫

 উপজেলা সমাজসেবা বিভাগ

০১। ক্ষুদ্রঋণ আদায়ের হার ১০০% নিশ্চিত করতে হবে।

০২। ভাতা বিতরন ও ক্ষুদ্র ঋণ কার্যক্রম সহ অন্যান্য  কার্যক্রম সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন করতে হবে।

০৩। আগামী সভার পূর্বে প্রতিবন্ধী ভাতাপ্রাপ্তদের ডাটাবেজ তৈরী এবং প্রতিটি আবেদন সকল কাগজপত্র সহ উপজেলা নির্বাহী অফিসার এর নিকট উপস্থাপন করতে হবে।

০১। চলমান আছে।

০৬

উপজেলা দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা  বিভাগ

০১। প্রকল্পগুলো যথাযথভাবে সম্পন্ন হয়েছে কিনা তা পরিদর্শন করে প্রতিবেদন দিবেন।

০১। কার্যক্রম চলমান আছে।

০৭

উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা বিভাগ

০১। যেসকল মাধ্যমিক শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে সরকার কর্তৃক মাল্টিমিডিয়া সরবরাহ করা হয়েছে, সেসকল প্রতিষ্ঠানে নিয়মিত মাল্টিমিডিয়া ক্লাস নেয়া হয় কিনা, তা মনিটরিং করার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।    

০১। মনিটরিং অব্যাহত আছে।

০৮

উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা বিভাগঃ 

০১। প্রাথমিক বিদ্যালয় সমূহের কার্যক্রম তদারকি করে প্রতিমাসের ০৩ তারিখের মধ্যে প্রতিবেদন দিবেন।

০১। কার্যক্রম চলমান আছে।

০৯

উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা বিভাগ

 

০১।  জনসংখ্যা নিয়ন্ত্রণে স্থায়ী ও দীর্ঘ মেয়াদী  পদ্ধতি বাড়ানোর সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

০১। অব্যাহত আছে।

১০

জনস্বাস্থ্য প্রকৌশল বিভাগ

 

০১। যে সকল প্রাথমিক বিদ্যালয়ে টিউবওয়েল নেই বা নষ্ট হয়ে গেছে সেসব বিদ্যালয়ের জন্য টিউবওয়েল চেয়ে মন্ত্রণালয়ে পত্র দেয়ার  সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

০১। কার্যক্রম চলমান আছে।

১১

 

পল্লী উন্নয়ন বোর্ড

০১। ঋণের কিস্তি আদায়ে আরো তৎপর হওয়ার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

০২। একটি বাড়ি একটি খামারের মাসিক তথ্য উপস্থানের সিদ্ধান্ত গৃহীত

হয়।

০৩। খরচ বাবদ ১,৮০,০০০/-টাকা অনুমোদন করা হলো এবং বাকী ১,৮০,৫৫৭/১০ বিআরডিবির হিসাবে ও অবশিষ্ট ২০,০৬১/৯০ টাকা রাজস্ব খাতে জমা করার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

০১। চলমান আছে।

১২

বি এ ডিসি  (সেচ)

০১। গত ১৯১২-১৩,১৯১৩-১৪ ও ১৯১৪-১৫ অর্থ বছরে যে কয়টি খাল  ও সেচনারা তৈরী হয়েছে, তার তালিকা আগামী সভায় উপস্থাপনেরসিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

০১। চলমান আছে।

১৩

উপজেলা নির্বাচন বিভাগ

এ ধারা অব্যাহত রাখার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

০১। চলমান আছে।

১৪

উপজেলা পরিসংখ্যান  বিভাগ

এ ধারা অব্যাহত রাখার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

০১। চলমান আছে।

 

আলোচ্যসূচি-০৩: বিভাগ ভিত্তিক আলোচনাঃ

নং

 

সিদ্ধান্ত

বাস্তবায়নে

 

৩.১

উপজেলা স্বাস্থ্য বিভাগঃউপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা সভায় জানান যে, চিকিৎসা সেবার মান উত্তরোত্তর বৃদ্ধির চেষ্টা অব্যাহত আছে। তিনি আরো জানান, সদর উপজেলায় উপ-স্বাস্থ্য কেন্দ্র-০২ টি । সেবা প্রাপ্ত রোগীর সংখ্যা : পুরুষ-১০৩৪ জন, মহিলা-১৩২৮ জন, শিশু-৪১০ জন, মোট = ২৭৭২ জন। চালুকৃত কমিউনিটি ক্লিনিকের সংখ্যা : ১৪ টি। রোগীর সংখ্যা- পুরুষ : ৩৪৫৮ জন, মহিলা : ৪৭৮০ জন, শিশু : ১৯১৪ জন, মোট = ১০১৫২ জন। শিশু জন্মের সংখ্যাঃ পুরুষ- ৩২২ জন, মহিলা -৩২৬ জন, মোট = ৬৪৮ জন। মৃত্যুর সংখ্যাঃ ০-৭ দিন = ০৯ জন, ০৮-২৮ দিন = ০৩ জন, ২৯ দিন-১ বৎসর = ১৪ জন, মৃত জম্মের সংখ্যা ০১ জন, ১-৫ বছরের মধ্যে = ১৫ জন। পানিতে ডুবে- ০১ জন ০৫ বছরের উর্দ্ধে = ৯৯ জন। ই,পি,আই কার্যক্রমঃ  বিসিজি ৮%, পেন্টা ৮%, পোলিও ৮%, এম,আর ৮%, হাম ৮%, টিটি ৮%। ডায়রিয়া রোগীর কার্যক্রমঃ নো- ডিহাইড্রেশনঃ  ১৩০৪ জন, সাম- ডিহাইড্রেশনঃ ৪ জন, সিভিয়ার ডিহাইড্রেশনঃ ০০ জন, মোট = ১৩০০ জন। টিবি রোগী (চিকিৎসাধীন) কার্যক্রমঃ পুরুষ ১৯ জন, মহিলা ৮ জন,শিশু-০১ জন মোট = ২৮ জন । কুষ্ঠ রোগী (চিকিৎসাধীন) কার্যক্রমঃ পুরুষ  ০৭ জন, মহিলা - ০৩ জন, শিশু - নাই, মোট = ১০ জন। আর্সেনিকোসিস রোগী (চিকিৎসাধীন) কার্যক্রমঃ পুরুষ - ১৩৮ জন, মহিলা - ১০১ জন, শিশু - নাই, মোট = ২৩৯ জন। তিনি আরো জানান,বর্তমানে নতুন কোন কার্যক্রম নেই।  

১। কমিউনিটি ক্লিনিক এবং ইউনিয়ন স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ কেন্দ্রের সকল কাজ নিয়মিত মনিটরিং করতে হবে।

২। উপজেলা স্বাস্থ্য কমপেস্নক্সে সেবার মান বৃদ্ধি করতে হবে।

 উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা অফিসার, মুন্সীগঞ্জ

 

 

 ৩.২

উপজেলা কৃষি বিভাগ :  উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা  তাঁর বিভাগের কার্যক্রম তুলে ধরেন। ফসল আবাদঃ খরিপ- ২ মৌসুমঃ আউশ আবাদ-১৭৩ হেক্টর,   বোনা আমন আবাদ- ৬৪৬৫ হেক্টর,  ধৈঞ্চা আবাদ- ৬২০ হেক্টর, শাক সব্জী আবাদ-১২৫ হেক্টর।

পাট কর্তনঃ পাট আবাদ হয়েছে-৫৩৭ হেক্টর, বর্তমানে কর্তন চলছে, এ যাবৎ ৪৩০ হেক্টর কর্তন হয়েছে।

কাইজেন থিমঃ ‘‘শাক সব্জী ও ফলমূলে ব্যবহৃত বালাইনাশক প্রিজারভেটিভ এবং রাইপেনার এর ক্ষতিকর প্রভাব দূর করার সহজ উপায় সম্পর্কে জনসচেতনতা বৃদ্ধিকরন’’ শিরোনামে ক্ষুদ্র উন্নয়ন কর্মসূচী কৃষি বিভাগে নেয়া হয়েছে। কর্মসূচী বাস্তবায়নে পোষ্টার ও লিফলেট তৈরী করে প্রদর্শন, ১২৮ টি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে আলোচনা ও ১৫০ টি সাধারণ দলীয় আলোচনা এবং ০৫ টি কৃষক প্রশিক্ষণ/মাঠ দিবসে বিষয়টি নিয়ে উদ্বুদ্ধকরণ কার্যক্রম চলমান আছে।

বৃক্ষরোপন কর্মসূচীঃ বর্তমানে বৃক্ষরোপন চলছে। লক্ষ্যমাত্রাঃ ফলজ-২১২২৫ টি, ঔষধি-১৪০৯ টি। এ পর্যন্ত ফলজ-১৩৬৪২ টি, ঔষধি-১৬১৩ টি অর্জিত হয়েছে। ফলজ বৃক্ষরোপন কার্যক্রম চলমান আছে।

 বিশেষ কর্মসূচী গ্রহণঃ বর্তমান মৌসুমে ২৭০০ টি আমচারা ক্যাফট গ্রাফটিং করে উন্নত জাতের চারা উৎপাদন করার লক্ষ্যমাত্রা গ্রহণ করা হয়েছে। এ পর্যন্ত ৮৫০ টি অর্জিত হয়েছে। অপ্রচলিত ফল তাল ও খেজুর প্রতি ব্লকে ৩০০ চারা/বীজ লাগানের কর্মসূচী গ্রহণ করা হয়েছে।

এ ছাড়াও মাননীয প্রধানমন্ত্রী কর্তৃক নির্দেশিত ২৭ টি বিশেষ কার্যক্রমের লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ পূর্বক কাজ যথারীতি এগিয়ে যাচ্ছে।   

সার,বীজ সরবরাহ ও মজুদ পরিস্থিতিঃ সার ও বীজের মজুদ সন্তোষজনক।

এ ছাড়াও বিভাগীয় নিয়মিত কার্যক্রম সুষ্ঠু ও স্বাভাবিকভাবে চলছে।

 

 

এছাড়া বিভাগীয় নিয়মিত কার্যক্রম সুষ্ঠু ও স্বাভাবিক ভাবে চলছে।

১।  মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনার ২৭ টি বিশেষ কর্মসূচী এবং অপ্রচলিত ফল তাল ও খেজুর চারা রোপনের কার্যক্রম বাস্তবায়নে সর্বোচ্চ গুরুত্ব দিতে হবে।

 উপজেলা কৃষি অফিসার

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

          

 

৩.৩

উপজেলা মৎস্য বিভাগঃ  সিনিয়র উপজেলা মৎস্য  অফিসার সভায় জানান, উপজেলার ৪টি মাছ বাজারে ফরমালিন বিরোধী অভিযান পরিচালনা করা হয়েছে। ৮ জন মাছ চাষীর পুকুর সরেজমিন পরিদর্শন করে তাদের বৈজ্ঞানিক পদ্ধতিতে মাছ চাষ করার পরামর্শ প্রদান করা হয়েছে। ০১টি মৎস্য খাদ্যের নমুনা গুণগত মান ও ভেজাল পরীক্ষার নিমিত্ত মৎস্য অধিদপ্তরের মান নিয়ন্ত্রণ ল্যাবে পাঠানো হয়েছে। বিগত ০২ মাস যাবৎ পাঠানো মৎস্য খাদ্যের নমুনায় কোন ভেজাল দ্রব্যাদি পাওয়া যায়নি। ‘‘সাগর নদী সকল জলে- মাছ চাষে সোনা ফলে’’ এই শেস্নাগানের মাধ্যমে ২৮/০৭/১৫ খ্রিঃ তারিখে মুন্সীগঞ্জ জেলার স্থানীয় গণ্যমান্য নেতা, ব্যক্তিবর্গ, মাছ চাষী, মৎস্যজীবি, জেলে, মাছ বিক্রেতা, সরকারী-বেসরকারী সংস্থার কর্মকর্তা/কর্মচারী এনজিও কর্মী এবং মিডিয়া কর্মীগণের অংশগ্রহণে মুন্সীগঞ্জ জেলা প্রশাসকের কার্যালয় হতে সড়ক র‌্যালীর শহর প্রদক্ষিণ শেষে শিল্পকলা একাডেমীতে জাতীয় মৎস্য সপ্তাহ’২০১৫ খ্রিঃ এর বর্ণাঢ্য শুভ উদ্বোধনী অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়। 

 

 

 

৩.৪

উপজেলা প্রাণীসম্পদ বিভাগঃ  উপজেলা প্রাণীসম্পদ কর্মকর্তা তার বিভাগীয় কার্যক্রম তুলে ধরেন। ০১। রোগ প্রতিরোধ ব্যবস্থা : (ক) গবাদি পশুর টিকাদানঃ ৪,৪৩৬ মাত্রা (খ) হাঁস মুরগীর টিকাদানঃ ৫২,৩০০ মাত্রা। (গ) গবাদি পশুর চিকিৎসাঃ ২৬০৩ টি (ঘ) হাঁস মুরগীর চিকিৎসাঃ ২৩,৬৭৬ টি (ঙ) কৃত্রিম প্রজননের সংখ্যাঃ ১,৫৫৪ টি (চ) বাচ্চা জন্মের সংখ্যাঃ (ক) এঁড়ে  : ৩১২ টি

                                                                            (খ) বকনা : ৩৫৬ টি

                                                                               মোট     : ৬৬৮ টি

সম্প্রসারণ কার্যক্রমঃ- (ক) ০১ দিনের মুরগীর বাচ্চা বিতরণঃ ৮৫,০০০ টি। (খ)  গাভীর খামার স্থাপনঃ  ০৩ টি। (গ) মুরগীর খামার স্থাপন = ০৬ টি, (ঘ) হাঁসের খামার স্থাপন-০১টি (ঙ) ছাগলের খামার স্থাপন-০২ টি (চ) ভেড়ার খামার স্থাপন -০৮ টি  (ছ) বিভাগীয় প্রশিক্ষণঃ ৬৯১ জন

(জ) ঘাসচাষ (একর)-৪.৭৫ একর।

রাজস্ব আয়ঃ- (ক) টিকাবীজ বিক্রয় বাবদ =১৩,৫৫০/ টাকা। (খ) কৃত্রিম প্রজনন ফি বাবদ = ৩৭,৫২৭/ টাকা। মোট আয় = ৫১,০৭৭/- টাকা। তিনি ধনী ব্যক্তিদের অধিক সংখ্যায় পশু কুরবাণী না করে   সীমিত কুরবাণী দেওয়ার জন্য অনুরোধ করেন।

 আসন্ন ঈদ-উল- আযহায় মোটাতাজাকরণ প্রাণিতে ষ্টেরয়েড ঔষধ এর ব্যবহার খামারীদের সম্পূর্ণ নি রুৎসাহিত বিষয়ে সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

উপজেলা প্রাণিসম্পদ কর্মকর্তা

 

৩.৫

উপজেলা প্রকৌশল বিভাগ :উপজেলা প্রকৌশলী সভায় জানান যে, বিগত ২০১৪-১৫ ইং অর্থ বছরে বার্ষিক উন্নয়ন কর্মসূচীর ‘‘আধারা জাজিরা বকচর রাস্তার জাজিরা মসজিদ হতে তোফাজুল গাজীর বাড়ী পর্যন্ত রাস্তা BFSদ্বারা উন্নয়ন’’ গ্রুপ নং-২৬ প্রকল্পটি বাদে অন্য সকল প্রকল্পের কাজ সুষ্ঠুভাবে সমাপ্ত হয়েছে।  কিন্তু জুন/২০১৫ইং মাসের সভার কার্যবিবরনীতে বাতিলকৃত ২৬নং প্যাকেজের ঠিকাদারের নাম  মেসার্স রুবিনা এন্টারপ্রাইজ, প্রোঃ মোঃ নাজমুল হুদা, কোর্টগাও, সদর মুন্সীগঞ্জ, ভূল ছাপা হয়েছে। যার প্রকৃতপক্ষে নাম হবে মেসার্স এইচ, আর, বি এন্টারপ্রাইজ,পোঃ মোঃ আবু হাছান ভূইয়া,মধ্য কোর্টগাও, সদর মুন্সীগঞ্জ। ব্যথ ঠিকাদারের কার্যাদেশ বাতিল ও ১ বছরের জন্য কালো তালিকাভূক্ত করার জন্য বিগত সভায় সর্বসম্মত সিদ্ধান্ত রয়েছে। তাছাড়া ২০১৫-২০১৬ইং অর্থ বছরের বাষিক উন্নয়ন কর্মসূচীর(এডিপি) প্রকল্পের তালিকা অতিসত্বর প্রদানের জন্য সকল ইউপি চেয়ারম্যানকে অনুরোধ জানানো হয়।

 উপজেলা প্রকৌশলী সভায় আরো জানান যে, প্রাথমিক শিক্ষা প্রকল্পের আওতায় চলমান ৫টি সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের নির্মাণ কাজ সমাপ্তির পথে। ইদ্রাকপুর ০১নং ও কেওয়ার সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় ০২টির সংশোধিত প্রশাসনিক অনুমোদন অদ্যাবধি পাওয়া যায়নি। পাওয়া গেলে বিদ্যালয় ০২টিতে e-gpতে দরপত্র আহববান করা হবে। অসচ্ছল মুক্তিযোদ্ধাদের বাসস্থান নির্মাণ প্রকল্পের আওতায় অনুমোদিত ৮টি বাসস্থানের মধ্যে ০৪টি বাসস্থানের বাস্তবায়নের প্রক্রিয়া চলমান রয়েছে। ১টি বাসস্থানের জন্য জমির সীমানা নিধারন জায়গা বুঝিয়ে না দেওয়ায় এবং ১টি প্রকল্পের জমি ভরাটের কাজ চলমান থাকায় প্রকল্পের কাজ শুরু করা যায়নি। অন্য ২টি বাসস্থানের নির্মান কাজের কার্যাদেশ পাওয়া গেলে কাজ শুরু করা হবে। তিনি  ২০১৫-২০১৬ অর্থবছরে সকল সম্মানিত                                                       চেয়ারম্যানগণকে প্রকল্প দাখিল করার জন্য অনুরোধ করেন যাতে আগামী মাসিক সভার আগে কার্যক্রম শুরু করা যায়।  .  

 

 

 

১। সভায় বিস্তারিত আলোচনা হয় ।কার্যবিবরনীরেত ভূলছাপা হওয়া মেসার্স রুবিনা এনাটারপ্রাইজ এর পরিবর্তে প্রকৃত ঠিকাদার মেসার্স এইচ আর বি এন্টারপ্রাইজ নাম সংশোধন এবং ২০১৫-২০১৬ অর্থ বছরে বাষিক উন্নয়ন কর্মসূচীর আওতায় প্রকল্পের তালিকা দাখিল করতে সকল ইউপি চেয়ারম্যানকে অনুরোধ করা হয়। ।

উপজেলা প্রকৌশলী

 

৩.৬

উপজেলা সমাজসেবা বিভাগঃউপজেলা সমাজসেবা কর্মকর্তা জানান, তাঁর বিভাগের কার্যক্রম সুষ্ঠুভাবে চলছে। বিভাগীয় কাজের ধারা নিম্নণরূপঃ

ঋণ বিতরণ ও আদায়ঃ

(1)     আর, এস,এস ক্ষুদ্র ঋণ কার্যক্রমের আওতায় আদায়যোগ্য অর্থের মধ্যে (মূল ও সার্ভিস চার্জ) সর্বমোট = ৯১৩০০/-(একানববই হাজার তিনশত) টাকা আদায় হয়েছে। আদায়ের হার ৯৮%। এছাড়া ক্ষুদ্র ঋণ বিতরণ করা হয়েছে আর,এস এস=৫০,০০০/- টাকা। 

(2)    এসিডদগ্ধ ও শারীরিক প্রতিবন্ধী ব্যক্তিদের পূনর্বাসন কার্যক্রমের আওতায় সর্বমোট =৯,৪৫০/- (নয় হাজার চারশত পঞ্চাশ) টাকা আদায় হয়েছে এবং ব্যাংকে জমা করা হয়েছে। বিতরণ করা হয়েছে =৭৫,০০০/-(পঁচাত্তর  হাজার) টাকা।

ভাতা কার্যক্রমঃ২০১৪-২০১৫ অর্থ বছরে বয়স্কভাতা, বিধবা ও স্বামী পরিত্যক্তা দুঃস্থ মহিলা ভাতা, অসচ্ছল প্রতিবন্ধী ভাতা ও প্রতিবন্ধী শিক্ষা উপবৃত্তির অর্থ ৩য় কিস্তি পর্যন্ত ১০০% বিতরণ সম্পন্ন হয়েছে। প্রতিবন্ধী সনাক্তকরণ জরীপ কাজ ১০০% সম্পন্ন হয়েছে, বর্তমানে পরিচয় পত্র প্রদানের লক্ষ্যে ডাটা এন্ট্রির কাজ চলমান আছে। অন্যান্য কার্যক্রমঃ সামাজিক কার্যক্রমের আওতায় বাল্য বিবাহ রোধ যৌতুক বিরোধী প্রচারনা, জলাবদ্ধ পায়খানা ব্যবহার,বৃক্ষরোপন,পুষ্টি,পরিবার পরিকল্পনা ইত্যাদি বিষয়ে লক্ষ্যভূক্ত পরিবারের সদস্যদের মধ্যে সচেতনতা সৃষ্টির লক্ষ্যে কার্যক্রম অব্যাহত আছে। চলমান মাসে ১টি বাল্য বিবাহ প্রতিরোধ করা হয়েছে।

১। ক্ষুদ্র ঋণ আদায়ের হার ১০০% নিশ্চিত করতে হবে।

২। ভাতা বিতরণ ও ক্ষুদ্র ঋণ কার্যক্রমসহ অন্যান্য কার্যক্রম সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন করতে হবে। 

উপজেলা সমাজ সেবা কর্মকর্তা, মুন্সীগঞ্জ।

 

৩.৭

উপজেলা দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা বিভাগঃ   উপজেলা দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা বিভাগঃ  উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়নকর্মকর্তা  সভায় জানান যে, তার বিভাগের কার্যক্রম সুষ্ঠুভাবে চলছে। টিআর/কাবিখা হতে সোলার প্যানেল স্থাপনের জন্য সরকারি নির্দেশনা মোতাবেক কার্যক্রম বাস্তবায়ন করা  হয়েছে মর্মে উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা জানান। তিনি সভায় আরো জানান ২০১৪-২০১৫ অর্থ বছরে ১ম পর্যায় সাধারণ/বিশেষ/টি,আর/কাবিখা/অতি দরিদ্রদের জন্য কর্মসূচী প্রকল্পের কাজের অগ্রগতির প্রতিবেদন নিম্নরূপঃ

নং

খাতের বিবরণ

বরাদ্দের পরিমাণ

০১

বিশেষ টি,আর, নির্বাচনী এলাকা- মুন্সীগঞ্জ-০৩, ১ম পর্যায়

১৭৫.০০০ মেঃ টন

০২

বিশেষ কাবিখা, নির্বাচনী এলাকা- মুন্সীগঞ্জ-০৩, ১ম পর্যায়

১৭৫.০০০ মেঃ টন

০৩

জনাব ফজিলাতুননেসা,সংসদ সদস্য, মহিলা আসন-২২,

টি,আর-১ম পর্যায়

১৫.০০০ মেঃ টন

০৪

জনাব ফজিলাতুননেসা,সংসদ সদস্য, মহিলা আসন-২২,

কাবিখা-১ম পর্যায়

১৬.০০০ মেঃ টন

০৫

সাধারণ টি,আর ১ম পর্যায়

১১৪.২০০ মেঃ টন

 ০৬

সাধারণ কাবিখা-১ম পর্যায়

১২৬.৭৮০ মেঃ টন

০৭

মুন্সীগঞ্জ পৌরসভা-১ম পর্যায়

২৮.০০৬৬ মেঃ টন

০৮

মিরকাদিম পৌরসভা- ১ম পর্যায়

    ১৬.৩৪৪ মেঃ টন

০৯

অতিদরিদ্রদের জন্য কর্মসংস্থান কর্মসূচী

২০০৫ টি কার্ড= ১,৬০,৪০,০০০/-

১০

কমলাঘাট আশ্রয়ন প্রকল্প

   ১১৮.২৩৩ মেঃটন

১১

পবিত্র ঈদ-উল -আযহা উপলক্ষ্যে ভিজিএফ

     ৮৯,৩০০ মেঃ টন

১২

জি,আর দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়/জেলা প্রশাসক হতে প্রাপ্ত

১১২.৭৬০ মেঃ টন

১৩

বিশেষ টি, আর দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয় হতে প্রাপ্ত

   ৩৭.০০০ মেঃ টন

 

নং

২য় পর্যায়

বরাদ্দের পরিমাণ

০১

বিশেষ টি,আর, নির্বাচনী এলাকা- মুন্সীগঞ্জ-০৩, ২য় পর্যায়

৩৬,০০,০০০/-

 ০২

বিশেষ কাবিখা, নির্বাচনী এলাকা- মুন্সীগঞ্জ-০৩, ২য় পর্যায়

৮৬,০০০ মেঃ টন

 ০৩

বিশেষ কাবিটা নির্বাচনী  এলাকা,   মুন্সীগঞ্জ-০৩, ২য় পর্যায়

   ১৮,৪০,০০০/-

 ০৪

জনাব ফজিলাতুননেসা,সংসদ সদস্য, মহিলা আসন-২২,

টি,আর-২য় পর্যায়

১০,০০,০০০/-

 ০৫

জনাব ফজিলাতুননেসা,সংসদ সদস্য, মহিলা আসন-২২,

কাবিখা-২য় পর্যায়

     ৪,৮০,০০০/-

 ০৬

সাধারণ টি,আর -২য় পর্যায়

২২,৮০,১১৯/-

 ০৭

মুন্সীগঞ্জ পৌরসভা-১ম পর্যায়

৫,৬০,১৩২/৬৯

 ০৮

মিরকাদিম পৌরসভা- ১ম পর্যায়

   ৩,২৬,৮৭৯/২১

 ০৯

সাধারণ কাবিখা ২য় পর্যায়

১২৬.৬১০২ মেঃটন

 ১০

বিশেষ টি,আর, নির্বাচনী এলাকা, মুন্সীগঞ্জ-০৩, ৩য় পর্যায়  

১৯,২৬,১৩৪/-

 ১১

বিশেষ কাবিটা, নির্বাচনী এলাকা- মুন্সীগঞ্জ-০৩, ৩য় পর্যায়

৬,০০,০০০/-

 ১২

জনাব ফজিলাতুননেসা,সংসদ সদস্য, মহিলা আসন-২২,

টি,আর-২য় পর্যায়

৬,০০,০০০/-

 

 

 

 ১৩

অতিদরিদ্রদের জন্য কর্মসংস্থান কর্মসূচী

১৫৪৭টি কার্ড=১,২৩,৭৬,০০০/-

১৪

চরবেহের পাড়া আশ্রয়ন প্রকল্পের সংযোগ সড়ক নির্মাণ

৫২,৪০০ মেঃ টন

১৫

পবিত্র ঈদ-উল-ফিতর উপলক্ষ্যে ভিজিএফ

৮৯,৩০০ মেঃটন

১৬

ঢেউটিন ও গৃহ নির্মাণ

 ১৫টি পরিবার

১৭

 সেতু/কালভার্ট নির্মাণ

৭০.৯০.৯০৭/=

১৮

বিশেষ টি,আর, জেলা প্রশাসক হতে প্রাপ্ত

৬৫,০০০মেঃটন

  তিনি প্রকল্পের কাজ দ্রুত সম্পন্ন করার জন্য ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যানগণকে অনুরোধ করেন।

১। প্রকল্পগুলো যথাযথভাবে সম্পন্ন হয়েছে কিনা, তা পরিদর্শন করে প্রতিবেদন দিবেন।

উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা

এবং চেয়ারম্যান

(সকল) ইউ. পি ও ট্যাগ অফিসার

 

৩.৮

উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা বিভাগঃউপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার সভায় জানান যে,মাধ্যমিক শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে জানুয়ারি-জুন/২০১৫ (১ম কিস্তির) উপবৃত্তি বিতরণ চলছে ও প্রতিষ্ঠানে ওয়েবসাইট খোলার কাজ সম্পন্ন হয়েছে। তিনি আরো জানান, গত ২৮/০৭/২০১৫ হতে মাল্টিমিডিয়ার ক্লাশ চলছে।  দাপ্তরিক কাজ সুষ্ঠুও সুন্দরভাবে চলছে। 

১। যেসকল মাধ্যমিক  শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে সরকার কর্তৃক মাল্টিমিডিয়া সরবরাহ করা হয়েছে , সেসকল প্রতিষ্ঠানে  নিয়মিত মাল্টিমিডিয়া ক্লাস নেয়া হয় কিনা, তা মনিটরিং করার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার

 

৩.৯

উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা বিভাগঃ উপজেলা শিক্ষা অফিসার বলেন, মুন্সীগঞ্জ সদর উপজেলার সকল সরকারি প্রাথমিক  বিদ্যালয়সমূহে গ্রীষ্মকালীন অবকাশ ও পবিত্র মাহে রমজান উপলক্ষ্যে বিদ্যালয়গুলো বন্ধ ছিল। বর্তমানে ২৫/৭/২০১৫ ইং তারিখ  বিদ্যালয় কার্যক্রম শুরু হয়েছে এবং কার্যক্রম ভালভাবে চলছে। আগামী ০২/৮/২০১৫ ইং তারিখ থেকে ২য় সাময়িক পরীক্ষা শুরু হয়ে ০৯/৮/২০১৫ ইং তারিখ শেষ হবে। সকল ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মহোদয়কে স্ব স্ব ইউনিয়নের বিদ্যালয়গুলো পরিদর্শন করে শিক্ষার গুণগতমান উন্নয়নের জন্য সার্বিক সহযোগিতা গ্রহণ করার জন্য অনুরোধ করেন।  মুক্তারপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের মাঠে জলাবদ্ধতার কারণে সুষ্ঠুভাবে বিদ্যালয় পরিচালনা করা যাচ্ছে না। জলাবদ্ধতা দূরীকরণের ব্যাপারে সংশ্লিষ্ট ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান মহোদয়কে সার্বিক সহযোগিতা করার জন্য বিশেষভাবে অনুরোধ করা হলো। বঙ্গবন্ধু ও বঙ্গমাতা প্রাথমিক বিদ্যালয় ফুটবল খেলা শ্রীঘ্রই শুরু হতে যাচ্ছে, ফুটবল খেলাকে উপভোগকরাসহ সার্বিক সহযোগিতা করার জন্য সকল সদস্যকে বিশেষভাবে অনুরোধ করা হলো।      এছাড়া  অন্যান্য কার্যক্রম সুষ্ঠুভাবে চলছে।  

১। প্রাথমিক বিদ্যালয়সমূহের কার্যক্রম তদারকি করে প্রতিমাসের ০৩ তারিখের মধ্যে প্রতিবেদন দিবেন।

১। উপজেলা প্রাথমিকশিক্ষা অফিসার

২। সহকারী প্রাথমিক শিক্ষা অফিসারগণ।

 

৩.১০

উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা বিভাগঃ  উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা  তার বিভাগের কার্যক্রম তুলে ধরেন।  খাবার বড়ি বিতরন -২৩,৫৫৫ কনডম বিতরন -৩৭,০৭৫ ইনজেকটেবলঃ ভায়াল- ২,৪২৭ সিরিঞ্জ-২৫৯৫ আই ইউ ডিঃ স্বাভাবিক-২৯ প্রসব পরবর্তী - নাই, খুলে ফেলা-১২ টি, ইমপস্ন্যান্টঃ নতুন -৮, খুলে ফেলা - ১২ ইসিপি  (ডোজ)- নাই,  স্থায়ী পদ্ধতিঃ পুরুষ- নাই,  মহিলা স্বাভাবিক - ২, প্রসব পরবর্তী - ৩২ জন, মোট ৩৪ জন। সক্ষম দম্পতি ৭৭,৪৯২ জন। CAR = ৭১ু% ।

১। জনসংখ্যা নিয়ন্ত্রণে স্থায়ী ও দীর্ঘমেয়াদী পদ্ধতি বাড়ানোর সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

 উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা

 

৩.১১

মহিলা বিষয়ক বিভাগঃ  ভিজিডি কর্মসূচির আওতায় ২০১৫-২০১৬ ভিজিডি চক্রের ৭২২ জন উপকারভোগীর মাঝে জুন-১৫ মাসের খাদ্য বিতরণ সম্পন্ন  হয়েছে। নতুন অর্থ বছরের খাদ্য শস্যের বরাদ্দ অদ্যবদি পাওয়া যায়নি। বরাদ্দ প্রাপ্তি সাপেক্ষ্যে বিতরণ করা হবে। 

মাতৃত্বকাল ভাতা প্রদান কর্মসূচিরআওতায় মোট ৪৩২ জন উপকারভোগীর জানুয়ারী হতে জুন-১৫ মাসের জন্য বরাদ্দকৃত ১২,৯৬০০০/- (বার লক্ষ ছিয়ানববই হাজার) টাকা উপকার ভোগীদের স্ব স্ব ব্যাংক হিসাবের মাধ্যমে বিতরণ চলমান রয়েছে। উপকার ভোগীদের সচেতনতামূলক প্রশিক্ষণ কার্যক্রম সম্পন্ন হয়েছে। মহিলাদের আত্মকর্মসংস্থানের জন্য ক্ষুদ্রঋন কার্যক্রমের আওতায় ৪৩ জন মহিলার মাঝে ৪,৭৫,০০০/-(চার লক্ষ পঁচাত্তর হাজার)টাকা বিতরণ করা হয়েছে। বিভাগের অন্যান্য কাজ স্বাভাবিক ভাবে চলছে।

 

 

 

৩.১২

উপজেলা যুব উন্নয়ন বিভাগঃউপজেলা যুব উন্নয়ন কর্মকর্তা  সভায় জানান, মুন্সীগঞ্জ সদর উপজেলা কার্যালয়ের শুরু/৯৭ইং থেকে জুন/২০১৫ ইং মাস পর্যন্ত তথ্যাদি নিম্নরূপঃ

ক্রং

বিবরণ

লক্ষ্যমাত্রা

চলতি মাস

অর্থবছর

ক্রম পুঞ্জিত

ভ্রাম্যমান প্রশিক্ষণ

 ৫৭০ জন

  ১২০ জন

৫৭০জন

৫৬৩১ জন

আত্বকর্মীর সংখ্যা

 ৩১৫ জন

    ৯০ জন

৪০১ জন

৪৪৯৪ জন

যুবঋণ বরাদ্দ

---

   ---

---

৩১,১৮,৮০০/-

যুব ঋণ বিতরণ

২৮,৮০,০০০

   ---

২০,৮০,০০০

২,০৭,৯৫,০০০/-

যুবঋণ গ্রহীতার সংখ্যা

---

   ---

 ৩৫ জন

৬৬৭ জন

আদায় যোগ্য টাকা

---

১২,৯৭,২৪৬/-

---

১,৮০,০৫,২০০/-

আদায়কৃত টাকা

---

২,১০,৩০০/-

২৪,৪২,৮০০/

১,৬৯,১৮,২৫৪/-

আদায়ের হার চলমান

---

৮০%

---

৯৪%

ঋণ খেলাপী টাকা

৮,০৩,৫৪৬/

---

---

   ৭,৯৯,৫৪৬/-

১০

ঋণ খেলাপী থেকে আদায়

---

       ৪০০০/-

৪৬,৫০০/-

---

১১

কিস্তি খেলাপী টাকা

২,৬১,৫০০/-

---

---

  ২,৮৭,৪০০/-

১২

কিস্তি খেলাপী  থেকে আদায়

---

২১,০০০/-

২,৩৬,৫০০/

---

১৩

যুব সংগঠনের সংখ্যা

---

---

---

৭০ টি

তিনি আরো বলেন, বিভিন্ন ট্রেডে প্রশিক্ষণ কোর্স চালু হবে। এতে ১৮ হতে ৩৫ বছর বয়সের ছাত্র-ছাত্রী অংশ নিতে পারবে। তাছাড়া পোশাক শিল্পের কোর্সও চালু করা হবে। আগ্রহী শিক্ষার্থীদের ভর্তি করানোর জন্য সকলের প্রতি অনুরোধ জানান।

 

 

 

৩.১৩

জনস্বাস্থ্য প্রকৌশল বিভাগঃউপ-সহকারী প্রকৌশলী জনস্বাস্থ্য বিভাগ সভায় জানান যে, তার বিভাগের কার্যক্রম সুষ্ঠুভাবে চলছে। বিভাগীয় কাজের ধারা  নিম্নরূপঃ

 

 বিশেষ গ্রামীণ পানি সরবরাহ প্রকল্পঃ

নং

এডিপি

স্থান নির্ধারণ

সহায়ক চাঁদা

অগ্রগতি

 

মন্তব্য

 

০১.

২০১২-২০১৩

  ২০১৩-২০১৪ অর্থবছর

কেরিড ওভার

সাধারণ বরাদ্দ

৬নং গভীর নলকূপ

তারা গভীর নলকূপ

মোট

 

৬ নং গভীর নলকূপ

তারা গভীর নলকূপ

মোট

 

 

 

 

২০

২০

৪০

---

---

---

৪০ টি

৪০ট

৪০ টি

 

 

PEDPএর আওতায় WASH BLOCK নির্মাণ ও গভীর নলকূপ স্থাপনঃ

নং

বরাদ্দ

মোট

অগ্রগতি

মন্তব্য

২০১২-২০১৩

২০১৩-২০১৪

      ২০১৩-২০১৪

১.

WASH BLOCK

গভীর নলকূপ

WASH BLOCK

গভীর নলকূপ

WASH BLOCK

গভীর নলকূপ

WASH BLOCK

গভীর নলকূপ

 

২১

৪২

৩৪

--

৫৫ টি

৪২ টি

৫৪

৪২

 

 

১। যে সকল প্রাথমিক বিদ্যালয়ে টিউবওয়ের নেই বা নষ্ট হযে গেছে, সেসব বিদ্যালয়ের জন্য টিউবওয়েল চেযে মন্ত্রণালয়ে পত্র দেওয়ার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

উপজেলা জনস্বাস্থ্য প্রকৌশল বিভাগ।

 

৩.১৪

সমবায় বিভাগঃউপজেলা সমবায় কর্মকর্তা সভায় তার বিভাগের কার্যক্রম তুলে ধরেন।

(ক) অডিট অগ্রগতির তথ্যঃ

নং

সমিতির শ্রেনী

সমিতির সংখ্যা

অডিট যোগ্য সমিতির সংখ্যা

অডিট সমাপ্তির সংখ্যা

মোট দাখিলের

সংখ্যা

মোট দাখিলের

বাকী

অডিট অসমাপ্তির

সমিতির সংখ্যা

১.

কেন্দ্রীয় সমিতি বিভাগীয়

৫ টি

৫ টি

০৫টি

০৫টি

-

--

২.

কেন্দ্রীয় সমিতি পউবো

২ টি

২ টি

০২টি

০২টি

-

--

৩.

প্রাথমিক বিভাগীয়

১৮৫ টি

১৮৫ টি

১৮৫ টি

১৮৫ টি

১২ টি

   --

৪.

প্রাথমিক পউবো

২৫০ টি

২৫০ টি

১৩৪ টি

১৩৪ টি

---

১১৬ টি

 

মোট

৪৪২ টি

৪৪২ টি

৩২৬ টি

৩২৬ টি

১২ টি

  ১১৬ টি

 

১। উৎপাদনমুখী সমবায় সমিতি নিবন্ধন করতে হবে এবং নিবন্ধিত সমবায় সমিতির কার্যক্রম মনিটরিং অব্যাহত রাখতে হবে।

 উপজেলা সমবায় অফিসার।

 

 

৩.১৫

পল্লী উন্নয়ন বোর্ডঃউপজেলা পল্লী উন্নয়ন অফিসার জানান, এ পর্যন্ত ১। চলতি মাসে ঋণ বিতরন :  ৪,৬৪,০০০/- টাকা। ২। মোট ঋণ বিতরনঃ ১৫,৪৩,৮১,০০০/- টাকা ৩। চলতি মাসে ঋণ আদায়ঃ ৮,২৩,০০০/- টাকা। ৪। মোট ঋণ আদায়ঃ ১৩,৯৪,০৫,০০০/ টাকা  ৫। আদায়ের হার : ৯০% ৫। মোট সঞ্চয় আদায়ঃ ৬৬,৯১,০০০/- টাকা।

একটি  বাড়ি একটি খামার প্রকল্পের কার্যক্রমঃ ক. চলতি মাসে ঋণ বিতরনঃ নেই। খ. মোট ঋণ বিতরনঃ ৩,০১,২২,০০০/- টাকা। গ. চলতি মাসে ঋণ আদায়ঃ ১,৯৮,০০০/-টাকা ঘ. মোট ঋণ আদায়ঃ ১,১৬,৫৫,০০০/- টাকা  ঙ. মোট সঞ্চয় আদায়ঃ ১,৬৬,১৩,০০০/-

 

১। ঋণের কিস্তি আদায়ে আরো তৎপর হওয়ার সিদ্ধান্ত  গৃহীত হয়।

২। একটি বাড়ি একটি খামারের মাসিক তথ্য উপস্থাপনের সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

উপজেলা পল্লী উন্নয়ন কর্মকর্তা, মুন্সীগঞ্জ

 

 

৩.১৬

উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক অফিসঃ  উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক , মুন্সীগঞ্জ সদর জানান যে, খাদ্য বিভাগীয় কার্যক্রম সুষ্ঠুভাবে পরিচালনা করা হচ্ছে নিয়ম অনুযায়ী বিভিন্ন সংস্থা ও প্রকল্পের অনুকূলে বরাদ্দকৃত খাদ্য শস্য সুষ্ঠু ভাবে বিলি বিতরণ অব্যাহত আছে। অভ্যন্তরীন বোরো সংগ্রহ/১৫এর আওতায় মিরকাদিম ও কাটাখালী এল এস ডিতে ৩৭৪৭ মেঃটন চাল সংগ্রহ করা হয়েছে। অত্র সংস্থাপনাধীন কোন উন্নয়ন মূলক কাজ নেই । নিন্মে গুদামওায়ারী খাদ্য শষ্যের মজুদ পরিমান দেখানো হলোঃ- 

 

 

ক্রমিক নং

গুদামের নাম

চাউল

গম

০১.

মিরকাদিম

৪৩৩৫ মেঃটন

১৩৩ মেঃটন

০২.

কাটখালী

  ৮৭১   মেঃটন

  ৩৮   মেঃটন

 

মোট-

৫২০৬ মেঃটন

১৭১ মেঃটন

 

 

 

 

 

৩.১৭

বি এ ডিসি (সেচ):সিনিয়র উপ-সহকারী প্রকৌশলী সভায় তার বিভাগের কার্যক্রম তুলে ধরেন। গত ২০১২-১৩ সনে মুন্সীগঞ্জ সদর উপজেলার চরকেওয়ার ইউনিয়নের পিছামারা খালটির ১.৫০ কিঃমিঃ পুণঃখনন করা হয়েছে।তাছাড়া আধারা ইউনিয়নের ভাসানচর মৌজায় ২-কিউসেক এলএলপি স্কীমে ডিসচার্জবক্সসহ পাকা সেচনালা নির্মাণ ০১টি ও একই ইউনিয়নের দাইমী মৌজায় ২- কিউসেক এল এলপি স্কীমে পাকা সেচনালা নির্মাণ ০১টি। গত ২০১৩-১৪ সনে চরকেওয়ার ইউনিয়নের ভিটিহোগলা জলার খালটির ১.৫০ কিঃমিঃ পূণঃখনন করা হয়েছে। উক্ত সনে কোন পাকা সেচনালা নির্মাণ করা হয়নি। চলতি ২০১৪-১৫ সনে আধারা ইউনিয়নের খালাসীকান্দি খালটির ১.৫০ কিঃমিঃ  পুণঃখনন সম্পন্ন করা হয়েছে। একই ইউনিয়নের বকুলতলা খালটির ১.৫০ কিঃমিঃ পূণঃখনন শেষ হয়েছে। তাছাড়া বাংলাবাজার ইউনিয়নের বড়খালটির ১.৫০ কিঃমিঃ খাল পুণঃখনন করা হয়েছে। আধারা ইউনিয়নের চরআব্দুল্লাহ (দক্ষিণ) মৌজায় ২- কিউসেক এলএলপি স্কীমে ডিসচার্জ বক্সসহ  পাকা সেচনালা নির্মাণ করা হয়েছে ০১টি। ০৫টি পাম্পিং সেট ক্ষেত্রায়ন করা হয়েছে। এছাড়া বিভাগীয় অন্যান্য কার্যক্রম নিয়মিত চলছে।                           

 

 উচ্চতর উপ-সহকারী প্রকৌশলী (ক্ষুদ্র সেচ)

 

৩.১৮

উপজেলা নির্বাচন বিভাগঃউপজেলা নির্বাচন অফিসার সভায় জানান, মুন্সীগঞ্জ সদর  উপজেলায় হালনাগাদ কার্যক্রম শুরু হয়েছে।  আগামী ৯ আগষ্ট,২০১৫ পর্যন্ত বাড়ী বাড়ী গিয়ে তথ্য সংগ্রহের কাজ চলবে এবং ১১ আগষ্ট হতে নিবন্ধনের কার্যক্রম শুরু হবে। যাদের  জন্ম তারিখ ১ জানুয়ারী ২০০০ সাল বা তার পূর্বে তারা নিবন্ধিত হতে পারবেন। তিনি আরো বলেন, মহিলা ভোটার কম হচ্ছে । কারণ হিন্দু ভোটার বাবার বাড়িতে ভোটার হয়েছে। মহিলা ভোটার যাতে কম না হয় সেদিকে লক্ষ্য রাখার জন্য তিনি জনপ্রতিনিধিদের অনুরোধ করেন। তাছাড়া ভোটার হওয়ার জন্য মসজিদের মাইকে ঘোষণা দেয়ার জন্যও অনুরোধ করেন।  ভোটার তালিকা সুষ্ঠু, সুন্দর ও সূচারুরূপে সম্পন্নের জন্য উপজেলা পরিষদের সকল সদস্যের সার্বিক সহযোগিতা কামনা করেন।

 

 

 

 

৩.১৯

উপজেলা আনসার ও ভিডিপিঃ  উপজেলা আনসার ও ভিডিপি কর্মকর্তা  সভায় অনুপস্থিত থাকায়  তার বিভাগের কার্যক্রম সম্পর্কে আলোচনা করা গেল না।

 

 

 

৩.২০

উপজেলা পরিসংখ্যান বিভাগঃ ১) ধলাগাও বাজার ও মুন্সিগঞ্জ বাজার হতে দরছক পূরণ পূর্বক জেলা পরিসংখ্যান অফিসে প্রেরণ করা হয়েছে।

 ২) এমএসভিএসবি এর তথ্য সংগ্রহ করে জেলা পরিসংখ্যান্অফিসে প্রেরণ করা হয়েছে।

৩) বিভিন্ন ফসলের আনুমানিক হিসাব জেলা পরিসংখ্যান অফিসে প্রেরণ করা হয়েছে।

৪) বোরা ফসলের মূল্য ও উৎপাদন খরচ জরিপ এর  তথ্য সংগ্রহ করে জেলা পরিসংখ্যান অফিসে প্রেরণ করা হয়েছে।

৫) পাট ফসলের পূর্বাভাস জরিপ এর তথ্য  সংগ্রহ করে জেলা পরিসংখ্যান অফিসে প্রেরণ করা হয়েছে।

৬) মাসিক কৃষি মজুরীর তথ্য সংগ্রহ করে জেলা পরিসংখ্যান অফিসে প্রেরণ করা হয়েছে।

৭) এছাড়া বিভাগীয় নিয়মিত অন্যান্য কাজ সুষ্ঠুভাবে চলছে। বিভাগীয় কাজে কোন সমস্যা নাই ।

 

 

১। এ ধারা অব্যাহত রাখার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

 উপজেলা পরিসংখ্যান কর্মকর্তা

 

      

 

৩.২১

পল্লী দারিদ্র্য বিমোচন ফাউন্ডেশনঃপল্লী দারিদ্র্য বিমোচন কর্মকর্তাতার দপ্তরের বিভাগীয় কার্যক্রম তুলে ধরেন।

 

 

 

ঋণ বিতরণ ও আদায় বিবরণঃ

ঋণের প্রকার

মাসে

বছরে

ক্রমপুঞ্জিত

ঋণ বিতরন

(লক্ষ টাকায়)

ঋণ আদায়

(লক্ষ টাকায়)

আদায়ের

হার

ঋণ বিতরন

(লক্ষ টাকায়)

ঋণ আদায়

(লক্ষ টাকায়)

আদায়ের

হার

ঋণ বিতরন

(লক্ষ টাকায়)

ঋণ আদায়

(লক্ষ টাকায়)

আদায়ের

হার

 

১. ক্ষুদ্র ঋণ

২. ক্ষুদ্র  উদ্যোক্তা ঋণ

৭.৩৩

 ১.০০

৪.৭৯

১.৮৪

১০০%

১০০%

৪৯.১৯

 ২০.০০

 ৪২.২০

 ১৮.২৩

১০০%

১০০%

৭১.৬৯

৩৪.৭০

৫২.০৬

২৩.৬০

 

১০০%

 

১০০%

 

মোট

৮.৩৩

৬.৬৩

১০০%

৬৯.১৯

৬০.৪৩

১০০%

১০৬.৩৯

৭৫.৬৬

১০০%

 

০১। সমিতি গঠনঃ ২০ টি, ০২। মোট  সদস্য ভর্তি : ৪৮৪ জন, ০৩। মোট সঞ্চয় জমাঃ ১৩.৯৪ লক্ষ টাকা, ০৪। মোট সোনালী সঞ্চয় জমাঃ ৭.৭৫ লক্ষ টাকা ,০৫। মোট মেয়াদীসঞ্চয় জমাঃ ১.৫৫ লক্ষ, ০৬। মোট ক্ষুদ্র উদ্যোক্তা সদস্যঃ ১৭ জন।

তিনি আরো জানান, মুন্সীগঞ্জ জেলার ৬ (ছয়)টি উপজেলার মধ্যে সদর উপজেলার পল্লী দারিদ্র বিমোচন অফিসের ঋণ আদায় সবচেয়ে সন্তোষজনক।

 

 

 

উপজেলা পরিষদের রাজস্ব তহবিল : উপজেলা পরিষদের নিম্নবর্ণিত ব্যয় সর্বসম্মতিক্রমে অনুমোদনের জন্য উপস্থাপন করা হলো।                                           

            (০১) আনুসঙ্গিক-১৯০০/- টাকা

            (০২) আপ্যায়ন বাবদ-৪৯০০/- টাকা

            (০৩) ইন্টারনেট -৫০০/- টাকা

            (০৪) পাম্পের মবিল ২০০/- টাকা।

(০৫) সিডি-১৫০ টাকা।

(০৬) কটলেজের ব্যাটারী ও ঘড়ির ব্যাটারী ২৩০/- টাকা।

(০৭) টোনার  -৬০০০/-টাকা।

(০৮) ইউপিএস-৪০০০/- টাকা।

          (০৯) রাস্তায়  লাইট মেরামত-৫৮০/-টাকা।

            (১০) বাঁশ ও বেড়া ক্রয়বাবদ খরচ-২২,০০০/-

            (১১) প্যালাসাইডিং তৈরীর জন্য শ্রমিকের মজুরী বাবদ খরচ-৭০০০/-

            (১২) প্যালাসাইডিং স্থানে মাটি নেওয়ার জন্য ভ্যানভাড়া-৮০০০/-

            (১৩) উপজেলা সমবায় অফিস ও উপজেলা নির্বাহী অফিসারের বাসভবনে ০২ (দুই) টি নতুন সিলিং ফ্যান সংযোগ।

            (১৪) পবিত্র ঈদ-উল- ফিতর উপলক্ষ্যে অফিস কম্পাউন্ডে জঙ্গল ও ড্রেন পরিস্কার ও ইলেকট্রিক লাইন মেরামত খরচ-৭৫০০/ টাকা। 

 

চেয়ারম্যান, পঞ্চসার ইউনিয়ন পরিষদ সভায় বলেন, পঞ্চসার ইউনিয়নের ফেরিঙ্গিবাজার এলাকায় রাস্তা ভেঙ্গে গেছে। তা দ্রুত মেরামত করার জন্য উপজেলা প্রকৌশলী, মুন্সীগঞ্জ সদরকে অনুরোধ জানান।

চেয়ারম্যান, বজ্রযোগিনী ইউনিয়ন পরিষদবলেন, রাস্তা কেটে ক্যাবল নেয়া হয়। কিন্তু  পরে তা মেরামত করা হয় না। এ ব্যাপারে লক্ষ্য রাখার জন্য তিনি উপজেলা প্রকোশলীকে অনুরোধ জানান।

চেয়ারম্যান, মহাকালী  ইউনিয়ন পরিষদবলেন, বৃষ্টিতে রাস্তার ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে। তা মেরামত করার প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য তিনি জানান।

চেয়ারম্যান, শিলই  ইউনিয়ন পরিষদবলেন,বর্তমানে শিলই ইউনিয়নে যেসকল রাস্তা পাকা হবে তা আরসিসি ঢালাই এর মাধ্যমে করার জন্য উপজেলা প্রকৌশলীকে অনুরোধ করেন। তিনি আরো বলেন, বয়স্ক ভাতার টাকা উত্তোলনের জন্য মুন্সীগঞ্জে আসলে প্রচুর যাতায়াত ভাড়া খরচ হয়, ফলে ভাতার সার্থকতা খুঁজে পাওয়া যায় না। তাই বয়স্ক ভাতার টাকা উত্তোলনের জন্য ব্যাংক একাউন্ট দিঘীরপাড় শাখায় ট্রান্সফার করলে ভাল হয়।  

 চেয়ারম্যান, বাংলাবাজার  ইউনিয়ন পরিষদ শিলই ইউনিয়নের ন্যায় বয়স্ক ভাতার টাকা উত্তোলনের জন্য ব্যাংক একাউন্ট দিঘীরপাড় শাখায় ট্রান্সফার করার জন্য অনুরোধ করেন।  

চেয়ারম্যান, আধারা  ইউনিয়ন পরিষদ খাল খনন করার জন্য উচ্চতর উপ-সহকারী প্রকৌশলী (ক্ষুদ্র সেচ) এর প্রতিনিধিকে অনুরোধ করেন।   

 

উপজেলা নির্বাহী অফিসার সভায় বলেন, আগামী ১৩ আগষ্ট ২০১৫ বৃক্ষরোপন কর্মসূচী গ্রহণ করা হবে। গত বছর প্রত্যেক ছাত্র-ছাত্রীকে ১টি করে চারা দেয়া হয়েছিল। এ বছর ২টি করে চারা দেয়া হবে। Kaizenনিয়ে আলোচনা হয়েছে। সিদ্ধান্ত হয়েছে। পরবর্তী সভায় বিস্তারিত আলোচনা করা হবে। লাইব্রেরী

চালু করে ৭ (সাত) কার্যদিবসের মধ্যে জানানোর জন্য তিনি ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যানগণকে অনুরোধ করেন। এছাড়া কারো  কোন উদ্ভাবণী থাকলে তা জানালে আগষ্টের শুরুতে এটুআই প্রোগ্রামে জানাবেন বলে তিনি জানান। তিনি আরো বলেন, হাতে লেখা জন্ম নিবন্ধন অন লাইন ভিত্তিক চালু করতে হবে। বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি ক্লাব গঠন করতে হবে বলে তিনি জানান। তিনি বলেন, অনেকগুলো গাছ পড়ে গেছে, চেয়ারম্যান মহোদয় অনুমতি দিলে তা কেটে ফেলা যাবে।

 

চেয়ারম্যান,উপজেলা পরিষদ,মুন্সীগঞ্জ সদর ও সভাপতি উপজেলা পরিষদ মাসিক সভা, বলেন, উচ্চতর সহকারী প্রকৌশলী, বিএডিসি  (সেচ)  এর প্রতিনিধি  সদরসহ গজারিয়া উপজেলার দায়িত্ব পালন করায় তাকে সপ্তাহে কমপক্ষে ২ (দুই) দিন  তাঁর সাথে অথবা  উপজেলা নির্বাহী অফিসার এর সাথে স্বাক্ষাত করার জন্য বলেন। তাছাড়া প্রতিটি  বিভাগের কর্মকর্তাগণকে মাসিক সভায় উপস্থিত থাকার জন্য অনুরোধ করেন।  তিনি উপজেলা পরিষদের  সকল কর্মকর্তগণকে দায়িত্বশীলভাবে কাজ করার অনুরোধ জানান। অতঃপর আর কোন আলোচনা না থাকায় সভাপতি সকলকে ধন্যবাদ জানিয়ে সভার সমাপ্তি ঘোষণা করেন।

 

 

 

 

                   (আনিছ উজ্জামান)

চেয়ারম্যান

 উপজেলা পরিষদ,

সভাপতি, উপজেলা পরিষদ  মাসিক সভা

মুন্সীগঞ্জ সদর, মুন্সীগঞ্জ।

 

স্মারক নং-  ০৫.৩০.৫৯৫৬.০০৬.০১.০০১.১১-           (৫০)                                                  তারিখঃ          /২০১৫ খ্রিঃ

 

        অনুলিপি অবগতি ও প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য প্রেরণ করা হলোঃ

 

০১. মেয়র, মুন্সীগঞ্জ/মিরকাদিম পৌরসভা, মুন্সীগঞ্জ সদর, মুন্সীগঞ্জ।

০২. উপজেলা ...................................................অফিসার, মুন্সীগঞ্জ সদর।

০৩. চেয়ারম্যান ...............................................ইউনিয়ন পরিষদ (সকল), মুন্সীগঞ্জ সদর।

 

স্মারক নং- ০৫.৩০.৫৯৫৬.০০৬.০১.০০১.১১-                                                                    তারিখঃ          /২০১৫খ্রিঃ

 

  অনুলিপি সদয় অবগতির জন্য প্রেরণ করা হলো।                                                                                                              

 

০১. মাননীয় সংসদ সদস্য,মুন্সীগঞ্জ-০৩।

০২. সিনিয়র সচিব, স্থানীয় সরকার,পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয়,বাংলাদেশ সচিবালয়, ঢাকা।

০৩. জেলা প্রশাসক, মুন্সীগঞ্জ।

০৪. জেলা হিসাব রক্ষণ অফিসার, মুন্সীগঞ্জ।

 

 

উপজেলা নির্বাহী অফিসার

মুন্সীগঞ্জ সদর, মুন্সীগঞ্জ।

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

উপজেলা পরিষদ

মুন্সীগঞ্জ সদর, মুন্সীগঞ্জ

মুন্সীগঞ্জ সদর উপজেলা পরিষদের জুলাই / ২০১৫ মাসে অনুষ্ঠিত মাসিক সভার কার্যবিবরণী।

আলোচ্য মাস- জুন / ২০১৫

 

সভাপতি     :

 

 

জনাব মোঃ আনিছ উজ্জামান

চেয়ারম্যান, উপজেলা পরিষদ,

মুন্সীগঞ্জ সদর, মুন্সীগঞ্জ।

স্থান           :

উপজেলা পরিষদ সম্মেলন কক্ষ।

তারিখ ও সময়ঃ

২৯.০৭.২০১৫ খ্রিঃ বেলা ১২.০০ ঘটিকা

 

(সভায় উপস্থিত সদস্যদের তালিকা পরিশিষ্ট -‘ক’ )

( সভায় অনুপস্থিত সদস্যদের তালিকা পরিশিষ্ট-‘খ’)

সভাপতি উপস্থিত সকলকে স্বাগত জানিয়ে সভার কাজ শুরু করেন।  সভাপতি গত সভার কার্যবিবরণী পাঠ ও অনুমোদনের জন্য সকলকে আহবান জানান। 

আলোচ্যসূচি-০১: বিগত সভার কার্যবিবরণী পাঠ ও অনুমোদন- বিগত সভার কার্যবিবরণী পাঠ করে শুনানো হয় এবং তা যথাযথভাবে উপস্থাপিত হওয়ায় সর্বসম্মতিক্রমে অনুমোদন করা হয়।

আলোচ্যসূচি-০২: বিগত সভায় গৃহীত সিদ্ধান্ত বাস্তবায়ন ও অগ্রগতি পর্যালোচনা।

নং

বিভাগ

সিদ্ধান্ত

অগ্রগতি

০১

 উপজেলা স্বাস্থ্য বিভাগ

০১। কমিউনিটি ক্লিনিক এবং ইউনিয়ন স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ কেন্দ্রের সকল কাজ নিয়মিত মনিটরিং করতে হবে। ০২। উপজেলা স্বাস্থ্য কমপেস্নক্সে সেবার মান বৃদ্ধি করতে হবে।

০১। কার্যক্রম চলমান আছে।

০২

উপজেলা কৃষি বিভাগ

 

০১। বিশেষ কর্মসূচী ও মাননীয় প্রধানমন্ত্রী কর্তৃক নির্দেশিত কার্যক্রম বাস্তবায়নের জন্য গুরুত্ব দিতে হবে।

০১। কার্যক্রম চলমান আছে।

০৩

উপজেলা প্রাণীসম্পদ বিভাগ

 

০১। ১০০ জন খামারীর হাতে কলমে প্রশিক্ষণ প্রদান ও প্রয়োজনীয় ঔষধ  ও প্রতিষেধক টিকা সরবরাহের সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

 

০২। কার্যক্রম চলমান আছে

০৪

উপজেলা প্রকৌশল বিভাগ

০১। সংশ্লিষ্ট ঠিকাদারের কার্যাদেশ  বাতিলসহ ১ বছরের জন্য কালো তালিকাভূক্ত করার সর্বসম্মত  সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।  

০১। চলমান আছে।

০৫

 উপজেলা সমাজসেবা বিভাগ

০১। ক্ষুদ্রঋণ আদায়ের হার ১০০% নিশ্চিত করতে হবে।

০২। ভাতা বিতরন ও ক্ষুদ্র ঋণ কার্যক্রম সহ অন্যান্য  কার্যক্রম সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন করতে হবে।

০৩। আগামী সভার পূর্বে প্রতিবন্ধী ভাতাপ্রাপ্তদের ডাটাবেজ তৈরী এবং প্রতিটি আবেদন সকল কাগজপত্র সহ উপজেলা নির্বাহী অফিসার এর নিকট উপস্থাপন করতে হবে।

০১। চলমান আছে।

০৬

উপজেলা দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা  বিভাগ

০১। প্রকল্পগুলো যথাযথভাবে সম্পন্ন হয়েছে কিনা তা পরিদর্শন করে প্রতিবেদন দিবেন।

০১। কার্যক্রম চলমান আছে।

০৭

উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা বিভাগ

০১। যেসকল মাধ্যমিক শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে সরকার কর্তৃক মাল্টিমিডিয়া সরবরাহ করা হয়েছে, সেসকল প্রতিষ্ঠানে নিয়মিত মাল্টিমিডিয়া ক্লাস নেয়া হয় কিনা, তা মনিটরিং করার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।    

০১। মনিটরিং অব্যাহত আছে।

০৮

উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা বিভাগঃ 

০১। প্রাথমিক বিদ্যালয় সমূহের কার্যক্রম তদারকি করে প্রতিমাসের ০৩ তারিখের মধ্যে প্রতিবেদন দিবেন।

০১। কার্যক্রম চলমান আছে।

০৯

উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা বিভাগ

 

০১।  জনসংখ্যা নিয়ন্ত্রণে স্থায়ী ও দীর্ঘ মেয়াদী  পদ্ধতি বাড়ানোর সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

০১। অব্যাহত আছে।

১০

জনস্বাস্থ্য প্রকৌশল বিভাগ

 

০১। যে সকল প্রাথমিক বিদ্যালয়ে টিউবওয়েল নেই বা নষ্ট হয়ে গেছে সেসব বিদ্যালয়ের জন্য টিউবওয়েল চেয়ে মন্ত্রণালয়ে পত্র দেয়ার  সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

২। আর্সেনিক পরীক্ষার জন্য বরাদ্দকৃত অর্থ যথাযথভাবে কার্যক্রম সম্পন্ন করে প্রতিবেদন দিতে হবে।

০১। কার্যক্রম চলমান আছে।

১১

 

পল্লী উন্নয়ন বোর্ড

০১। ঋণের কিস্তি আদায়ে আরো তৎপর হওয়ার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

০২। একটি বাড়ি একটি খামারের মাসিক তথ্য উপস্থানের সিদ্ধান্ত গৃহীত

হয়।

০৩। খরচ বাবদ ১,৮০,০০০/-টাকা অনুমোদন করা হলো এবং বাকী ১,৮০,৫৫৭/১০ বিআরডিবির হিসাবে ও অবশিষ্ট ২০,০৬১/৯০ টাকা রাজস্ব খাতে জমা করার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

০১। চলমান আছে।

১২

বি এ ডিসি  (সেচ)

০১। গত ১৯১২-১৩,১৯১৩-১৪ ও ১৯১৪-১৫ অর্থ বছরে যে কয়টি খাল  ও সেচনারা তৈরী হয়েছে, তার তালিকা আগামী সভায় উপস্থাপনেরসিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

০১। চলমান আছে।

১৩

উপজেলা নির্বাচন বিভাগ

এ ধারা অব্যাহত রাখার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

০১। চলমান আছে।

১৪

উপজেলা পরিসংখ্যান  বিভাগ

এ ধারা অব্যাহত রাখার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

০১। চলমান আছে।

 

আলোচ্যসূচি-০৩: বিভাগ ভিত্তিক আলোচনাঃ

নং

 

সিদ্ধান্ত

বাস্তবায়নে

 

৩.১

উপজেলা স্বাস্থ্য বিভাগঃউপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা সভায় জানান যে, চিকিৎসা সেবার মান উত্তরোত্তর বৃদ্ধির চেষ্টা অব্যাহত আছে। তিনি আরো জানান, সদর উপজেলায় উপ-স্বাস্থ্য কেন্দ্র-০২ টি । সেবা প্রাপ্ত রোগীর সংখ্যা : পুরুষ-১০৩৪ জন, মহিলা-১৩২৮ জন, শিশু-৪১০ জন, মোট = ২৭৭২ জন। চালুকৃত কমিউনিটি ক্লিনিকের সংখ্যা : ১৪ টি। রোগীর সংখ্যা- পুরুষ : ৩৪৫৮ জন, মহিলা : ৪৭৮০ জন, শিশু : ১৯১৪ জন, মোট = ১০১৫২ জন। শিশু জন্মের সংখ্যাঃ পুরুষ- ৩২২ জন, মহিলা -৩২৬ জন, মোট = ৬৪৮ জন। মৃত্যুর সংখ্যাঃ ০-৭ দিন = ০৯ জন, ০৮-২৮ দিন = ০৩ জন, ২৯ দিন-১ বৎসর = ১৪ জন, মৃত জম্মের সংখ্যা ০১ জন, ১-৫ বছরের মধ্যে = ১৫ জন। পানিতে ডুবে- ০১ জন ০৫ বছরের উর্দ্ধে = ৯৯ জন। ই,পি,আই কার্যক্রমঃ  বিসিজি ৮%, পেন্টা ৮%, পোলিও ৮%, এম,আর ৮%, হাম ৮%, টিটি ৮%। ডায়রিয়া রোগীর কার্যক্রমঃ নো- ডিহাইড্রেশনঃ  ১৩০৪ জন, সাম- ডিহাইড্রেশনঃ ৪ জন, সিভিয়ার ডিহাইড্রেশনঃ ০০ জন, মোট = ১৩০০ জন। টিবি রোগী (চিকিৎসাধীন) কার্যক্রমঃ পুরুষ ১৯ জন, মহিলা ৮ জন,শিশু-০১ জন মোট = ২৮ জন । কুষ্ঠ রোগী (চিকিৎসাধীন) কার্যক্রমঃ পুরুষ  ০৭ জন, মহিলা - ০৩ জন, শিশু - নাই, মোট = ১০ জন। আর্সেনিকোসিস রোগী (চিকিৎসাধীন) কার্যক্রমঃ পুরুষ - ১৩৮ জন, মহিলা - ১০১ জন, শিশু - নাই, মোট = ২৩৯ জন। তিনি আরো জানান,বর্তমানে নতুন কোন কার্যক্রম নেই।  

১। কমিউনিটি ক্লিনিক এবং ইউনিয়ন স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ কেন্দ্রের সকল কাজ নিয়মিত মনিটরিং করতে হবে।

২। উপজেলা স্বাস্থ্য কমপেস্নক্সে সেবার মান বৃদ্ধি করতে হবে।

 উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা অফিসার, মুন্সীগঞ্জ

 

 

 ৩.২

উপজেলা কৃষি বিভাগ :  উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা  তাঁর বিভাগের কার্যক্রম তুলে ধরেন। ফসল আবাদঃ খরিপ- ২ মৌসুমঃ আউশ আবাদ-১৭৩ হেক্টর,   বোনা আমন আবাদ- ৬৪৬৫ হেক্টর,  ধৈঞ্চা আবাদ- ৬২০ হেক্টর, শাক সব্জী আবাদ-১২৫ হেক্টর।

পাট কর্তনঃ পাট আবাদ হয়েছে-৫৩৭ হেক্টর, বর্তমানে কর্তন চলছে, এ যাবৎ ৪৩০ হেক্টর কর্তন হয়েছে।

কাইজেন থিমঃ ‘‘শাক সব্জী ও ফলমূলে ব্যবহৃত বালাইনাশক প্রিজারভেটিভ এবং রাইপেনার এর ক্ষতিকর প্রভাব দূর করার সহজ উপায় সম্পর্কে জনসচেতনতা বৃদ্ধিকরন’’ শিরোনামে ক্ষুদ্র উন্নয়ন কর্মসূচী কৃষি বিভাগে নেয়া হয়েছে। কর্মসূচী বাস্তবায়নে পোষ্টার ও লিফলেট তৈরী করে প্রদর্শন, ১২৮ টি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে আলোচনা ও ১৫০ টি সাধারণ দলীয় আলোচনা এবং ০৫ টি কৃষক প্রশিক্ষণ/মাঠ দিবসে বিষয়টি নিয়ে উদ্বুদ্ধকরণ কার্যক্রম চলমান আছে।

বৃক্ষরোপন কর্মসূচীঃ বর্তমানে বৃক্ষরোপন চলছে। লক্ষ্যমাত্রাঃ ফলজ-২১২২৫ টি, ঔষধি-১৪০৯ টি। এ পর্যন্ত ফলজ-১৩৬৪২ টি, ঔষধি-১৬১৩ টি অর্জিত হয়েছে। ফলজ বৃক্ষরোপন কার্যক্রম চলমান আছে।

 বিশেষ কর্মসূচী গ্রহণঃ বর্তমান মৌসুমে ২৭০০ টি আমচারা ক্যাফট গ্রাফটিং করে উন্নত জাতের চারা উৎপাদন করার লক্ষ্যমাত্রা গ্রহণ করা হয়েছে। এ পর্যন্ত ৮৫০ টি অর্জিত হয়েছে। অপ্রচলিত ফল তাল ও খেজুর প্রতি ব্লকে ৩০০ চারা/বীজ লাগানের কর্মসূচী গ্রহণ করা হয়েছে।

এ ছাড়াও মাননীয প্রধানমন্ত্রী কর্তৃক নির্দেশিত ২৭ টি বিশেষ কার্যক্রমের লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ পূর্বক কাজ যথারীতি এগিয়ে যাচ্ছে।   

সার,বীজ সরবরাহ ও মজুদ পরিস্থিতিঃ সার ও বীজের মজুদ সন্তোষজনক।

এ ছাড়াও বিভাগীয় নিয়মিত কার্যক্রম সুষ্ঠু ও স্বাভাবিকভাবে চলছে।

 

 

এছাড়া বিভাগীয় নিয়মিত কার্যক্রম সুষ্ঠু ও স্বাভাবিক ভাবে চলছে।

১। এডিপি হতে ১০০০০০/-(এক লক্ষ) অর্থ দ্বারা গৃহীত প্রকল্পের বাস্তবায়ন সম্পর্কে আগামী সভায়  উপস্থাপন করার সিদ্ধান্ত গৃহীত  হয়।

 উপজেলা কৃষি অফিসার

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

          

 

৩.৩

উপজেলা মৎস্য বিভাগঃ  সিনিয়র উপজেলা মৎস্য  অফিসার সভায় জানান, উপজেলার ৪টি মাছ বাজারে ফরমালিন বিরোধী অভিযান পরিচালনা করা হয়েছে। ৮ জন মাছ চাষীর পুকুর সরেজমিন পরিদর্শন করে তাদের বৈজ্ঞানিক পদ্ধতিতে মাছ চাষ করার পরামর্শ প্রদান করা হয়েছে। ০১টি মৎস্য খাদ্যের নমুনা গুণগত মান ও ভেজাল পরীক্ষার নিমিত্ত মৎস্য অধিদপ্তরের মান নিয়ন্ত্রণ ল্যাবে পাঠানো হয়েছে। বিগত ০২ মাস যাবৎ পাঠানো মৎস্য খাদ্যের নমুনায় কোন ভেজাল দ্রব্যাদি পাওয়া যায়নি।

১। মৎস্য খাদ্যের গুনগতমান ও ভেজাল পরীক্ষা কার্যক্রম নিয়মিত সম্পন্ন করার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

সিনিয়র উপজেলা মৎস্য অফিসার

 

৩.৪

উপজেলা প্রাণীসম্পদ বিভাগঃ  উপজেলা প্রাণীসম্পদ কর্মকর্তা তার বিভাগীয় কার্যক্রম তুলে ধরেন। ০১। রোগ প্রতিরোধ ব্যবস্থা : (ক) গবাদি পশুর টিকাদানঃ ৪,৪৩৬ মাত্রা (খ) হাঁস মুরগীর টিকাদানঃ ৫২,৩০০ মাত্রা। (গ) গবাদি পশুর চিকিৎসাঃ ২৬০৩ টি (ঘ) হাঁস মুরগীর চিকিৎসাঃ ২৩,৬৭৬ টি (ঙ) কৃত্রিম প্রজননের সংখ্যাঃ ১,৫৫৪ টি (চ) বাচ্চা জন্মের সংখ্যাঃ (ক) এঁড়ে  : ৩১২ টি

                                                                            (খ) বকনা : ৩৫৬ টি

                                                                               মোট     : ৬৬৮ টি

সম্প্রসারণ কার্যক্রমঃ- (ক) ০১ দিনের মুরগীর বাচ্চা বিতরণঃ ৮৫,০০০ টি। (খ)  গাভীর খামার স্থাপনঃ  ০৩ টি। (গ) মুরগীর খামার স্থাপন = ০৬ টি, (ঘ) হাঁসের খামার স্থাপন-০১টি (ঙ) ছাগলের খামার স্থাপন-০২ টি (চ) ভেড়ার খামার স্থাপন -০৮ টি  (ছ) বিভাগীয় প্রশিক্ষণঃ ৬৯১ জন

(জ) ঘাসচাষ (একর)-৪.৭৫ একর।

রাজস্ব আয়ঃ- (ক) টিকাবীজ বিক্রয় বাবদ =১৩,৫৫০/ টাকা। (খ) কৃত্রিম প্রজনন ফি বাবদ = ৩৭,৫২৭/ টাকা। মোট আয় = ৫১,০৭৭/- টাকা। তিনি ধনী ব্যক্তিদের অধিক সংখ্যায় পশু কুরবাণী না করে   সীমিত কুরবাণী দেওয়ার জন্য অনুরোধ করেন।

১। আসন্ন ঈদ-উল- আযহায় গরু মোটাতাজাকরণ এর জন্য ষ্টেরয়েড ঔষধ বিষয়ে এর ব্যবহার  বিষয়ে খামারীদের সম্পূর্ণ নি রুৎসাহিত বিষয়ে সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

উপজেলা প্রাণিসম্পদ কর্মকর্তা

 

৩.৫

উপজেলা প্রকৌশল বিভাগ :উপজেলা প্রকৌশলী সভায় জানান যে, বিগত ২০১৪-১৫ ইং অর্থ বছরে বার্ষিক উন্নয়ন কর্মসূচীর ‘‘আধারা জাজিরা বকচর রাস্তার জাজিরা মসজিদ হতে তোফাজুল গাজীর বাড়ী পর্যন্ত রাস্তা BFSদ্বারা উন্নয়ন’’ গ্রুপ নং-২৬ প্রকল্পটি বাদে অন্য সকল প্রকল্পের কাজ সুষ্ঠুভাবে সমাপ্ত হয়েছে।  কিন্তু জুন/২০১৫ইং মাসের সভার কার্যবিবরনীতে বাতিলকৃত ২৬নং প্যাকেজের ঠিকাদারের নাম  মেসার্স রুবিনা এন্টারপ্রাইজ, প্রোঃ মোঃ নাজমুল হুদা, কোর্টগাও, সদর মুন্সীগঞ্জ, ভূল ছাপা হয়েছে। যার প্রকৃতপক্ষে নাম হবে মেসার্স এইচ, আর, বি এন্টারপ্রাইজ,পোঃ মোঃ আবু হাছান ভূইয়া,মধ্য কোর্টগাও, সদর মুন্সীগঞ্জ। ব্যথ ঠিকাদারের কার্যাদেশ বাতিল ও ১ বছরের জন্য কালো তালিকাভূক্ত করার জন্য বিগত সভায় সর্বসম্মত সিদ্ধান্ত রয়েছে। তাছাড়া ২০১৫-২০১৬ইং অর্থ বছরের বাষিক উন্নয়ন কর্মসূচীর(এডিপি) প্রকল্পের তালিকা অতিসত্বর প্রদানের জন্য সকল ইউপি চেয়ারম্যানকে অনুরোধ জানানো হয়।

 উপজেলা প্রকৌশলী সভায় আরো জানান যে, প্রাথমিক শিক্ষা প্রকল্পের আওতায় চলমান ৫টি সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের নির্মাণ কাজ সমাপ্তির পথে। ইদ্রাকপুর ০১নং ও কেওয়ার সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় ০২টির সংশোধিত প্রশাসনিক অনুমোদন অদ্যাবধি পাওয়া যায়নি। পাওয়া গেলে বিদ্যালয় ০২টিতে e-gpতে দরপত্র আহববান করা হবে। অসচ্ছল মুক্তিযোদ্ধাদের বাসস্থান নির্মাণ প্রকল্পের আওতায় অনুমোদিত ৮টি বাসস্থানের মধ্যে ০৪টি বাসস্থানের বাস্তবায়নের প্রক্রিয়া চলমান রয়েছে। ১টি বাসস্থানের জন্য জমির সীমানা নিধারন জায়গা বুঝিয়ে না দেওয়ায় এবং ১টি প্রকল্পের জমি ভরাটের কাজ চলমান থাকায় প্রকল্পের কাজ শুরু করা যায়নি। অন্য ২টি বাসস্থানের নির্মান কাজের কার্যাদেশ পাওয়া গেলে কাজ শুরু করা হবে। তিনি  ২০১৫-২০১৬ অর্থবছরে সকল সম্মানিত                                                       চেয়ারম্যানগণকে প্রকল্প দাখিল করার জন্য অনুরোধ করেন যাতে আগামী মাসিক সভার আগে কার্যক্রম শুরু করা যায়।  .  

চেয়ারম্যান, পঞ্চসার ইউনিয়ন পরিষদ সভায় বলেন, পঞ্চসার ইউনিয়নের ফেরিঙ্গিবাজার এলাকায় রাস্তা ভেঙ্গে গেছে। তা দ্রুত মেরামত করার জন্য উপজেলা প্রকৌশলী, মুন্সীগঞ্জ সদরকে অনুরোধ জানান।

চেয়ারম্যান, বজ্রযোগিনী ইউনিয়ন পরিষদবলেন, রাস্তা কেটে ক্যাবল নেয়া হয়। কিন্তু  পরে তা মেরামত করা হয় না। এ ব্যাপারে লক্ষ্য রাখার জন্য তিনি উপজেলা প্রকোশলীকে অনুরোধ জানান।

চেয়ারম্যান, মহাকালী  ইউনিয়ন পরিষদবলেন, বৃষ্টিতে রাস্তার ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে। তা মেরামত করার প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য তিনি জানান।

চেয়ারম্যান, শিলই  ইউনিয়ন পরিষদবলেন,বর্তমানে শিলই ইউনিয়নে যেসকল রাস্তা পাকা হবে তা আরসিসি ঢালাই এর মাধ্যমে করার জন্য উপজেলা প্রকৌশলীকে অনুরোধ করেন।

 

 

 

 

 

১।  ২০১৫-২০১৬ অর্থ বছরে বাষিক উন্নয়ন কর্মসূচীর আওতায় প্রকল্পের তালিকা দাখিল করতে সকল ইউপি চেয়ারম্যানকে অনুরোধ করা হয়। ।

উপজেলা প্রকৌশলী

 

৩.৬

উপজেলা সমাজসেবা বিভাগঃউপজেলা সমাজসেবা কর্মকর্তা জানান, তাঁর বিভাগের কার্যক্রম সুষ্ঠুভাবে চলছে। বিভাগীয় কাজের ধারা নিম্নণরূপঃ

ঋণ বিতরণ ও আদায়ঃ

(1)     আর, এস,এস ক্ষুদ্র ঋণ কার্যক্রমের আওতায় আদায়যোগ্য অর্থের মধ্যে (মূল ও সার্ভিস চার্জ) সর্বমোট = ৯১৩০০/-(একানববই হাজার তিনশত) টাকা আদায় হয়েছে। আদায়ের হার ৯৮%। এছাড়া ক্ষুদ্র ঋণ বিতরণ করা হয়েছে আর,এস এস=৫০,০০০/- টাকা। 

(2)    এসিডদগ্ধ ও শারীরিক প্রতিবন্ধী ব্যক্তিদের পূনর্বাসন কার্যক্রমের আওতায় সর্বমোট =৯,৪৫০/- (নয় হাজার চারশত পঞ্চাশ) টাকা আদায় হয়েছে এবং ব্যাংকে জমা করা হয়েছে। বিতরণ করা হয়েছে =৭৫,০০০/-(পঁচাত্তর  হাজার) টাকা।

ভাতা কার্যক্রমঃ২০১৪-২০১৫ অর্থ বছরে বয়স্কভাতা, বিধবা ও স্বামী পরিত্যক্তা দুঃস্থ মহিলা ভাতা, অসচ্ছল প্রতিবন্ধী ভাতা ও প্রতিবন্ধী শিক্ষা উপবৃত্তির অর্থ ৩য় কিস্তি পর্যন্ত ১০০% বিতরণ সম্পন্ন হয়েছে। প্রতিবন্ধী সনাক্তকরণ জরীপ কাজ ১০০% সম্পন্ন হয়েছে, বর্তমানে পরিচয় পত্র প্রদানের লক্ষ্যে ডাটা এন্ট্রির কাজ চলমান আছে। অন্যান্য কার্যক্রমঃ সামাজিক কার্যক্রমের আওতায় বাল্য বিবাহ রোধ যৌতুক বিরোধী প্রচারনা, জলাবদ্ধ পায়খানা ব্যবহার,বৃক্ষরোপন,পুষ্টি,পরিবার পরিকল্পনা ইত্যাদি বিষয়ে লক্ষ্যভূক্ত পরিবারের সদস্যদের মধ্যে সচেতনতা সৃষ্টির লক্ষ্যে কার্যক্রম অব্যাহত আছে। চলমান মাসে ১টি বাল্য বিবাহ প্রতিরোধ করা হয়েছে। 

চেয়ারম্যান, শিলই ইউনিয়নবলেন, বয়স্ক ভাতার টাকা উত্তোলনের জন্য মুন্সীগঞ্জে আসলে প্রচুর যাতায়াত ভাড়া খরচ হয়, ফলে ভাতার সার্থকতা খুঁজে পাওয়া যায় না। তাই বয়স্ক ভাতার টাকা উত্তোলনের জন্য ব্যাংক একাউন্ট দিঘীরপাড় শাখায় ট্রান্সফার করলে ভাল হয়।  

চেয়ারম্যান, বাংলাবাজার  ইউনিয়ন পরিষদ  বয়স্ক ভাতার টাকা উত্তোলনের জন্য ব্যাংক একাউন্ট দিঘীরপাড় শাখায় ট্রান্সফার করার জন্য অনুরোধ করেন

১। ক্ষুদ্র ঋণ আদায়ের হার ১০০% নিশ্চিত করতে হবে।

২। ভাতা বিতরণ ও ক্ষুদ্র ঋণ কার্যক্রমসহ অন্যান্য কার্যক্রম সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন করতে হবে। 

উপজেলা সমাজ সেবা কর্মকর্তা, মুন্সীগঞ্জ।

 

৩.৭

উপজেলা দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা বিভাগঃ   উপজেলা দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা বিভাগঃ  উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়নকর্মকর্তা  সভায় জানান যে, তার বিভাগের কার্যক্রম সুষ্ঠুভাবে চলছে। টিআর/কাবিখা হতে সোলার প্যানেল স্থাপনের জন্য সরকারি নির্দেশনা মোতাবেক কার্যক্রম বাস্তবায়ন করা  হয়েছে মর্মে উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা জানান। তিনি সভায় আরো জানান ২০১৪-২০১৫ অর্থ বছরে ১ম পর্যায় সাধারণ/বিশেষ/টি,আর/কাবিখা/অতি দরিদ্রদের জন্য কর্মসূচী প্রকল্পের কাজের অগ্রগতির প্রতিবেদন নিম্নরূপঃ

নং

খাতের বিবরণ

বরাদ্দের পরিমাণ

০১

বিশেষ টি,আর, নির্বাচনী এলাকা- মুন্সীগঞ্জ-০৩, ১ম পর্যায়

১৭৫.০০০ মেঃ টন

০২

বিশেষ কাবিখা, নির্বাচনী এলাকা- মুন্সীগঞ্জ-০৩, ১ম পর্যায়

১৭৫.০০০ মেঃ টন

০৩

জনাব ফজিলাতুননেসা,সংসদ সদস্য, মহিলা আসন-২২,

টি,আর-১ম পর্যায়

১৫.০০০ মেঃ টন

০৪

জনাব ফজিলাতুননেসা,সংসদ সদস্য, মহিলা আসন-২২,

কাবিখা-১ম পর্যায়

১৬.০০০ মেঃ টন

০৫

সাধারণ টি,আর ১ম পর্যায়

১১৪.২০০ মেঃ টন

 ০৬

সাধারণ কাবিখা-১ম পর্যায়

১২৬.৭৮০ মেঃ টন

০৭

মুন্সীগঞ্জ পৌরসভা-১ম পর্যায়

২৮.০০৬৬ মেঃ টন

০৮

মিরকাদিম পৌরসভা- ১ম পর্যায়

    ১৬.৩৪৪ মেঃ টন

০৯

অতিদরিদ্রদের জন্য কর্মসংস্থান কর্মসূচী

২০০৫ টি কার্ড= ১,৬০,৪০,০০০/-

১০

কমলাঘাট আশ্রয়ন প্রকল্প

   ১১৮.২৩৩ মেঃটন

১১

পবিত্র ঈদ-উল -আযহা উপলক্ষ্যে ভিজিএফ

     ৮৯,৩০০ মেঃ টন

১২

জি,আর দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়/জেলা প্রশাসক হতে প্রাপ্ত

১১২.৭৬০ মেঃ টন

১৩

বিশেষ টি, আর দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয় হতে প্রাপ্ত

   ৩৭.০০০ মেঃ টন

 

নং

২য় পর্যায়

বরাদ্দের পরিমাণ

০১

বিশেষ টি,আর, নির্বাচনী এলাকা- মুন্সীগঞ্জ-০৩, ২য় পর্যায়

৩৬,০০,০০০/-

 ০২

বিশেষ কাবিখা, নির্বাচনী এলাকা- মুন্সীগঞ্জ-০৩, ২য় পর্যায়

৮৬,০০০ মেঃ টন

 ০৩

বিশেষ কাবিটা নির্বাচনী  এলাকা,   মুন্সীগঞ্জ-০৩, ২য় পর্যায়

   ১৮,৪০,০০০/-

 ০৪

জনাব ফজিলাতুননেসা,সংসদ সদস্য, মহিলা আসন-২২,

টি,আর-২য় পর্যায়

১০,০০,০০০/-

 ০৫

জনাব ফজিলাতুননেসা,সংসদ সদস্য, মহিলা আসন-২২,

কাবিখা-২য় পর্যায়

     ৪,৮০,০০০/-

 ০৬

সাধারণ টি,আর -২য় পর্যায়

২২,৮০,১১৯/-

 ০৭

মুন্সীগঞ্জ পৌরসভা-১ম পর্যায়

৫,৬০,১৩২/৬৯

 ০৮

মিরকাদিম পৌরসভা- ১ম পর্যায়

   ৩,২৬,৮৭৯/২১

 ০৯

সাধারণ কাবিখা ২য় পর্যায়

১২৬.৬১০২ মেঃটন

 ১০

বিশেষ টি,আর, নির্বাচনী এলাকা, মুন্সীগঞ্জ-০৩, ৩য় পর্যায়  

১৯,২৬,১৩৪/-

 ১১

বিশেষ কাবিটা, নির্বাচনী এলাকা- মুন্সীগঞ্জ-০৩, ৩য় পর্যায়

৬,০০,০০০/-

 ১২

জনাব ফজিলাতুননেসা,সংসদ সদস্য, মহিলা আসন-২২,

টি,আর-২য় পর্যায়

৬,০০,০০০/-

 

 

 

 ১৩

অতিদরিদ্রদের জন্য কর্মসংস্থান কর্মসূচী

১৫৪৭টি কার্ড=১,২৩,৭৬,০০০/-

১৪

চরবেহের পাড়া আশ্রয়ন প্রকল্পের সংযোগ সড়ক নির্মাণ

৫২,৪০০ মেঃ টন

১৫

পবিত্র ঈদ-উল-ফিতর উপলক্ষ্যে ভিজিএফ

৮৯,৩০০ মেঃটন

১৬

ঢেউটিন ও গৃহ নির্মাণ

 ১৫টি পরিবার

১৭

 সেতু/কালভার্ট নির্মাণ

৭০.৯০.৯০৭/=

১৮

বিশেষ টি,আর, জেলা প্রশাসক হতে প্রাপ্ত

৬৫,০০০মেঃটন

  তিনি প্রকল্পের কাজ দ্রুত সম্পন্ন করার জন্য ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যানগণকে অনুরোধ করেন।

১। প্রকল্পগুলো যথাযথভাবে সম্পন্ন হয়েছে কিনা, তা পরিদর্শন করে প্রতিবেদন দিবেন।

উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা

এবং চেয়ারম্যান

(সকল) ইউ. পি ও ট্যাগ অফিসার

 

৩.৮

উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা বিভাগঃউপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার সভায় জানান যে,মাধ্যমিক শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে জানুয়ারি-জুন/২০১৫ (১ম কিস্তির) উপবৃত্তি বিতরণ চলছে ও প্রতিষ্ঠানে ওয়েবসাইট খোলার কাজ সম্পন্ন হয়েছে। তিনি আরো জানান, গত ২৮/০৭/২০১৫ হতে মাল্টিমিডিয়ার ক্লাশ চলছে।  দাপ্তরিক কাজ সুষ্ঠুও সুন্দরভাবে চলছে। 

১। যেসকল মাধ্যমিক  শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে সরকার কর্তৃক মাল্টিমিডিয়া সরবরাহ করা হয়েছে , সেসকল প্রতিষ্ঠানে  নিয়মিত মাল্টিমিডিয়া ক্লাস নেয়া হয় কিনা, তা মনিটরিং করে প্রতিমাসের ০৩ তারিখের মধ্যে প্রতিবেদন দেয়ার  সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

১। উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার।

২। সহকারী মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার।

 

৩.৯

উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা বিভাগঃ উপজেলা শিক্ষা অফিসার বলেন, মুন্সীগঞ্জ সদর উপজেলার সকল সরকারি প্রাথমিক  বিদ্যালয়সমূহে গ্রীষ্মকালীন অবকাশ ও পবিত্র মাহে রমজান উপলক্ষ্যে বিদ্যালয়গুলো বন্ধ ছিল। বর্তমানে ২৫/৭/২০১৫ ইং তারিখ  বিদ্যালয় কার্যক্রম শুরু হয়েছে এবং কার্যক্রম ভালভাবে চলছে। আগামী ০২/৮/২০১৫ ইং তারিখ থেকে ২য় সাময়িক পরীক্ষা শুরু হয়ে ০৯/৮/২০১৫ ইং তারিখ শেষ হবে। সকল ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মহোদয়কে স্ব স্ব ইউনিয়নের বিদ্যালয়গুলো পরিদর্শন করে শিক্ষার গুণগতমান উন্নয়নের জন্য সার্বিক সহযোগিতা গ্রহণ করার জন্য অনুরোধ করেন।  মুক্তারপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের মাঠে জলাবদ্ধতার কারণে সুষ্ঠুভাবে বিদ্যালয় পরিচালনা করা যাচ্ছে না। জলাবদ্ধতা দূরীকরণের ব্যাপারে সংশ্লিষ্ট ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান মহোদয়কে সার্বিক সহযোগিতা করার জন্য বিশেষভাবে অনুরোধ করা হলো। বঙ্গবন্ধু ও বঙ্গমাতা প্রাথমিক বিদ্যালয় ফুটবল খেলা শ্রীঘ্রই শুরু হতে যাচ্ছে, ফুটবল খেলাকে উপভোগকরাসহ সার্বিক সহযোগিতা করার জন্য সকল সদস্যকে বিশেষভাবে অনুরোধ করা হলো।      এছাড়া  অন্যান্য কার্যক্রম সুষ্ঠুভাবে চলছে।  

১। প্রাথমিক বিদ্যালয়সমূহের কার্যক্রম তদারকি করে প্রতিমাসের ০৩ তারিখের মধ্যে প্রতিবেদন দিবেন।

১। উপজেলা শিক্ষা অফিসার

২। সহকারী প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার।

 

 

৩.১০

উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা বিভাগঃ  উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা  তার বিভাগের কার্যক্রম তুলে ধরেন।  খাবার বড়ি বিতরন -২৩,৫৫৫ কনডম বিতরন -৩৭,০৭৫ ইনজেকটেবলঃ ভায়াল- ২,৪২৭ সিরিঞ্জ-২৫৯৫ আই ইউ ডিঃ স্বাভাবিক-২৯ প্রসব পরবর্তী - নাই, খুলে ফেলা-১২ টি, ইমপস্ন্যান্টঃ নতুন -৮, খুলে ফেলা - ১২ ইসিপি  (ডোজ)- নাই,  স্থায়ী পদ্ধতিঃ পুরুষ- নাই,  মহিলা স্বাভাবিক - ২, প্রসব পরবর্তী - ৩২ জন, মোট ৩৪ জন। সক্ষম দম্পতি ৭৭,৪৯২ জন। CAR = ৭১ু% ।

১। জনসংখ্যা নিয়ন্ত্রণে স্থায়ী ও দীর্ঘমেয়াদী পদ্ধতি বাড়ানোর সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

 উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা

 

৩.১১

মহিলা বিষয়ক বিভাগঃ  ভিজিডি কর্মসূচির আওতায় ২০১৫-২০১৬ ভিজিডি চক্রের ৭২২ জন উপকারভোগীর মাঝে জুন-১৫ মাসের খাদ্য বিতরণ সম্পন্ন  হয়েছে। নতুন অর্থ বছরের খাদ্য শস্যের বরাদ্দ অদ্যবদি পাওয়া যায়নি। বরাদ্দ প্রাপ্তি সাপেক্ষ্যে বিতরণ করা হবে। 

মাতৃত্বকাল ভাতা প্রদান কর্মসূচিরআওতায় মোট ৪৩২ জন উপকারভোগীর জানুয়ারী হতে জুন-১৫ মাসের জন্য বরাদ্দকৃত ১২,৯৬০০০/- (বার লক্ষ ছিয়ানববই হাজার) টাকা উপকার ভোগীদের স্ব স্ব ব্যাংক হিসাবের মাধ্যমে বিতরণ চলমান রয়েছে। উপকার ভোগীদের সচেতনতামূলক প্রশিক্ষণ কার্যক্রম সম্পন্ন হয়েছে। মহিলাদের আত্মকর্মসংস্থানের জন্য ক্ষুদ্রঋন কার্যক্রমের আওতায় ৪৩ জন মহিলার মাঝে ৪,৭৫,০০০/-(চার লক্ষ পঁচাত্তর হাজার)টাকা বিতরণ করা হয়েছে। বিভাগের অন্যান্য কাজ স্বাভাবিক ভাবে চলছে।

১। ভাতা বিতরণ ও প্রশিক্ষণ কার্যক্রমসহ সকল কাজ সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন করতে হবে।

উপজেলা মহিলা বিষয়ক  কর্মকর্তা।

 

৩.১২

উপজেলা যুব উন্নয়ন বিভাগঃউপজেলা যুব উন্নয়ন কর্মকর্তা  সভায় জানান, মুন্সীগঞ্জ সদর উপজেলা কার্যালয়ের শুরু/৯৭ইং থেকে জুন/২০১৫ ইং মাস পর্যন্ত তথ্যাদি নিম্নরূপঃ

ক্রং

বিবরণ

লক্ষ্যমাত্রা

চলতি মাস

অর্থবছর

ক্রম পুঞ্জিত

ভ্রাম্যমান প্রশিক্ষণ

 ৫৭০ জন

  ১২০ জন

৫৭০জন

৫৬৩১ জন

আত্বকর্মীর সংখ্যা

 ৩১৫ জন

    ৯০ জন

৪০১ জন

৪৪৯৪ জন

যুবঋণ বরাদ্দ

---

   ---

---

৩১,১৮,৮০০/-

যুব ঋণ বিতরণ

২৮,৮০,০০০

   ---

২০,৮০,০০০

২,০৭,৯৫,০০০/-

যুবঋণ গ্রহীতার সংখ্যা

---

   ---

 ৩৫ জন

৬৬৭ জন

আদায় যোগ্য টাকা

---

১২,৯৭,২৪৬/-

---

১,৮০,০৫,২০০/-

আদায়কৃত টাকা

---

২,১০,৩০০/-

২৪,৪২,৮০০/

১,৬৯,১৮,২৫৪/-

আদায়ের হার চলমান

---

৮০%

---

৯৪%

ঋণ খেলাপী টাকা

৮,০৩,৫৪৬/

---

---

   ৭,৯৯,৫৪৬/-

১০

ঋণ খেলাপী থেকে আদায়

---

       ৪০০০/-

৪৬,৫০০/-

---

১১

কিস্তি খেলাপী টাকা

২,৬১,৫০০/-

---

---

  ২,৮৭,৪০০/-

১২

কিস্তি খেলাপী  থেকে আদায়

---

২১,০০০/-

২,৩৬,৫০০/

---

১৩

যুব সংগঠনের সংখ্যা

---

---

---

৭০ টি

তিনি আরো বলেন, বিভিন্ন ট্রেডে প্রশিক্ষণ কোর্স চালু হবে। এতে ১৮ হতে ৩৫ বছর বয়সের ছাত্র-ছাত্রী অংশ নিতে পারবে। তাছাড়া পোশাক শিল্পের কোর্সও চালু করা হবে। আগ্রহী শিক্ষার্থীদের ভর্তি করানোর জন্য সকলের প্রতি অনুরোধ জানান।

১। খেলাপী ঋণ আদায়ে আরো তৎপর হতে এবং যথাসময়ে প্রশিক্ষণ সমাপ্ত করতে হবে।

উপজেলা যুব উন্নয়ন অফিসার

 

৩.১৩

জনস্বাস্থ্য প্রকৌশল বিভাগঃউপ-সহকারী প্রকৌশলী জনস্বাস্থ্য বিভাগ সভায় অনুপস্থিত থাকায়  তার বিভাগের কার্যক্রম সম্পর্কে আলোচনা করা গেল না।

 

 

 

 

 

৩.১৪

সমবায় বিভাগঃউপজেলা সমবায় কর্মকর্তা সভায় তার বিভাগের কার্যক্রম তুলে ধরেন।

(ক) অডিট অগ্রগতির তথ্যঃ

নং

সমিতির শ্রেনী

সমিতির সংখ্যা

অডিট যোগ্য সমিতির সংখ্যা

অডিট সমাপ্তির সংখ্যা

মোট দাখিলের

সংখ্যা

মোট দাখিলের

বাকী

অডিট অসমাপ্তির

সমিতির সংখ্যা

১.

কেন্দ্রীয় সমিতি বিভাগীয়

৫ টি

৫ টি

০৫টি

০৫টি

-

--

২.

কেন্দ্রীয় সমিতি পউবো

২ টি

২ টি

০২টি

০২টি

-

--

৩.

প্রাথমিক বিভাগীয়

১৮৫ টি

১৮৫ টি

১৮৫ টি

১৮৫ টি

১২ টি

   --

৪.

প্রাথমিক পউবো

২৫০ টি

২৫০ টি

১৩৪ টি

১৩৪ টি

---

১১৬ টি

 

মোট

৪৪২ টি

৪৪২ টি

৩২৬ টি

৩২৬ টি

১২ টি

  ১১৬ টি

 

১। উৎপাদনমুখী সমবায় সমিতি নিবন্ধন করতে হবে এবং নিবন্ধিত সমবায় সমিতির কার্যক্রম মনিটরিং অব্যাহত রাখতে হবে।

 উপজেলা সমবায় অফিসার।

 

 

৩.১৫

পল্লী উন্নয়ন বোর্ডঃউপজেলা পল্লী উন্নয়ন অফিসার জানান, এ পর্যন্ত ১। চলতি মাসে ঋণ বিতরন :  ৪,৬৪,০০০/- টাকা। ২। মোট ঋণ বিতরনঃ ১৫,৪৩,৮১,০০০/- টাকা ৩। চলতি মাসে ঋণ আদায়ঃ ৮,২৩,০০০/- টাকা। ৪। মোট ঋণ আদায়ঃ ১৩,৯৪,০৫,০০০/ টাকা  ৫। আদায়ের হার : ৯০% ৫। মোট সঞ্চয় আদায়ঃ ৬৬,৯১,০০০/- টাকা।

একটি  বাড়ি একটি খামার প্রকল্পের কার্যক্রমঃ ক. চলতি মাসে ঋণ বিতরনঃ নেই। খ. মোট ঋণ বিতরনঃ ৩,০১,২২,০০০/- টাকা। গ. চলতি মাসে ঋণ আদায়ঃ ১,৯৮,০০০/-টাকা ঘ. মোট ঋণ আদায়ঃ ১,১৬,৫৫,০০০/- টাকা  ঙ. মোট সঞ্চয় আদায়ঃ ১,৬৬,১৩,০০০/-

 

১। ঋণের কিস্তি আদায়ে আরো তৎপর হওয়ার সিদ্ধান্ত  গৃহীত হয়।

২। একটি বাড়ি একটি খামারের মাসিক তথ্য উপস্থাপনের সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

উপজেলা পল্লী উন্নয়ন কর্মকর্তা, মুন্সীগঞ্জ

 

 

৩.১৬

উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক অফিসঃ  উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক , মুন্সীগঞ্জ সদর জানান যে, খাদ্য বিভাগীয় কার্যক্রম সুষ্ঠুভাবে পরিচালনা করা হচ্ছে নিয়ম অনুযায়ী বিভিন্ন সংস্থা ও প্রকল্পের অনুকূলে বরাদ্দকৃত খাদ্য শস্য সুষ্ঠু ভাবে বিলি বিতরণ অব্যাহত আছে। অভ্যন্তরীন বোরো সংগ্রহ/১৫এর আওতায় মিরকাদিম ও কাটাখালী এল এস ডিতে ৩৭৪৭ মেঃটন চাল সংগ্রহ করা হয়েছে। অত্র সংস্থাপনাধীন কোন উন্নয়ন মূলক কাজ নেই । নিন্মে গুদামওায়ারী খাদ্য শষ্যের মজুদ পরিমান দেখানো হলোঃ- 

 

 

ক্রমিক নং

গুদামের নাম

চাউল

গম

০১.

মিরকাদিম

৪৩৩৫ মেঃটন

১৩৩ মেঃটন

০২.

কাটখালী

  ৮৭১   মেঃটন

  ৩৮   মেঃটন

 

মোট-

৫২০৬ মেঃটন

১৭১ মেঃটন

 

 

১। খাদ্যদ্রব্যসহ নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্যের মূল্যের বিষয়ে অসঙ্গতি পরিলক্ষিত হলে দ্রুত ব্যবস্থা নিতে হবে।

উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক

 

৩.১৭

বি এ ডিসি (সেচ):সিনিয়র উপ-সহকারী প্রকৌশলী সভায় তার বিভাগের কার্যক্রম তুলে ধরেন। গত ২০১২-১৩ সনে মুন্সীগঞ্জ সদর উপজেলার চরকেওয়ার ইউনিয়নের পিছামারা খালটির ১.৫০ কিঃমিঃ পুণঃখনন করা হয়েছে। তাছাড়া আধারা ইউনিয়নের ভাসানচর মৌজায় ২-কিউসেক এলএলপি স্কীমে ডিসচার্জবক্সসহ পাকা সেচনালা নির্মাণ ০১টি ও একই ইউনিয়নের দাইমী মৌজায় ২- কিউসেক এল এলপি স্কীমে পাকা সেচনালা নির্মাণ ০১টি। গত ২০১৩-১৪ সনে চরকেওয়ার ইউনিয়নের ভিটিহোগলা জলার খালটির ১.৫০ কিঃমিঃ পূণঃখনন করা হয়েছে। উক্ত সনে কোন পাকা সেচনালা নির্মাণ করা হয়নি। চলতি ২০১৪-১৫ সনে আধারা ইউনিয়নের খালাসীকান্দি খালটির ১.৫০ কিঃমিঃ  পুণঃখনন সম্পন্ন করা হয়েছে। একই ইউনিয়নের বকুলতলা খালটির ১.৫০ কিঃমিঃ পূণঃখনন শেষ হয়েছে। তাছাড়া বাংলাবাজার ইউনিয়নের বড়খালটির ১.৫০ কিঃমিঃ খাল পুণঃখনন করা হয়েছে। আধারা ইউনিয়নের চরআব্দুল্লাহ (দক্ষিণ) মৌজায় ২- কিউসেক এলএলপি স্কীমে ডিসচার্জ বক্সসহ  পাকা সেচনালা নির্মাণ করা হয়েছে ০১টি। ০৫টি পাম্পিং সেট ক্ষেত্রায়ন করা হয়েছে। এছাড়া বিভাগীয় অন্যান্য কার্যক্রম নিয়মিত চলছে।

 চেয়ারম্যান, আধারা  ইউনিয়ন পরিষদ খাল খনন করার জন্য উচ্চতর উপ-সহকারী প্রকৌশলী (ক্ষুদ্র সেচ) এর প্রতিনিধিকে অনুরোধ করেন।  

              

১। কোন্ কোন্ খাল খনন করা প্রয়োজন তা ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যানদের সাথে আলোচনাক্রমে  নির্ধারণ পূর্বক বরাদ্দ  প্রাপ্তির জন্য মন্ত্রণালয়ে প্রেরণ করতে হবে।

 উচ্চতর উপ-সহকারী প্রকৌশলী (ক্ষুদ্র সেচ)

 

 

 

 

 

 

 

 

 

৩.১৮

উপজেলা নির্বাচন বিভাগঃউপজেলা নির্বাচন অফিসার সভায় জানান, মুন্সীগঞ্জ সদর  উপজেলায় হালনাগাদ কার্যক্রম শুরু হয়েছে।  আগামী ৯ আগষ্ট,২০১৫ পর্যন্ত বাড়ী বাড়ী গিয়ে তথ্য সংগ্রহের কাজ চলবে এবং ১১ আগষ্ট হতে নিবন্ধনের কার্যক্রম শুরু হবে। যাদের  জন্ম তারিখ ১ জানুয়ারী ২০০০ সাল বা তার পূর্বে তারা নিবন্ধিত হতে পারবেন। তিনি আরো বলেন, মহিলা ভোটার কম হচ্ছে । কারণ হিন্দু ভোটার বাবার বাড়িতে ভোটার হয়েছে। মহিলা ভোটার যাতে কম না হয় সেদিকে লক্ষ্য রাখার জন্য তিনি জনপ্রতিনিধিদের অনুরোধ করেন। তাছাড়া ভোটার হওয়ার জন্য মসজিদের মাইকে ঘোষণা দেয়ার জন্যও অনুরোধ করেন।  ভোটার তালিকা সুষ্ঠু, সুন্দর ও সূচারুরূপে সম্পন্নের জন্য উপজেলা পরিষদের সকল সদস্যের সার্বিক সহযোগিতা কামনা করেন।

 

১। ভোটার তালিকা হালনাগাদ করণে প্রচারণা ও সহযোগিতা করার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

১। উপজেলা নির্বাচন অফিসার

২। চেয়ারম্যান ইউনিয়ন পরিষদ (সকল)

 

৩.১৯

উপজেলা আনসার ও ভিডিপিঃ  উপজেলা আনসার ও ভিডিপি কর্মকর্তা  সভায় অনুপস্থিত থাকায়  তার বিভাগের কার্যক্রম সম্পর্কে আলোচনা করা গেল না।

 

 

 

৩.২০

উপজেলা পরিসংখ্যান বিভাগঃ ১) ধলাগাও বাজার ও মুন্সিগঞ্জ বাজার হতে দরছক পূরণ পূর্বক জেলা পরিসংখ্যান অফিসে প্রেরণ করা হয়েছে।

 ২) এমএসভিএসবি এর তথ্য সংগ্রহ করে জেলা পরিসংখ্যান্অফিসে প্রেরণ করা হয়েছে।

৩) বিভিন্ন ফসলের আনুমানিক হিসাব জেলা পরিসংখ্যান অফিসে প্রেরণ করা হয়েছে।

৪) বোরা ফসলের মূল্য ও উৎপাদন খরচ জরিপ এর  তথ্য সংগ্রহ করে জেলা পরিসংখ্যান অফিসে প্রেরণ করা হয়েছে।

৫) পাট ফসলের পূর্বাভাস জরিপ এর তথ্য  সংগ্রহ করে জেলা পরিসংখ্যান অফিসে প্রেরণ করা হয়েছে।

৬) মাসিক কৃষি মজুরীর তথ্য সংগ্রহ করে জেলা পরিসংখ্যান অফিসে প্রেরণ করা হয়েছে।

৭) এছাড়া বিভাগীয় নিয়মিত অন্যান্য কাজ সুষ্ঠুভাবে চলছে। বিভাগীয় কাজে কোন সমস্যা নাই ।

 

 

১। এ ধারা অব্যাহত রাখার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

 উপজেলা পরিসংখ্যান কর্মকর্তা

 

      

 

৩.২১

পল্লী দারিদ্র্য বিমোচন ফাউন্ডেশনঃপল্লী দারিদ্র্য বিমোচন কর্মকর্তাতার দপ্তরের বিভাগীয় কার্যক্রম তুলে ধরেন।

 

উপজেলা দারিদ্র বিমোচন অফিসার

 

ঋণ বিতরণ ও আদায় বিবরণঃ

ঋণের প্রকার

মাসে

বছরে

ক্রমপুঞ্জিত

ঋণ বিতরন

(লক্ষ টাকায়)

ঋণ আদায়

(লক্ষ টাকায়)

আদায়ের

হার

ঋণ বিতরন

(লক্ষ টাকায়)

ঋণ আদায়

(লক্ষ টাকায়)

আদায়ের

হার

ঋণ বিতরন

(লক্ষ টাকায়)

ঋণ আদায়

(লক্ষ টাকায়)

আদায়ের

হার

 

১. ক্ষুদ্র ঋণ

২. ক্ষুদ্র  উদ্যোক্তা ঋণ

৭.৩৩

 ১.০০

৪.৭৯

১.৮৪

১০০%

১০০%

৪৯.১৯

 ২০.০০

 ৪২.২০

 ১৮.২৩

১০০%

১০০%

৭১.৬৯

৩৪.৭০

৫২.০৬

২৩.৬০

 

১০০%

 

১০০%

 

মোট

৮.৩৩

৬.৬৩

১০০%

৬৯.১৯

৬০.৪৩

১০০%

১০৬.৩৯

৭৫.৬৬

১০০%

 

০১। সমিতি গঠনঃ ২০ টি, ০২। মোট  সদস্য ভর্তি : ৪৮৪ জন, ০৩। মোট সঞ্চয় জমাঃ ১৩.৯৪ লক্ষ টাকা, ০৪। মোট সোনালী সঞ্চয় জমাঃ ৭.৭৫ লক্ষ টাকা ,০৫। মোট মেয়াদীসঞ্চয় জমাঃ ১.৫৫ লক্ষ, ০৬। মোট ক্ষুদ্র উদ্যোক্তা সদস্যঃ ১৭ জন।

তিনি আরো জানান, মুন্সীগঞ্জ জেলার ৬ (ছয়)টি উপজেলার মধ্যে সদর উপজেলার পল্লী দারিদ্র বিমোচন অফিসের ঋণ আদায় সবচেয়ে সন্তোষজনক।

 

উপজেলা নির্বাহী অফিসারসভায় বলেন, আগামী ১৩ আগষ্ট ২০১৫  জেলা প্রশাসনের উদ্যোগে ১৫ আগষ্ট জাতীয় শোক দিবস স্মরণে গত বছরের মত এবারও  শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ছাত্র-ছাত্রীদের হাতে ০২টি করে চারা দিয়ে আনুষ্ঠানিকতার মাধ্যমে বৃক্ষরোপন কর্মসূচী পালন করা হবে। চারা ক্রয়ের জন্য উপজেলা পরিষদের নিজস্ব ফান্ড হতে অর্থ প্রদানের প্রস্তাব করেন। কমিটির সকল সদস্য একমত পোষণ করেন।

উপজেলা পরিষদের রাজস্ব তহবিল : উপজেলা পরিষদের নিম্নবর্ণিত ব্যয় সর্বসম্মতিক্রমে অনুমোদনের জন্য উপস্থাপন করা হলো।                                           

            (০১) আনুসঙ্গিক-১৯০০/- টাকা

            (০২) আপ্যায়ন বাবদ-৪৯০০/- টাকা

            (০৩) ইন্টারনেট -৫০০/- টাকা

            (০৪) পাম্পের মবিল ২০০/- টাকা।

(০৫) সিডি-১৫০ টাকা।

(০৬) কটলেস এর ব্যাটারী ও ঘড়ির ব্যাটারী ২৩০/- টাকা।

(০৭) টোনার  -৬০০০/-টাকা।

(০৮) ইউপিএস-৪০০০/- টাকা।

          (০৯) রাস্তায়  লাইট মেরামত-৫৮০/-টাকা।

            (১০) বাঁশ ও বেড়া ক্রয়বাবদ খরচ-২২,০০০/-

            (১১) প্যালাসাইডিং তৈরীর জন্য শ্রমিকের মজুরী বাবদ খরচ-৭০০০/-

            (১২) প্যালাসাইডিং স্থানে মাটি নেওয়ার জন্য ভ্যানভাড়া-৮০০০/-

            (১৩) উপজেলা সমবায় অফিস ও উপজেলা নির্বাহী অফিসারের বাসভবনে ০২ (দুই) টি নতুন সিলিং ফ্যান সংযোগ।

            (১৪) পবিত্র ঈদ-উল- ফিতর উপলক্ষ্যে অফিস কম্পাউন্ডে জঙ্গল ও ড্রেন পরিস্কার ও ইলেকট্রিক লাইন মেরামত খরচ-৭৫০০/ টাকা। 

 

চেয়ারম্যান,উপজেলা পরিষদ,মুন্সীগঞ্জ সদর ও সভাপতি উপজেলা পরিষদ মাসিক সভা, বলেন, উচ্চতর সহকারী প্রকৌশলী, বিএডিসি  (সেচ)  এর প্রতিনিধি  সদরসহ গজারিয়া উপজেলার দায়িত্ব পালন করায় তাকে সপ্তাহে কমপক্ষে ২ (দুই) দিন  তাঁর সাথে অথবা  উপজেলা নির্বাহী অফিসার এর সাথে স্বাক্ষাত করার জন্য বলেন। তাছাড়া প্রতিটি  বিভাগের কর্মকর্তাগণকে মাসিক সভায় উপস্থিত থাকার জন্য অনুরোধ করেন।  তিনি উপজেলা পরিষদের  সকল কর্মকর্তগণকে দায়িত্বশীলভাবে কাজ করার অনুরোধ জানান। অতঃপর আর কোন আলোচনা না থাকায় সভাপতি সকলকে ধন্যবাদ জানিয়ে সভার সমাপ্তি ঘোষণা করেন।

 

 

                     (আনিছ উজ্জামান)

চেয়ারম্যান

 উপজেলা পরিষদ,

সভাপতি, উপজেলা পরিষদ  মাসিক সভা

মুন্সীগঞ্জ সদর, মুন্সীগঞ্জ।

 

স্মারক নং-  ০৫.৩০.৫৯৫৬.০০৬.০১.০০১.১১-           (৫০)                                                  তারিখঃ          /২০১৫ খ্রিঃ

 

        অনুলিপি অবগতি ও প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য প্রেরণ করা হলোঃ

 

০১. মেয়র, মুন্সীগঞ্জ/মিরকাদিম পৌরসভা, মুন্সীগঞ্জ সদর, মুন্সীগঞ্জ।

০২. উপজেলা ...................................................অফিসার, মুন্সীগঞ্জ সদর।

০৩. চেয়ারম্যান ...............................................ইউনিয়ন পরিষদ (সকল), মুন্সীগঞ্জ সদর।

 

স্মারক নং- ০৫.৩০.৫৯৫৬.০০৬.০১.০০১.১১-                                                                    তারিখঃ          /২০১৫খ্রিঃ

 

  অনুলিপি সদয় অবগতির জন্য প্রেরণ করা হলো।                                                                                                              

 

০১. মাননীয় সংসদ সদস্য,মুন্সীগঞ্জ-০৩।

০২. সিনিয়র সচিব, স্থানীয় সরকার,পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয়,বাংলাদেশ সচিবালয়, ঢাকা।

০৩. জেলা প্রশাসক, মুন্সীগঞ্জ।

০৪. জেলা হিসাব রক্ষণ অফিসার, মুন্সীগঞ্জ।

 

 

উপজেলা নির্বাহী অফিসার

মুন্সীগঞ্জ সদর, মুন্সীগঞ্জ।

 

 

উপজেলা পরিষদ

মুন্সীগঞ্জ সদর, মুন্সীগঞ্জ

মুন্সীগঞ্জ সদর উপজেলা পরিষদের জুন / ২০১৫ মাসে অনুষ্ঠিত মাসিক সভার কার্যবিবরণী।

আলোচ্য মাস- মে / ২০১৫

 

সভাপতি     :

 

 

জনাব মোঃ আনিছ উজ্জামান

চেয়ারম্যান, উপজেলা পরিষদ,

মুন্সীগঞ্জ সদর, মুন্সীগঞ্জ।

স্থান           :

উপজেলা পরিষদ সম্মেলন কক্ষ।

তারিখ ও সময়ঃ

২১.০৬.২০১৫ খ্রিঃ বেলা ১২.০০ ঘটিকা

 

(সভায় উপস্থিত সদস্যদের তালিকা পরিশিষ্ট -‘ক’ )

( সভায় অনুপস্থিত সদস্যদের তালিকা পরিশিষ্ট-‘খ’)

 

সভাপতি উপস্থিত সকলকে স্বাগত জানিয়ে সভার কাজ শুরু করেন।  সভাপতি গত সভার কার্যবিবরণী পাঠ ও অনুমোদনের জন্য সকলকে আহবান জানান। 

আলোচ্যসূচি-০১: বিগত সভার কার্যবিবরণী পাঠ ও অনুমোদন- বিগত সভার কার্যবিবরণী পাঠ করে শুনানো হয় এবং তা যথাযথভাবে উপস্থাপিত হওয়ায় সর্বসম্মতিক্রমে অনুমোদন করা হয়।

আলোচ্যসূচি-০২: বিগত সভায় গৃহীত সিদ্ধান্ত বাস্তবায়ন ও অগ্রগতি পর্যালোচনা।

নং

বিভাগ

সিদ্ধান্ত

অগ্রগতি

০১

 উপজেলা স্বাস্থ্য বিভাগ

০১। কমিউনিটি ক্লিনিক এবং ইউনিয়ন স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ কেন্দ্রের সকল কাজ নিয়মিত মনিটরিং করতে হবে। ০২। উপজেলা স্বাস্থ্য কমপেস্নক্সে সেবার মান বৃদ্ধি করতে হবে।

০১। কার্যক্রম চলমান আছে।

০২

উপজেলা কৃষি বিভাগ

 

০১। বিশেষ কর্মসূচী ও মাননীয় প্রধানমন্ত্রী কর্তৃক নির্দেশিত কার্যক্রম বাস্তবায়নের জন্য গুরুত্ব দিতে হবে।

০১। কার্যক্রম চলমান আছে।

০৩

উপজেলা মৎস্য বিভাগ

০১। মাছে ফরমালিন রোধ ও কারেন্ট জাল নির্মূলের জন্য নিয়মিত মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করতে হবে।

০১।  চলমান আছে।

০৪

উপজেলা প্রাণীসম্পদ বিভাগ

 

০১। বার্ড ফ্লু নিয়ন্ত্রণে কার্যকরী  ব্যবস্থা গ্রহণ করতে হবে।

০২। খামারীদের নিয়মিত প্রশিক্ষণ দিতে হবে।

০২। কার্যক্রম চলমান আছে

০৫

উপজেলা প্রকৌশল বিভাগ

০১। কার্যাদেশে প্রদত্ত সময়সীমার মধ্যে কাজ সম্পন্ন করার জন্য ঠিকাদারগণকে তাগিদপত্র দেওয়ার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয় এবং নির্ধারিত সময়সীমার মধ্যে কাজ সম্পন্ন করতে ব্যর্থ হলে ঠিকাদারের কার্যাদেশ বাতিল করার সর্বসম্মত সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।  

০১। চলমান আছে।

০৬

 উপজেলা সমাজসেবা বিভাগ

০১। ক্ষুদ্রঋণ আদায়ের হার ১০০% নিশ্চিত করতে হবে।

০২। ভাতা বিতরন ও ক্ষুদ্র ঋণ কার্যক্রম সহ অন্যান্য  কার্যক্রম সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন করতে হবে।

০১। চলমান আছে।

০৭

উপজেলা দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা  বিভাগ

০১। প্রকল্পগুলো যথাযথভাবে সম্পন্ন হয়েছে কিনা তা পরিদর্শন করে প্রতিবেদন দিবেন।

০১। কার্যক্রম চলমান আছে।

০৮

উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা বিভাগ

০১। যেসকল মাধ্যমিক শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে সরকার কর্তৃক মাল্টিমিডিয়া সরবরাহ করা হয়েছে, সেসকল প্রতিষ্ঠানে নিয়মিত মাল্টিমিডিয়া ক্লাস নেয়া হয় কিনা, তা মনিটরিং করার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।    

০১। মনিটরিং অব্যাহত আছে।

০৯

উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা বিভাগঃ 

০১। প্রাথমিক বিদ্যালয় সমূহের কার্যক্রম তদারকি করে প্রতিমাসের ০৩ তারিখের মধ্যে প্রতিবেদন দিবেন।

০১। কার্যক্রম চলমান আছে।

১০

উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা বিভাগ

 

০১।  জনসংখ্যা নিয়ন্ত্রণে স্থায়ী ও দীর্ঘ মেয়াদী  পদ্ধতি বাড়ানোর সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

০১। অব্যাহত আছে।

১১

মহিলা বিষয়ক বিভাগ

০১। ভাতা বিতরন ও প্রশিক্ষণ কার্যক্রমসহ অন্যান্য সকল কাজ সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন করতে হবে।

০১। কার্যক্রম চলমান আছে।

১২

 উপজেলা যুব উন্নয়ন বিভাগ

০১। খেলাপী ঋণ আদায়ে আরো তৎপর হতে হবে এবং যথাসময়ে প্রশিক্ষণ সমাপ্ত করতে হবে।

০১। চলমান আছে।

১৩

জনস্বাস্থ্য প্রকৌশল বিভাগ

 

০১। যে সকল প্রাথমিক বিদ্যালয়ে টিউবওয়েল নেই বা নষ্ট হয়ে গেছে সেসব বিদ্যালয়ের জন্য টিউবওয়েল চেয়ে মন্ত্রণালয়ে পত্র দেয়ার  সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

০১। কার্যক্রম চলমান আছে।

১৪

সমবায় বিভাগঃ

০১।  উৎপাদনমুখী সমবায় সমিতি নিবন্ধন  করতে হবে নিবন্ধিত সমবায় সমিতির কার্যক্রম মনিটরিং অব্যাহত রাখতে হবে।

০১। চলমান আছে।

১৫

পল্লী উন্নয়ন বোর্ড

০১। ঋণের কিস্তি আদায়ে আরো তৎপর হওয়ার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

০২। একটি বাড়ি একটি খামারের মাসিক তথ্য উপস্থানের সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

০১। চলমান আছে।

১৬

উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক অফিস

০১। খাদ্যদ্রব্যসহ নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্যের মূল্যের বিষয়ে অসঙ্গতি পরিলক্ষিত হলে দ্রুত ব্যবস্থা নিতে হবে।

০১। চলমান আছে।

১৭

বি এ ডিসি  (সেচ)

০১। বাংলাবাজার ইউনিয়নের ‘বড়খাল’ পুণঃখননের অবশিষ্ট ৩০% কাজ দ্রুত সম্পন্ন করার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

০১। চলমান আছে।

১৮

 

উপজেলা আনসার ও ভিডিপি

০১। প্রশিক্ষণ কার্যক্রম অব্যাহত রাখতে হবে।

০১। কার্যক্রম চলমান আছে।

১৯

উপজেলা পরিসংখ্যান বিভাগ

০১। এ ধারা অব্যাহত রাখার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

০১। চলমান আছে।

 

 

আলোচ্যসূচি-০৩: বিভাগ ভিত্তিক আলোচনাঃ

নং

 

সিদ্ধান্ত

বাস্তবায়নে

 

৩.১

উপজেলা স্বাস্থ্য বিভাগঃউপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা সভায় জানান যে, চিকিৎসা সেবার মান উত্তরোত্তর বৃদ্ধির চেষ্টা অব্যাহত আছে। তিনি আরো জানান, সদর উপজেলায় উপ-স্বাস্থ্য কেন্দ্র-০২ টি । সেবা প্রাপ্ত রোগীর সংখ্যা : পুরুষ-১২২০ জন, মহিলা-১৮৪৩ জন, শিশু- ৬৮২ জন, মোট = ৩৭৪৫জন। চালুকৃত কমিউনিটি ক্লিনিকের সংখ্যা : ১৩টি। রোগীর সংখ্যা- পুরুষ : ৪৪৬২ জন, মহিলা : ৬৫৫৭ জন, শিশু : ৩০৩৪ জন, মোট = ১৪০৫৩ জন। শিশু জন্মের সংখ্যাঃ পুরুষ- ৩০০ জন, মহিলা -২৯৬ জন, মোট = ৫৯৬ জন। মৃত্যুর সংখ্যাঃ ০-৭ দিন = ০২ জন, ০৮-২৮ দিন = ০১ জন, ২৯ দিন-১ বৎসর =০৫ জন, মৃত জম্মের সংখ্যা ০৩ জন, ১-৫ বছরের মধ্যে = ০৪ জন। পানিতে ডুবে- ০১ জন ০৫ বছরের উর্দ্ধে = ১০০ জন। ই,পি,আই কার্যক্রমঃ  বিসিজি ৮%, পেন্টা ৮%, পোলিও ৮%, এম,আর ৮%, হাম ৮%, টিটি ৮%। ডায়রিয়া রোগীর কার্যক্রমঃ নো- ডিহাইড্রেশনঃ ১৬১৯ জন, সাম- ডিহাইড্রেশনঃ ১১ জন, সিভিয়ার ডিহাইড্রেশনঃ ০০ জন, মোট = ১৬৩০ জন। টিবি রোগী (চিকিৎসাধীন) কার্যক্রমঃ পুরুষ ১৯ জন, মহিলা ৫ জন,শিশু-০০ জন মোট = ২৪ জন । কুষ্ঠ রোগী (চিকিৎসাধীন) কার্যক্রমঃ পুরুষ  ০৭ জন, মহিলা - ০৩ জন, শিশু - নাই, মোট = ১০ জন। আর্সেনিকোসিস রোগী (চিকিৎসাধীন) কার্যক্রমঃ পুরুষ - ১৩৮ জন, মহিলা - ৯৯ জন, শিশু - নাই, মোট = ২৩৭ জন।

১। কমিউনিটি ক্লিনিক এবং ইউনিয়ন স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ কেন্দ্রের সকল কাজ নিয়মিত মনিটরিং করতে হবে।

২। উপজেলা স্বাস্থ্য কমপেস্নক্সে সেবার মান বৃদ্ধি করতে হবে।

 উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা অফিসার, মুন্সীগঞ্জ

 

 

 ৩.২

উপজেলা কৃষি বিভাগ :  উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা  তাঁর বিভাগের কার্যক্রম তুলে ধরেন। ফসল আবাদঃ খরিপ- ১ মৌসুমঃ পাট আবাদ-৫০১ হেক্টর, আউশ আবাদ-১৪৭ হেক্টর, বোনা আমন আবাদ- ৬২০৮ হেক্টর, তিল আবাদ-২২০ হেক্টর, কাউন আবদ - ২২২ হেক্টর, ধৈঞ্চা আবাদ- ৬২০ হেক্টর,ভূট্টা আবাদ-১৫ হেক্টর, গ্রীষ্মকালীন মরিচ- ১১৮ হেক্টর,  শাক সব্জী আবাদ-১৪৪৭ হেক্টর। বোরো শস্য কর্তন- ৯০৫ হেক্টর উফশী এবং ১৪৬ হেক্টর স্থানীয় বোরো আবাদ হয়েছে। এ যাবৎ ৯৩৬ হেক্টর কর্তন হয়েছে। এর মধ্যে উফশী-৭৯০ হেক্টর কর্তন হয়েছে এবং ফলনঃ ৬.৫০ মে.টন/হেক্টর (ধানে)। স্থানীয় -১৪৬ হেক্টর কর্তন হয়েছে এবং ফলনঃ ১.৮০ মে.টন/ হেক্টর। বিশেষ কর্মসূচী গ্রহণঃ ৭৫০ জংলী কুলগাছকে বাডিং এর মাধ্যমে উন্নত জাতে রূপান্তরের কাজ  চলছে। ৫০ হেক্টর সব্জী ফসলে সেক্স ফেরোমন ফাঁদ ও বিষটোপ ব্যবহারের লক্ষ্যমাত্রা নিয়ে কাজ চলছে। এছাড়াও মাননীয প্রধানমন্ত্রী কর্তৃক নির্দেশিত ২৭ টি বিশেষ কার্যক্রমের লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ পূর্বক কাজ যথারীতি এগিয়ে যাচ্ছে।  

সার,বীজ সরবরাহ ও মজুদ পরিস্থিতিঃ সার ও বীজের মজুদ সন্তোষজনক।

এছাড়া বিভাগীয় নিয়মিত কার্যক্রম সুষ্ঠু ও স্বাভাবিক ভাবে চলছে।

১। বিশেষ কর্মসূচী ও মাননীয় প্রধানমন্ত্রী কর্তৃক নির্দেশিত কার্যক্রম বাস্তবায়নের জন্য  গুরুত্ব দিতে হবে।

 উপজেলা কৃষি অফিসার

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

          

 

৩.৩

উপজেলা মৎস্য বিভাগঃ  সিনিয়র উপজেলা মৎস্য  অফিসার সভায়  অনুপস্থিত থাকায়  তার বিভাগের কার্যক্রম সম্পর্কে আলোচনা করা গেল না।

 

 

 

৩.৪

উপজেলা প্রাণীসম্পদ বিভাগঃ  উপজেলা প্রাণীসম্পদ কর্মকর্তা তার বিভাগীয় কার্যক্রম তুলে ধরেন। ০১। রোগ প্রতিরোধ ব্যবস্থা : (ক) গবাদি পশুর টিকাদানঃ ৮৩২৮ মাত্রা (খ) হাঁস মুরগীর টিকাদানঃ ১,১৯,২০০ মাত্রা। (গ) গবাদি পশুর চিকিৎসাঃ ২০৮০ টি (ঘ) হাঁস মুরগীর চিকিৎসাঃ ৮১৫২ টি (ঙ) কৃত্রিম প্রজননের সংখ্যাঃ ১,৫০৮ টি (চ) বাচ্চা জন্মের সংখ্যাঃ (ক) এঁড়ে  : ৩০৫ টি

                                                                       (খ) বকনা : ২৫৭ টি

                                                                          মোট     : ৫৬২ টি

সম্প্রসারণ কার্যক্রমঃ- (ক) ০১ দিনের মুরগীর বাচ্চা বিতরণঃ ৭০,০০০ টি। (খ)  গাভীর খামার স্থাপনঃ  ০৮ টি। (গ) মুরগীর খামার স্থাপন = ০১ টি, (ঘ) হাঁসের খামার স্থাপন-০১টি (ঙ) ছাগলের খামার স্থাপন-০৫ টি (চ) ভেড়ার খামার স্থাপন -০০ টি  (ছ) বিভাগীয় প্রশিক্ষণঃ ২৬৯ জন

(জ) ঘাসচাষ (একর)-৬.৫০ একর।

রাজস্ব আয়ঃ- (ক) টিকাবীজ বিক্রয় বাবদ =১৩,৪২৫/ টাকা। (খ) কৃত্রিম প্রজনন ফি বাবদ = ৩৬,৫২৮/ টাকা। মোট আয় = ৪৯,৯৫৩/- টাকা।

১০০ জন খামারীর হাতে কলমে প্রশিক্ষণ প্রদান ও প্রয়োজনীয় ঔষধ ও প্রতিষেধক টিকা সরবরাহের সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

উপজেলা প্রাণিসম্পদ কর্মকর্তা

 

৩.৫

উপজেলা প্রকৌশল বিভাগ :উপজেলা প্রকৌশলী সভায় জানান যে, বার্ষিক উন্নয়ন কর্মসূচীর আওতায় চলমান অর্থবছরে ৩১টি প্যাকেজের মধ্যে ‘‘আধারা জাজিরা বকচর রাস্তার জাজিরা মসজিদ হতে তোফাজুল গাজীর বাড়ী পর্যন্ত রাস্তা          দ্বারা উন্নয়ন’’ (গ্রুপ-২৬), ঠিকাদার মেসার্স রুবিনা এন্টারপ্রাইজ, প্রোঃ মোঃ নাজমুল হুদা, কোর্টগাও, সদর মুন্সীগঞ্জ, অদ্যাবধি প্রকল্পের কাজ শুরু করেন নাই। গত মে/২০১৫ ইং মাসিক সভার সিদ্ধান্ত মোতাবেক সংশ্লিষ্ট ঠিকাদেরকে ০৩ (তিন) দিনের মধ্যে মালামাল মজুদ করতঃ কাজ শুরু করার জন্য সর্বশেষ চূড়ান্ত তাগিদপত্র দেওয়া হয়।  (যার স্মারক নং-এলজিইডি/উঃপঃ/মুঃসঃ/২০১৫/৪১৩; তারিখঃ ০১/০৬/১৫ ইং। ঠিকাদারকে পরপর ০২টি তাগিদপত্র দেয়া হলেও ঠিকাদার কাজটি শুরু না করায় এবং বর্তমান অর্থবছর সমাপ্ত হয়ে যাওয়ায় পিপিআর-২০০৮ এর বিধিবিধান অনুযায়ী দরপত্র দলিলের অনুচ্ছেদ ৩৬(এ) নং শতৃ মোতাবেক সভায় উপস্থিত সকল সদস্য কার্যাদেশ বাতিলসহ সংশ্লিষ্ট ঠিকাদারের লাইসেন্স আগামী ১ বছরের জন্য কালোতালিকাভূক্ত করার প্রস্তাব করেন উপজেলা প্রকৌশলী সভায আরো জানান যে, প্রাথমিক শিক্ষা প্রকল্পের আওতায় চলমান ৫টি সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের নির্মাণ কাজ সমাপ্তির পথে। ইদ্রাকপুর ০১নং ও কেওয়ার সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় ০২টি         তে দরপত্র আহবানের প্রস্তাব পাওয়া গিয়াছে। অনুমোদন পত্রের নির্দেশনা অনুযায়ী জনস্বাস্থ্য অধিদপ্তর কর্তৃক উক্ত বিদ্যালয় ০২টিতে পিইডিপি-৩ প্রকল্পের আওতায়              নির্মিত হলে কিংবা প্রস্তাব থাকলে                          অংশটি বাস্তবায়ন প্রক্রিয়া হতে বাদ দেওয়ার সিদ্ধান্ত রয়েছে। যেহেতু ইদ্রাকপুর ০১ নং সরকারী প্রাথমিক বিদ্যারয়ে ইতোমধ্যে পিইডিপি-৩ এর আওতায়          নির্মিত হয়েছে এবঙ কেওয়ার সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ে                  নির্মাণের প্রস্তাব থাকায় মূল  প্রাক্কলন হতে                    বাদ দেওয়ার জন্য অত্র দপ্তর হতে উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষকে অবহিত করা হয়েছে। সদর দপ্তর হতে সংশোধিত প্রাক্কলন ও প্রশাসনিক অনুমোদন পাওয়া গেলে          এ দরপত্র আহবান করা হবে। তাছাড়াও ১৪টি সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ে ০১টি কক্ষ নির্মাণের জন্য,তথ্র প্রেরণের জন্র সদর দপ্তর হতে অনুমোদন পাওয়া গিয়াছে। তাছাড়া অসচ্ছল মুক্তিযোদ্ধাদের বাসস্থান নির্মাণ প্রকল্পের আওতায় অনুমোদিত ৮টি বাসস্থানের মধ্যে ৪টি বাসস্থানের বাস্তবায়ন প্রক্রিয়া চলমান রয়েছে। ১টি বাসস্থানের জন্য জমির সীমানা নির্ধারণে করে জায়গা বুঝিয়ে না দেওয়ায় এবং প্রকল্পের জমি ভরাটের প্রয়োজন

থাকায় জমি ভরাট কাজ শেষ না হওয়ায় প্রকল্পের কাজ শুরু হয়নি।বাকি ২টি বাসস্থানের কার্যাদেশ পাওয়া গেলে কাজ শুরু করা হবে।                                                      

 

 

 

 

১। সভায় বিস্তারিত আলোচনা হয় । আলোচনামেত্ম সংশ্লিষ্ট ঠিকাদারের কার্যাদেশ বাতিলসহ  ১ বছরের জন্য কালোতালিকাভূক্ত করার সর্বসম্মত সিদ্ধান্ত গৃহীত হয় । 

উপজেলা প্রকৌশলী

 

৩.৬

উপজেলা সমাজসেবা বিভাগঃউপজেলা সমাজসেবা কর্মকর্তা জানান, তাঁর বিভাগের কার্যক্রম সুষ্ঠুভাবে চলছে। বিভাগীয় কাজের ধারা নিম্নণরূপঃ

ঋণ বিতরণ ও আদায়ঃ

(1)     আর, এস,এস ক্ষুদ্র ঋণ কার্যক্রমের আওতায় আদায়যোগ্য অর্থের মধ্যে (মূল ও সার্ভিস চার্জ) সর্বমোট =১,১০,০০০/-(এক  লক্ষ দশ হাজার ) টাকা আদায় হয়েছে। আদায়ের হার ৯৮%। এছাড়া ক্ষুদ্র ঋণ বিতরণ করা হয়েছে আর,এস এস=১,০০,০০০/- টাকা। 

(2)    এসিডদগ্ধ ও শারীরিক প্রতিবন্ধী ব্যক্তিদের পূনর্বাসন কার্যক্রমের আওতায় সর্বমোট =৫৬,৪৯০/-  (ছাপ্পান্ন হাজার চারশত নববই) টাকা আদায় হয়েছে এবং ব্যাংকে জমা করা হয়েছে। বিতরণ করা হয়েছে =৯৫,০০০/-(পঁচানববই হাজার) টাকা।

ভাতা কার্যক্রমঃ২০১৪-২০১৫ অর্থ বছরে বয়স্কভাতা, বিধবা ও স্বামী পরিত্যক্তা দুঃস্থ মহিলা ভাতা, অসচ্ছল প্রতিবন্ধী ভাতা ও প্রতিবন্ধী শিক্ষা উপবৃত্তির অর্থ ৩য় কিস্তি পর্যন্ত ১০০% বিতরণ সম্পন্ন হয়েছে। প্রতিবন্ধী সনাক্তকরণ জরীপ কাজ ১০০% সম্পন্ন হয়েছে, বর্তমানে পরিচয় পত্র প্রদানের লক্ষ্যে ডাটা এন্ট্রির কাজ চলমান আছে। অন্যান্য কার্যক্রমঃ সামাজিক কার্যক্রমের আওতায় বাল্য বিবাহ রোধ যৌতুক বিরোধী প্রচারনা, জলাবদ্ধ পায়খানা ব্যবহার,বৃক্ষরোপন,পুষ্টি,পরিবার পরিকল্পনা ইত্যাদি বিষয়ে লক্ষ্যভূক্ত পরিবারের সদস্যদের মধ্যে সচেতনতা সৃষ্টির লক্ষ্যে কার্যক্রম অব্যাহত আছে। চলমান মাসে ২টি বাল্য বিবাহ প্রতিরোধ করা হয়েছে।

১। ক্ষুদ্র ঋণ আদায়ের হার ১০০% নিশ্চিত করতে হবে।

২। ভাতা বিতরণ ও ক্ষুদ্র ঋণ কার্যক্রমসহ অন্যান্য কার্যক্রম সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন করতে হবে। 

উপজেলা সমাজ সেবা কর্মকর্তা, মুন্সীগঞ্জ।

 

৩.৭

উপজেলা দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা বিভাগঃ   উপজেলা দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা বিভাগঃ  উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়নকর্মকর্তা  সভায় জানান যে, তার বিভাগের কার্যক্রম সুষ্ঠুভাবে চলছে। টিআর/কাবিখা হতে সোলার প্যানেল স্থাপনের জন্য সরকারি নির্দেশনা মোতাবেক কার্যক্রম বাস্তবায়ন করা  হয়েছে মর্মে উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা জানান। তিনি সভায় আরো জানান ২০১৪-২০১৫ অর্থ বছরে ১ম পর্যায় সাধারণ/বিশেষ/টি,আর/কাবিখা/অতি দরিদ্রদের জন্য কর্মসূচী প্রকল্পের কাজের অগ্রগতির প্রতিবেদন নিম্নরূপঃ

নং

খাতের বিবরণ

বরাদ্দের পরিমাণ

০১

বিশেষ টি,আর, নির্বাচনী এলাকা- মুন্সীগঞ্জ-০৩, ১ম পর্যায়

১৭৫.০০০ মেঃ টন

০২

বিশেষ কাবিখা, নির্বাচনী এলাকা- মুন্সীগঞ্জ-০৩, ১ম পর্যায়

১৭৫.০০০ মেঃ টন

০৩

জনাব ফজিলাতুননেসা,সংসদ সদস্য, মহিলা আসন-২২,

টি,আর-১ম পর্যায়

১৫.০০০ মেঃ টন

০৪

জনাব ফজিলাতুননেসা,সংসদ সদস্য, মহিলা আসন-২২,

কাবিখা-১ম পর্যায়

১৬.০০০ মেঃ টন

০৫

সাধারণ টি,আর ১ম পর্যায়

১১৪.২০০ মেঃ টন

০৬

মুন্সীগঞ্জ পৌরসভা-১ম পর্যায়

২৮.০০৬৬ মেঃ টন

০৭

মিরকাদিম পৌরসভা- ১ম পর্যায়

    ১৬.৩৪৪ মেঃ টন

০৮

সাধারণ কাবিখা-১ম পর্যায়

১২৬.৭৮০ মেঃ টন

০৯

জেলা প্রশাসক, মুন্সীগঞ্জ এর ১ম পর্যায় বরাদ্দ

   ৩২.০০০ মেঃটন

১০

অতিদরিদ্রদের জন্য কর্মসংস্থান কর্মসূচী

২০০৫ টি কার্ড= ১,৬০,৪০,০০০/-

১১

সেতু/কালভার্ট

৬৯,১৩,১১৭/-

 

নং

২য় পর্যায়

 

০১

সাধারন টি,আর-২য় পর্যায়

২২,৮০,১১৯ /-

 ০২

মুন্সীগঞ্জ পৌরসভা-১ম পর্যায়

 ---

 ০৩

মিরকাদিম পৌরসভা- ১ম পর্যায়

---

 ০৪

সাধারণ কাবিখা -১২৬.

১২৬.৬১০২মেঃটন

 ০৫

দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা  ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়-জি,আর বরাদ্দ

৩০.০০০ মেঃটন

 ০৬

দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা  ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়-টি,আর বরাদ্দ

৩৭.০০০ মেঃটন

০৭

অতিদরিদ্রদের জন্য কর্মসংস্থান কর্মসূচী-২য় পর্যায়

১৫৪৭ টি কার্ড= ১,২৩,৭৬,০০০/-

 

১। প্রকল্পগুলো যথাযথভাবে সম্পন্ন হয়েছে কিনা, তা পরিদর্শন করে প্রতিবেদন দিবেন।

উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা

এবং চেয়ারম্যান

(সকল) ইউ. পি ও ট্যাগ অফিসার

 

৩.৮

উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা বিভাগঃউপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার সভায় জানান যে, ১। অর্ধবার্ষিক পরীক্ষা সুন্দরভাবে সমাপ্ত হয়েছে। ২। ৮ম শেণী ও দশম শ্রেণীর কোচিং অব্যাহত আছে। ৩। ডিজিটাল কন্টেন্ডতৈরীর জন্য স্কুল এবং কলেজের শিক্ষকদের সাবজেক্টওয়ারী পর্যায়ক্রমে      তে প্রশিক্ষণ চলছে। ৪। গত ২০/০৬/২০১৫ ইং তারিখ রোজ শনিবার অটিজম শিশুদের অভিভাবক, প্রধান শিক্ষক, মহিলা শিক্ষক  এবং মহিলা মেম্বারদের নিয়ে ১দিনের কর্মশালা অনুষ্ঠিত হয়েছে। উক্ত অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার, সদর, মুন্সীগঞ্জ, প্রধান অতিথি ও বিশেষ অতিথি উপজেলা চেয়ারম্যান ও ভাইস- চেয়ারম্যান (মহিলা)। ৫। স্কুল, কলেজ ও মাদ্রাসার         এর কার্যক্রম এখন থেকে উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কার্যালয় থেকে              এর মাধ্যমে সমাপন করতে হবে। ৬। উচ্চ মাধ্যমিক পর্যায়ে উপবৃত্তি প্রদান মোবাইল ব্যাংকের মাধ্যমে ছাত্র-ছাত্রীদের মোবাইলে প্রদান করা হবে এ বিষয়ে কলেজগুলোতে কাজ চলছে। এছাড়া দাপ্তরিক কাজ সুষ্ঠুভাবে চলছে।  

১। যেসকল মাধ্যমিক  শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে সরকার কর্তৃক মাল্টিমিডিয়া সরবরাহ করা হয়েছে , সেসকল প্রতিষ্ঠানে  নিয়মিত মাল্টিমিডিয়া ক্লাস নেয়া হয় কিনা, তা মনিটরিং করার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার

 

৩.৯

উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা বিভাগঃ উপজেলা শিক্ষা অফিসার বলেন, মুন্সীগঞ্জ সদর উপজেলার সকল সরকারি প্রাথমিক  বিদ্যালয়সমূহে গ্রীষ্মকালীন অবকাশ ও পবিত্র মাহে রমজান উপলক্ষ্যে ছুটি গত ১৫/০৬/২০১৫ ইং তারিখ থেকে  শুরু হয়ে ২৪/০৭২০১৫ ইং তারিখ পর্যন্ত চলবে। বর্তমানে বিদ্যালয়গুলোতে পঞ্চম শ্রেণীর শিক্ষার্থীদের বিশেষ পাঠদান কার্যক্রম চলমান রয়েছে। উপজেলার ৯টি ইউনিয়নের সর্বমোট ৯২টি বিদ্যালয়ে উপবৃত্তি বিতরণ কার্যক্রম (৩য় ও ৪র্থ কিস্তি একত্রে) গত ১৪/০৬/২০১৫ ইং তারিখ থেকে শুরু হয়েছে এবং বিতরণ কার্যক্রম ২২/০৬/২০১৫ ইং তারিখ শেষ হবে। বিতরণ কার্যক্রম চলমান এবং সুষ্ঠুভাবে বিতরণ হচ্ছে। উপজেলার অন্যান্য কার্যক্রমের মধ্যে সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষকদের ৫টি ব্যাচে ৩০জন শিক্ষকের প্রশিক্ষণ           পিটিআই কেন্দ্রে চলমান রয়েছে। উপজেলায় এ ইউ ইও গনের প্রশিক্ষণ ও চলমান রয়েছে এবং অফিস স্টাফও প্রশিক্ষণে আছেন। অর্থাৎ বিভিন্ন প্রশিক্ষণ অব্যাহত রয়েছে। এছাড়া  অন্যান্য কার্যক্রম সুষ্ঠুভাবে চলছে।  

১। প্রাথমিক বিদ্যালয়সমূহের কার্যক্রম তদারকি করে প্রতিমাসের ০৩ তারিখের মধ্যে প্রতিবেদন দিবেন।

১। উপজেলা প্রাথমিকশিক্ষা অফিসার

২। সহকারী প্রাথমিক শিক্ষা অফিসারগণ।

 

৩.১০

উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা বিভাগঃ  উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা  তার বিভাগের কার্যক্রম তুলে ধরেন।  খাবার বড়ি বিতরন -২৩,২২২ কনডম বিতরন -৩৮,৫২৪ ইনজেকটেবলঃ ভায়াল- ২,১৪৪ সিরিঞ্জ-২৩৪৬ আই ইউ ডিঃ স্বাভাবিক-২০ প্রসব পরবর্তী - নাই, খুলে ফেলা-৫ টি, ইমপস্ন্যান্টঃ নতুন - ৫, খুলে ফেলা - ০৯ ইসিপি  (ডোজ)- নাই,  স্থায়ী পদ্ধতিঃ পুরুষ- নাই,  মহিলা স্বাভাবিক - নাই, প্রসব পরবর্তী - ২৯ জন, মোট ২৯ জন। সক্ষম দম্পতি ৭৭,২৪৩ জন। CAR = ৭১.১২% ।

১। জনসংখ্যা নিয়ন্ত্রণে স্থায়ী ও দীর্ঘমেয়াদী পদ্ধতি বাড়ানোর সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

 উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা

 

৩.১১

মহিলা বিষয়ক বিভাগঃউপজেলা মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তা সভায় অনুপস্থিত থাকায় তার বিভাগের কার্যক্রম সম্পর্কে আলোচনা করা গেল না।

 

 

 

৩.১২

উপজেলা যুব উন্নয়ন বিভাগঃউপজেলা যুব উন্নয়ন কর্মকর্তা  সভায় অনুপস্থিত থাকায়  তার বিভাগের কার্যক্রম সম্পর্কে আলোচনা করা গেল না।

 

 

 

৩.১৩

জনস্বাস্থ্য প্রকৌশল বিভাগঃউপ-সহকারী প্রকৌশলী জনস্বাস্থ্য বিভাগ সভায় জানান যে, তার বিভাগের কার্যক্রম সুষ্ঠুভাবে চলছে। বিভাগীয় কাজের ধারা  নিম্নরূপঃ

 

 বিশেষ গ্রামীণ পানি সরবরাহ প্রকল্পঃ

নং

এডিপি

স্থান নির্ধারণ

সহায়ক চাঁদা

অগ্রগতি

 

মন্তব্য

 

০১.

২০১২-২০১৩

  ২০১৩-২০১৪ অর্থবছর

কেরিড ওভার

সাধারণ বরাদ্দ

৬নং গভীর নলকূপ

তারা গভীর নলকূপ

মোট

 

৬ নং গভীর নলকূপ

তারা গভীর নলকূপ

মোট

 

 

 

 

২০

২০

৪০

---

---

---

৪০ টি

৪০ট

৪০ টি

 

 

PEDPএর আওতায় WASH BLOCK নির্মাণ ও গভীর নলকূপ স্থাপনঃ

নং

বরাদ্দ

মোট

অগ্রগতি

মন্তব্য

২০১২-২০১৩

২০১৩-২০১৪

      ২০১৩-২০১৪

১.

WASH BLOCK

গভীর নলকূপ

WASH BLOCK

গভীর নলকূপ

WASH BLOCK

গভীর নলকূপ

WASH BLOCK

গভীর নলকূপ

 

২১

৪২

৩৪

--

৫৫ টি

৪২ টি

৫৪

৪২

 

 

১। যে সকল প্রাথমিক বিদ্যালয়ে টিউবওয়ের নেই বা নষ্ট হযে গেছে, সেসব বিদ্যালয়ের জন্য টিউবওয়েল চেযে মন্ত্রণালয়ে পত্র দেওয়ার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

উপজেলা জনস্বাস্থ্য প্রকৌশল বিভাগ।

 

৩.১৪

সমবায় বিভাগঃউপজেলা সমবায় কর্মকর্তা সভায় তার বিভাগের কার্যক্রম তুলে ধরেন।

(ক) অডিট অগ্রগতির তথ্যঃ

নং

সমিতির শ্রেনী

সমিতির সংখ্যা

অডিট যোগ্য সমিতির সংখ্যা

অডিট সমাপ্তির সংখ্যা

মোট দাখিলের

সংখ্যা

মোট দাখিলের

বাকী

অডিট অসমাপ্তির

সমিতির সংখ্যা

১.

কেন্দ্রীয় সমিতি বিভাগীয়

৫ টি

৫ টি

০৫টি

০৫টি

-

--

২.

কেন্দ্রীয় সমিতি পউবো

২ টি

২ টি

০২টি

০২টি

-

--

৩.

প্রাথমিক বিভাগীয়

১৮৫ টি

১৮৫ টি

১৮৫ টি

১৭৩ টি

১২ টি

   --

৪.

প্রাথমিক পউবো

২৫০ টি

২৫০ টি

১৩৪ টি

১৩৪ টি

---

১১৬ টি

 

মোট

৪৪২ টি

৪৪২ টি

৩২৬ টি

৩১৪ টি

১২ টি

  ১১৬ টি

 

১। উৎপাদনমুখী সমবায় সমিতি নিবন্ধন করতে হবে এবং নিবন্ধিত সমবায় সমিতির কার্যক্রম মনিটরিং অব্যাহত রাখতে হবে।

 উপজেলা সমবায় অফিসার।

 

 

৩.১৫

পল্লী উন্নয়ন বোর্ডঃউপজেলা পল্লী উন্নয়ন অফিসার জানান, এ পর্যন্ত ১। চলতি মাসে ঋণ বিতরন :  ২,৭৫,০০০/- টাকা। ২। মোট ঋণ বিতরনঃ ১৫,৩৯,১৭,০০০/- টাকা ৩। চলতি মাসে ঋণ আদায়ঃ ৫,৯৬,০০০/- টাকা। ৪। মোট ঋণ আদায়ঃ ১৩,৮৫,৮২,০০০/ টাকা  ৫। আদায়ের হার : ৯০% ৫। মোট সঞ্চয় আদায়ঃ ৬৬,৫৩,০০০/- টাকা।

একটি  বাড়ি একটি খামার প্রকল্পের কার্যক্রমঃ ক. চলতি মাসে ঋণ বিতরনঃ ১০,৬৫,০০০/- টাকা। খ. মোট ঋণ বিতরনঃ ৩,০১,২২,০০০/- টাকা। গ. চলতি মাসে ঋণ আদায়ঃ ৫,৬৩,০০০/-টাকা ঘ. মোট ঋণ আদায়ঃ ১,১৪,৫৭,০০০/- টাকা  ঙ. মোট সঞ্চয় আদায়ঃ ১,৫৭,৩৬,০০০/-

 

১। ঋণের কিস্তি আদায়ে আরো তৎপর হওয়ার সিদ্ধান্ত  গৃহীত হয়।

২। একটি বাড়ি একটি খামারের মাসিক তথ্য উপস্থাপনের সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

উপজেলা পল্লী উন্নয়ন কর্মকর্তা, মুন্সীগঞ্জ

 

 

৩.১৬

উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক অফিসঃ উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক, সভায়  অনুপস্থিত থাকায়  তার বিভাগের কার্যক্রম সম্পর্কে আলোচনা করা গেল না। 

 

 

 

 

৩.১৭

বি এ ডিসি (সেচ):সিনিয়র উপ-সহকারী প্রকৌশলী সভায় তার বিভাগের কার্যক্রম তুলে ধরেন। গত ২০১২-১৩ সনে মুন্সীগঞ্জ সদর উপজেলার চরকেওয়ার ইউনিয়নের পিছামারা খালটির ১.৫০ কিঃমিঃ পুণঃখনন করা হয়েছে। তাছাড়া আধারা ইউনিয়নের ভাসানচর মৌজায় ২-কিউসেক এলএলপি স্কীমে ডিসচার্জবক্সসহ পাকা সেচনালা নির্মাণ ০১টি ও একই ইউনিয়নের দাইমী মৌজায় ২- কিউসেক এল এলপি স্কীমে পাকা সেচনালা নির্মাণ ০১টি। গত ২০১৩-১৪ সনে চরকেওয়ার ইউনিয়নের হোগলাকান্দি জলার খালটির ১.৫০ কিঃমিঃ পূণঃখনন করা হয়েছে। উক্ত সনে কোন পাকা সেচনালা নির্মাণ করা হয়নি। চলতি ২০১৪-১৫ সনে আধারা ইউনিয়নের খালাসীকান্দি খালটির ১.৫০ কিঃমিঃ  পুণঃখনন সম্পন্ন করা হয়েছে। একই ইউনিয়নের বকুলতলা খালটির ১.৫০ কিঃমিঃ পূণঃখনন শেষ হয়েছে। তাছাড়া বাংলাবাজার ইউনিয়নের বড়খালটির ১.৫০ কিঃমিঃ খাল পুণঃখনন শেষ হয়েছে। আধারা ইউনিয়নের চরআব্দুল্লাহ (দক্ষিণ) মৌজায় ২- কিউসেক এলএলপি স্কীমে ডিসচার্জবক্সসহ  পাকা সেচনালা নির্মাণ করা হয়েছে ০১টি। ০৫টি পাম্পিং সেট ক্ষেত্রায়ন করা হয়েছে। এছাড়া বিভাগীয় অন্যান্য কার্যক্রম সুষ্ঠুভাবে চলছে।                           

 

 উচ্চতর উপ-সহকারী প্রকৌশলী (ক্ষুদ্র সেচ)

 

৩.১৮

উপজেলা নির্বাচন বিভাগঃউপজেলা নির্বাচন অফিসার সভায় জানান, উপজেলা নির্বাচন অফিসের দৈনন্দিন কার্যক্রম সুষ্ঠু ও  সুন্দরভাবে চলছে।তিনি আরও জানান যে,চতুর্থ উপজেলা পরিষদের সংরক্ষিত আসনের মহিলা সদস্র পদের নির্বাচন আগামী ১৫/০৬/২০১৫ ইং তারিখে অনুষ্ঠিত হবে।

এবিষয়ে সকলেল সার্বিক সহযোগিতা কামনা করেন।

 

 

 

৩.১৯

উপজেলা আনসার ও ভিডিপিঃ  উপজেলা আনসার ও ভিডিপি কর্মকর্তা  সভায় অনুপস্থিত থাকায়  তার বিভাগের কার্যক্রম সম্পর্কে আলোচনা করা গেল না।

 

 

 

৩.২০

উপজেলা পরিসংখ্যান বিভাগঃ ১) ধলাগাও বাজার ও মুন্সিগঞ্জ বাজার হতে দরছক পূরণ পূর্বক জেলা পরিসংখ্যান অফিসে প্রেরণ করা হয়েছে।

 ২) এমএসভিএসবি এর তথ্য সংগ্রহ করে জেলা পরিসংখ্যান্অফিসে প্রেরণ করা হয়েছে।

৩) বিভিন্ন ফসলের আনুমানিক হিসাব জেলা পরিসংখ্যান অফিসে প্রেরণ করা হয়েছে।

৪) মাসিক কৃষি মজুরির তথ্য সংগ্রহ করে জেলা পরিসংখ্যান অফিসে প্রেরণ করা হয়েছে।

 ৫) এছাড়া বিভাগীয় নিয়মিত অন্যান্য কাজ সুষ্ঠুভাবে চলছে। বিভাগীয় কাজে কোন সমস্যা নাই ।

১। এ ধারা অব্যাহত রাখার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

 উপজেলা পরিসংখ্যান কর্মকর্তা

 

      

 

৩.২১

পল্লী দারিদ্র্য বিমোচন ফাউন্ডেশনঃপল্লী দারিদ্র্য বিমোচন কর্মকর্তাতার দপ্তরের বিভাগীয় কার্যক্রম তুলে ধরেন।

 

 

 

ঋণ বিতরণ ও আদায় বিবরণঃ

ঋণের প্রকার

মাসে

বছরে

ক্রমপুঞ্জিত

ঋণ বিতরন

(লক্ষ টাকায়)

ঋণ আদায়

(লক্ষ টাকায়)

আদায়ের

হার

ঋণ বিতরন

(লক্ষ টাকায়)

ঋণ আদায়

(লক্ষ টাকায়)

আদায়ের

হার

ঋণ বিতরন

(লক্ষ টাকায়)

ঋণ আদায়

(লক্ষ টাকায়)

আদায়ের

হার

 

১. ক্ষুদ্র ঋণ

২. ক্ষুদ্র  উদ্যোক্তা ঋণ

 ৪.১৮

 ৪.৩০

৪.১৮

১.৫৩

১০০%

১০০%

৪১.৮৬

 ১৯.০০

 ৩৭.৪৯

 ১৬.৩৯

১০০%

১০০%

৬৪.৩৬

৩৩.৭০

৪৭.২৭

২১.৭৬

 

১০০%

 

১০০%

 

মোট

৮.৪৮

৫.৭১

১০০%

৬০.৮৬

৫৪.৮০

১০০%

৯৮.০৬

৬৯.০৩

১০০%

 

০১। সমিতি গঠনঃ ২০ টি, ০২। মোট  সদস্য ভর্তি : ৪৭২ জন, ০৩। মোট সঞ্চয় জমাঃ ১২.৭২ লক্ষ টাকা, ০৪। মোট সোনালী সঞ্চয় জমাঃ ৭.১১ লক্ষ টাকা ,০৫। মোট মেয়াদীসঞ্চয় জমাঃ ১.০০ লক্ষ, ০৬। মোট ক্ষুদ্র উদ্যোক্তা সদস্যঃ ১৬ জন।

 

 

 

উপজেলা পরিষদের রাজস্ব তহবিল : উপজেলা পরিষদের নিম্নবর্ণিত ব্যয় সর্বসম্মতিক্রমে অনুমোদনের জন্য উপস্থাপন করা হলো।                                           

            (০১) আনুসঙ্গিক-১৯০০/- টাকা

            (০২) আপ্যায়ন বাবদ-৪৯০০/- টাকা

            (০৩) ব্যাটারী -৮৫০০/- টাকা

            (০৪)  টিউবওয়েল মেরামত ১৫০০/- টাকা।

(০৫) তালা-৮৩০ টাকা।

(০৬) ইন্টারনেট-৫০০/- টাকা।

(০৭) পাম্পের মবিল -২০০/-টাকা।

(০৮) উপজেলা চেয়ারম্যান মহোদয়ের অফিস কক্ষের তালা ও ট্যাব ক্রয়- -৫৭০/- টাকা।

          (০৯) মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক বই ক্রয়-১৫০০০/-

 

 

 

 

চেয়ারম্যান,উপজেলা পরিষদ,মুন্সীগঞ্জ সদর ও সভাপতি উপজেলা পরিষদ মাসিক সভা, বলেন, উচ্চতর সহকারী প্রকৌশলী, বিএডিসি  (সেচ)  মাসিক সভায় উপস্থিত থাকেন না। যিনি ভারপ্রাপ্ত আছেন তিনি নিয়মিত সভায় থাকেন না। চেয়ারম্যান, উপজেলা পরিষদ এবং উপজেলা নির্বাহী অফিসার এর সাথে বিএডিসি (সেচ) কর্মকর্তা দাপ্তরিক উন্নয়নমূলক কর্মকান্ডে মতবিনিময় করেন না। এজন্য তিনি জেলা পর্যায়ে লিখিতভাবে জানানোর জন্য উপজেলা নির্বাহী অফিসারকে অনুরোধ করেন। তাছাড়া প্রতিটি  বিভাগের কর্মকর্তাগণকে মাসিক সভায় উপস্থিত থাকার জন্য অনুরোধ করেন।  তিনি উপজেলা পরিষদের  সকল কর্মকর্তগণকে দায়িত্বশীলভাবে কাজ করার অনুরোধ জানান। অতঃপর আর কোন আলোচনা না থাকায় সভাপতি সকলকে ধন্যবাদ জানিয়ে সভার সমাপ্তি ঘোষণা করেন।

 

 

 

 

                   (আনিছ উজ্জামান)

চেয়ারম্যান

 উপজেলা পরিষদ,

সভাপতি, উপজেলা পরিষদ  মাসিক সভা

মুন্সীগঞ্জ সদর, মুন্সীগঞ্জ।

 

স্মারক নং-  ০৫.৩০.৫৯৫৬.০০৬.০১.০০১.১১-           (৫০)                                                  তারিখঃ          /২০১৫ খ্রিঃ

 

        অনুলিপি অবগতি ও প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য প্রেরণ করা হলোঃ

 

০১. মেয়র, মুন্সীগঞ্জ/মিরকাদিম পৌরসভা, মুন্সীগঞ্জ সদর, মুন্সীগঞ্জ।

০২. উপজেলা ...................................................অফিসার, মুন্সীগঞ্জ সদর।

০৩. চেয়ারম্যান ...............................................ইউনিয়ন পরিষদ (সকল), মুন্সীগঞ্জ সদর।

 

স্মারক নং- ০৫.৩০.৫৯৫৬.০০৬.০১.০০১.১১-                                                                    তারিখঃ          /২০১৫খ্রিঃ

 

  অনুলিপি সদয় অবগতির জন্য প্রেরণ করা হলো।                                                                                                              

 

০১. মাননীয় সংসদ সদস্য,মুন্সীগঞ্জ-০৩।

০২. সিনিয়র সচিব, স্থানীয় সরকার,পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয়,বাংলাদেশ সচিবালয়, ঢাকা।

০৩. জেলা প্রশাসক, মুন্সীগঞ্জ।

০৪. জেলা হিসাব রক্ষণ অফিসার, মুন্সীগঞ্জ।

 

 

উপজেলা নির্বাহী অফিসার

মুন্সীগঞ্জ সদর, মুন্সীগঞ্জ।

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার

উপজেলা নির্বাহী অফিসারের কার্যালয়

মুন্সীগঞ্জ সদর, মুন্সীগঞ্জ।

 

স্মারক নং-০৫.৩০.৫৯৫৬.০০৬.০১.০০১.১৫-                                             তারিখঃ     /০৭/২০১৫ খ্রিঃ

 

‘‘নোটিশ’’

 

 

অনিবার্যকারণবশত মুন্সীগঞ্জ সদর উপজেলার জুন/২০১৫ মাসের আইন-শৃংখলা কমিটির সভা  আগামী ২৮/০৭/২০১৫ তারিখের পরিবর্তে ২৯/০৭/২০১৫ তারিখ সকাল ১০.০০ ঘটিকায় উপজেলা পরিষদ সভাকক্ষে অনুষ্ঠিত হবে।    উক্ত  সভায় নির্ধারিত তারিখ ও সময়ে উপস্থিত থাকার জন্য অনুরোধ করা হলো।

 

 

 

 

 

 

প্রাপক..................................................

 

       ..................................................

          মুন্সীগঞ্জ সদর, মুন্সীগঞ্জ।

 

      

(শারাবান তাহুরা)

উপজেলা নির্বাহী অফিসার

মুন্সীগঞ্জ সদর,মুন্সীগঞ্জ।

unomunshiganjsadar@yahoo.com

ফোনঃ ৭৬১২১৩৩

ফ্যাক্সঃ ৭৬১০৫৫৩

 

 

অনুলিপিঃ সদয় জ্ঞাতার্থে ও কার্যার্থে

            ০১। মাননীয় সংসদ সদস্য, মুন্সীগঞ্জ -৩ আসন।

            ০২। জেলা প্রশাসক, মুন্সীগঞ্জ।

            ০৩। পুলিশ সুপার, মুন্সীগঞ্জ।

            ০৪। চেয়ারম্যান, উপজেলা পরিষদ, মুন্সীগঞ্জ সদর, মুন্সীগঞ্জ।

            ০৫। মেয়র, মুন্সীগঞ্জ/মিরকাদিম পৌরসভা, মুন্সীগঞ্জ।

            ০৬। জনাব আমির হোসেন গাজী, ভাইস চেয়ারম্যান, মুন্সীগঞ্জ সদর উপজেলা পরিষদ।

            ০৭। বেগম মেহেরুন নেছা (নাজমা) মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান, মুন্সীগঞ্জ সদর উপজেলা পরিষদ।

            ০৮। উপজেলা................................................................. অফিসার,  মুন্সীগঞ্জ সদর, মুন্সীগঞ্জ।

            ০৯। অফিসার ইন-চার্জ, সদর থানা, মুন্সীগঞ্জ।

            ১০। চেয়ারম্যান,...................................... ইউনিয়ন পরিষদ, মুন্সীগঞ্জ সদর উপজেলা ও সদস্য।উপজেলা পরিষদ

মুন্সীগঞ্জ সদর, মুন্সীগঞ্জ

মুন্সীগঞ্জ সদর উপজেলা পরিষদের জুলাই / ২০১৫ মাসে অনুষ্ঠিত মাসিক সভার কার্যবিবরণী।

আলোচ্য মাস- জুন / ২০১৫

 

সভাপতি     :

 

 

জনাব মোঃ আনিছ উজ্জামান

চেয়ারম্যান, উপজেলা পরিষদ,

মুন্সীগঞ্জ সদর, মুন্সীগঞ্জ।

স্থান           :

উপজেলা পরিষদ সম্মেলন কক্ষ।

তারিখ ও সময়ঃ

২৯.০৭.২০১৫ খ্রিঃ বেলা ১২.০০ ঘটিকা

 

(সভায় উপস্থিত সদস্যদের তালিকা পরিশিষ্ট -‘ক’ )

( সভায় অনুপস্থিত সদস্যদের তালিকা পরিশিষ্ট-‘খ’)

 

সভাপতি উপস্থিত সকলকে স্বাগত জানিয়ে সভার কাজ শুরু করেন।  সভাপতি গত সভার কার্যবিবরণী পাঠ ও অনুমোদনের জন্য সকলকে আহবান জানান। 

আলোচ্যসূচি-০১: বিগত সভার কার্যবিবরণী পাঠ ও অনুমোদন- বিগত সভার কার্যবিবরণী পাঠ করে শুনানো হয় এবং তা যথাযথভাবে উপস্থাপিত হওয়ায় সর্বসম্মতিক্রমে অনুমোদন করা হয়।

আলোচ্যসূচি-০২: বিগত সভায় গৃহীত সিদ্ধান্ত বাস্তবায়ন ও অগ্রগতি পর্যালোচনা।

নং

বিভাগ

সিদ্ধান্ত

অগ্রগতি

০১

 উপজেলা স্বাস্থ্য বিভাগ

০১। কমিউনিটি ক্লিনিক এবং ইউনিয়ন স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ কেন্দ্রের সকল কাজ নিয়মিত মনিটরিং করতে হবে। ০২। উপজেলা স্বাস্থ্য কমপেস্নক্সে সেবার মান বৃদ্ধি করতে হবে।

০১। কার্যক্রম চলমান আছে।

০২

উপজেলা কৃষি বিভাগ

 

০১। বিশেষ কর্মসূচী ও মাননীয় প্রধানমন্ত্রী কর্তৃক নির্দেশিত কার্যক্রম বাস্তবায়নের জন্য গুরুত্ব দিতে হবে।

০১। কার্যক্রম চলমান আছে।

০৩

উপজেলা প্রাণীসম্পদ বিভাগ

 

০১। ১০০ জন খামারীর হাতে কলমে প্রশিক্ষণ প্রদান ও প্রয়োজনীয় ঔষধ  ও প্রতিষেধক টিকা সরবরাহের সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

 

০২। কার্যক্রম চলমান আছে

০৪

উপজেলা প্রকৌশল বিভাগ

০১। সভায় বিস্তারিত আলোচনা হয়। আলোচনামেত্ম সংশ্লিষ্ট ঠিকাদারের কার্যাদেশ  বাতিলসহ ১ বছরের জন্য কালোতালিকাভূক্ত করার সর্বসম্মত  সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।  

০১। চলমান আছে।

০৫

 উপজেলা সমাজসেবা বিভাগ

০১। ক্ষুদ্রঋণ আদায়ের হার ১০০% নিশ্চিত করতে হবে।

০২। ভাতা বিতরন ও ক্ষুদ্র ঋণ কার্যক্রম সহ অন্যান্য  কার্যক্রম সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন করতে হবে।

০৩। আগামী সভার পূর্বে প্রতিবন্ধী ভাতাপ্রাপ্তদের ডাটাবেজ তৈরী এবং প্রতিটি আবেদন সকল কাগজপত্র সহ উপজেলা নির্বাহী অফিসার এর নিকট উপস্থাপন করতে হবে।

০১। চলমান আছে।

০৬

উপজেলা দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা  বিভাগ

০১। প্রকল্পগুলো যথাযথভাবে সম্পন্ন হয়েছে কিনা তা পরিদর্শন করে প্রতিবেদন দিবেন।

০১। কার্যক্রম চলমান আছে।

০৭

উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা বিভাগ

০১। যেসকল মাধ্যমিক শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে সরকার কর্তৃক মাল্টিমিডিয়া সরবরাহ করা হয়েছে, সেসকল প্রতিষ্ঠানে নিয়মিত মাল্টিমিডিয়া ক্লাস নেয়া হয় কিনা, তা মনিটরিং করার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।    

০১। মনিটরিং অব্যাহত আছে।

০৮

উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা বিভাগঃ 

০১। প্রাথমিক বিদ্যালয় সমূহের কার্যক্রম তদারকি করে প্রতিমাসের ০৩ তারিখের মধ্যে প্রতিবেদন দিবেন।

০১। কার্যক্রম চলমান আছে।

০৯

উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা বিভাগ

 

০১।  জনসংখ্যা নিয়ন্ত্রণে স্থায়ী ও দীর্ঘ মেয়াদী  পদ্ধতি বাড়ানোর সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

০১। অব্যাহত আছে।

১০

জনস্বাস্থ্য প্রকৌশল বিভাগ

 

০১। যে সকল প্রাথমিক বিদ্যালয়ে টিউবওয়েল নেই বা নষ্ট হয়ে গেছে সেসব বিদ্যালয়ের জন্য টিউবওয়েল চেয়ে মন্ত্রণালয়ে পত্র দেয়ার  সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

০১। কার্যক্রম চলমান আছে।

১১

 

পল্লী উন্নয়ন বোর্ড

০১। ঋণের কিস্তি আদায়ে আরো তৎপর হওয়ার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

০২। একটি বাড়ি একটি খামারের মাসিক তথ্য উপস্থানের সিদ্ধান্ত গৃহীত

হয়।

০৩। খরচ বাবদ ১,৮০,০০০/-টাকা অনুমোদন করা হলো এবং বাকী ১,৮০,৫৫৭/১০ বিআরডিবির হিসাবে ও অবশিষ্ট ২০,০৬১/৯০ টাকা রাজস্ব খাতে জমা করার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

০১। চলমান আছে।

১২

বি এ ডিসি  (সেচ)

০১। গত ১৯১২-১৩,১৯১৩-১৪ ও ১৯১৪-১৫ অর্থ বছরে যে কয়টি খাল  ও সেচনারা তৈরী হয়েছে, তার তালিকা আগামী সভায় উপস্থাপনেরসিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

০১। চলমান আছে।

১৩

উপজেলা নির্বাচন বিভাগ

এ ধারা অব্যাহত রাখার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

০১। চলমান আছে।

১৪

উপজেলা পরিসংখ্যান  বিভাগ

এ ধারা অব্যাহত রাখার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

০১। চলমান আছে।

 

আলোচ্যসূচি-০৩: বিভাগ ভিত্তিক আলোচনাঃ

নং

 

সিদ্ধান্ত

বাস্তবায়নে

 

৩.১

উপজেলা স্বাস্থ্য বিভাগঃউপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা সভায় জানান যে, চিকিৎসা সেবার মান উত্তরোত্তর বৃদ্ধির চেষ্টা অব্যাহত আছে। তিনি আরো জানান, সদর উপজেলায় উপ-স্বাস্থ্য কেন্দ্র-০২ টি । সেবা প্রাপ্ত রোগীর সংখ্যা : পুরুষ-১০৩৪ জন, মহিলা-১৩২৮ জন, শিশু-৪১০ জন, মোট = ২৭৭২ জন। চালুকৃত কমিউনিটি ক্লিনিকের সংখ্যা : ১৪ টি। রোগীর সংখ্যা- পুরুষ : ৩৪৫৮ জন, মহিলা : ৪৭৮০ জন, শিশু : ১৯১৪ জন, মোট = ১০১৫২ জন। শিশু জন্মের সংখ্যাঃ পুরুষ- ৩২২ জন, মহিলা -৩২৬ জন, মোট = ৬৪৮ জন। মৃত্যুর সংখ্যাঃ ০-৭ দিন = ০৯ জন, ০৮-২৮ দিন = ০৩ জন, ২৯ দিন-১ বৎসর = ১৪ জন, মৃত জম্মের সংখ্যা ০১ জন, ১-৫ বছরের মধ্যে = ১৫ জন। পানিতে ডুবে- ০১ জন ০৫ বছরের উর্দ্ধে = ৯৯ জন। ই,পি,আই কার্যক্রমঃ  বিসিজি ৮%, পেন্টা ৮%, পোলিও ৮%, এম,আর ৮%, হাম ৮%, টিটি ৮%। ডায়রিয়া রোগীর কার্যক্রমঃ নো- ডিহাইড্রেশনঃ  ১৩০৪ জন, সাম- ডিহাইড্রেশনঃ ৪ জন, সিভিয়ার ডিহাইড্রেশনঃ ০০ জন, মোট = ১৩০০ জন। টিবি রোগী (চিকিৎসাধীন) কার্যক্রমঃ পুরুষ ১৯ জন, মহিলা ৮ জন,শিশু-০১ জন মোট = ২৮ জন । কুষ্ঠ রোগী (চিকিৎসাধীন) কার্যক্রমঃ পুরুষ  ০৭ জন, মহিলা - ০৩ জন, শিশু - নাই, মোট = ১০ জন। আর্সেনিকোসিস রোগী (চিকিৎসাধীন) কার্যক্রমঃ পুরুষ - ১৩৮ জন, মহিলা - ১০১ জন, শিশু - নাই, মোট = ২৩৯ জন। তিনি আরো জানান,বর্তমানে নতুন কোন কার্যক্রম নেই।  

১। কমিউনিটি ক্লিনিক এবং ইউনিয়ন স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ কেন্দ্রের সকল কাজ নিয়মিত মনিটরিং করতে হবে।

২। উপজেলা স্বাস্থ্য কমপেস্নক্সে সেবার মান বৃদ্ধি করতে হবে।

 উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা অফিসার, মুন্সীগঞ্জ

 

 

 ৩.২

উপজেলা কৃষি বিভাগ :  উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা  তাঁর বিভাগের কার্যক্রম তুলে ধরেন। ফসল আবাদঃ খরিপ- ২ মৌসুমঃ আউশ আবাদ-১৭৩ হেক্টর,   বোনা আমন আবাদ- ৬৪৬৫ হেক্টর,  ধৈঞ্চা আবাদ- ৬২০ হেক্টর, শাক সব্জী আবাদ-১২৫ হেক্টর।

পাট কর্তনঃ পাট আবাদ হয়েছে-৫৩৭ হেক্টর, বর্তমানে কর্তন চলছে, এ যাবৎ ৪৩০ হেক্টর কর্তন হয়েছে।

কাইজেন থিমঃ ‘‘শাক সব্জী ও ফলমূলে ব্যবহৃত বালাইনাশক প্রিজারভেটিভ এবং রাইপেনার এর ক্ষতিকর প্রভাব দূর করার সহজ উপায় সম্পর্কে জনসচেতনতা বৃদ্ধিকরন’’ শিরোনামে ক্ষুদ্র উন্নয়ন কর্মসূচী কৃষি বিভাগে নেয়া হয়েছে। কর্মসূচী বাস্তবায়নে পোষ্টার ও লিফলেট তৈরী করে প্রদর্শন, ১২৮ টি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে আলোচনা ও ১৫০ টি সাধারণ দলীয় আলোচনা এবং ০৫ টি কৃষক প্রশিক্ষণ/মাঠ দিবসে বিষয়টি নিয়ে উদ্বুদ্ধকরণ কার্যক্রম চলমান আছে।

বৃক্ষরোপন কর্মসূচীঃ বর্তমানে বৃক্ষরোপন চলছে। লক্ষ্যমাত্রাঃ ফলজ-২১২২৫ টি, ঔষধি-১৪০৯ টি। এ পর্যন্ত ফলজ-১৩৬৪২ টি, ঔষধি-১৬১৩ টি অর্জিত হয়েছে। ফলজ বৃক্ষরোপন কার্যক্রম চলমান আছে।

 বিশেষ কর্মসূচী গ্রহণঃ বর্তমান মৌসুমে ২৭০০ টি আমচারা ক্যাফট গ্রাফটিং করে উন্নত জাতের চারা উৎপাদন করার লক্ষ্যমাত্রা গ্রহণ করা হয়েছে। এ পর্যন্ত ৮৫০ টি অর্জিত হয়েছে। অপ্রচলিত ফল তাল ও খেজুর প্রতি ব্লকে ৩০০ চারা/বীজ লাগানের কর্মসূচী গ্রহণ করা হয়েছে।

এ ছাড়াও মাননীয প্রধানমন্ত্রী কর্তৃক নির্দেশিত ২৭ টি বিশেষ কার্যক্রমের লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ পূর্বক কাজ যথারীতি এগিয়ে যাচ্ছে।   

সার,বীজ সরবরাহ ও মজুদ পরিস্থিতিঃ সার ও বীজের মজুদ সন্তোষজনক।

এ ছাড়াও বিভাগীয় নিয়মিত কার্যক্রম সুষ্ঠু ও স্বাভাবিকভাবে চলছে।

 

 

এছাড়া বিভাগীয় নিয়মিত কার্যক্রম সুষ্ঠু ও স্বাভাবিক ভাবে চলছে।

১।  মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনার ২৭ টি বিশেষ কর্মসূচী এবং অপ্রচলিত ফল তাল ও খেজুর চারা রোপনের কার্যক্রম বাস্তবায়নে সর্বোচ্চ গুরুত্ব দিতে হবে।

 উপজেলা কৃষি অফিসার

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

          

 

৩.৩

উপজেলা মৎস্য বিভাগঃ  সিনিয়র উপজেলা মৎস্য  অফিসার সভায় জানান, উপজেলার ৪টি মাছ বাজারে ফরমালিন বিরোধী অভিযান পরিচালনা করা হয়েছে। ৮ জন মাছ চাষীর পুকুর সরেজমিন পরিদর্শন করে তাদের বৈজ্ঞানিক পদ্ধতিতে মাছ চাষ করার পরামর্শ প্রদান করা হয়েছে। ০১টি মৎস্য খাদ্যের নমুনা গুণগত মান ও ভেজাল পরীক্ষার নিমিত্ত মৎস্য অধিদপ্তরের মান নিয়ন্ত্রণ ল্যাবে পাঠানো হয়েছে। বিগত ০২ মাস যাবৎ পাঠানো মৎস্য খাদ্যের নমুনায় কোন ভেজাল দ্রব্যাদি পাওয়া যায়নি। ‘‘সাগর নদী সকল জলে- মাছ চাষে সোনা ফলে’’ এই শেস্নাগানের মাধ্যমে ২৮/০৭/১৫ খ্রিঃ তারিখে মুন্সীগঞ্জ জেলার স্থানীয় গণ্যমান্য নেতা, ব্যক্তিবর্গ, মাছ চাষী, মৎস্যজীবি, জেলে, মাছ বিক্রেতা, সরকারী-বেসরকারী সংস্থার কর্মকর্তা/কর্মচারী এনজিও কর্মী এবং মিডিয়া কর্মীগণের অংশগ্রহণে মুন্সীগঞ্জ জেলা প্রশাসকের কার্যালয় হতে সড়ক র‌্যালীর শহর প্রদক্ষিণ শেষে শিল্পকলা একাডেমীতে জাতীয় মৎস্য সপ্তাহ’২০১৫ খ্রিঃ এর বর্ণাঢ্য শুভ উদ্বোধনী অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়। 

 

 

 

৩.৪

উপজেলা প্রাণীসম্পদ বিভাগঃ  উপজেলা প্রাণীসম্পদ কর্মকর্তা তার বিভাগীয় কার্যক্রম তুলে ধরেন। ০১। রোগ প্রতিরোধ ব্যবস্থা : (ক) গবাদি পশুর টিকাদানঃ ৪,৪৩৬ মাত্রা (খ) হাঁস মুরগীর টিকাদানঃ ৫২,৩০০ মাত্রা। (গ) গবাদি পশুর চিকিৎসাঃ ২৬০৩ টি (ঘ) হাঁস মুরগীর চিকিৎসাঃ ২৩,৬৭৬ টি (ঙ) কৃত্রিম প্রজননের সংখ্যাঃ ১,৫৫৪ টি (চ) বাচ্চা জন্মের সংখ্যাঃ (ক) এঁড়ে  : ৩১২ টি

                                                                            (খ) বকনা : ৩৫৬ টি

                                                                               মোট     : ৬৬৮ টি

সম্প্রসারণ কার্যক্রমঃ- (ক) ০১ দিনের মুরগীর বাচ্চা বিতরণঃ ৮৫,০০০ টি। (খ)  গাভীর খামার স্থাপনঃ  ০৩ টি। (গ) মুরগীর খামার স্থাপন = ০৬ টি, (ঘ) হাঁসের খামার স্থাপন-০১টি (ঙ) ছাগলের খামার স্থাপন-০২ টি (চ) ভেড়ার খামার স্থাপন -০৮ টি  (ছ) বিভাগীয় প্রশিক্ষণঃ ৬৯১ জন

(জ) ঘাসচাষ (একর)-৪.৭৫ একর।

রাজস্ব আয়ঃ- (ক) টিকাবীজ বিক্রয় বাবদ =১৩,৫৫০/ টাকা। (খ) কৃত্রিম প্রজনন ফি বাবদ = ৩৭,৫২৭/ টাকা। মোট আয় = ৫১,০৭৭/- টাকা। তিনি ধনী ব্যক্তিদের অধিক সংখ্যায় পশু কুরবাণী না করে   সীমিত কুরবাণী দেওয়ার জন্য অনুরোধ করেন।

 আসন্ন ঈদ-উল- আযহায় মোটাতাজাকরণ প্রাণিতে ষ্টেরয়েড ঔষধ এর ব্যবহার খামারীদের সম্পূর্ণ নি রুৎসাহিত বিষয়ে সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

উপজেলা প্রাণিসম্পদ কর্মকর্তা

 

৩.৫

উপজেলা প্রকৌশল বিভাগ :উপজেলা প্রকৌশলী সভায় জানান যে, বিগত ২০১৪-১৫ ইং অর্থ বছরে বার্ষিক উন্নয়ন কর্মসূচীর ‘‘আধারা জাজিরা বকচর রাস্তার জাজিরা মসজিদ হতে তোফাজুল গাজীর বাড়ী পর্যন্ত রাস্তা BFSদ্বারা উন্নয়ন’’ গ্রুপ নং-২৬ প্রকল্পটি বাদে অন্য সকল প্রকল্পের কাজ সুষ্ঠুভাবে সমাপ্ত হয়েছে।  কিন্তু জুন/২০১৫ইং মাসের সভার কার্যবিবরনীতে বাতিলকৃত ২৬নং প্যাকেজের ঠিকাদারের নাম  মেসার্স রুবিনা এন্টারপ্রাইজ, প্রোঃ মোঃ নাজমুল হুদা, কোর্টগাও, সদর মুন্সীগঞ্জ, ভূল ছাপা হয়েছে। যার প্রকৃতপক্ষে নাম হবে মেসার্স এইচ, আর, বি এন্টারপ্রাইজ,পোঃ মোঃ আবু হাছান ভূইয়া,মধ্য কোর্টগাও, সদর মুন্সীগঞ্জ। ব্যথ ঠিকাদারের কার্যাদেশ বাতিল ও ১ বছরের জন্য কালো তালিকাভূক্ত করার জন্য বিগত সভায় সর্বসম্মত সিদ্ধান্ত রয়েছে। তাছাড়া ২০১৫-২০১৬ইং অর্থ বছরের বাষিক উন্নয়ন কর্মসূচীর(এডিপি) প্রকল্পের তালিকা অতিসত্বর প্রদানের জন্য সকল ইউপি চেয়ারম্যানকে অনুরোধ জানানো হয়।

 উপজেলা প্রকৌশলী সভায় আরো জানান যে, প্রাথমিক শিক্ষা প্রকল্পের আওতায় চলমান ৫টি সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের নির্মাণ কাজ সমাপ্তির পথে। ইদ্রাকপুর ০১নং ও কেওয়ার সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় ০২টির সংশোধিত প্রশাসনিক অনুমোদন অদ্যাবধি পাওয়া যায়নি। পাওয়া গেলে বিদ্যালয় ০২টিতে e-gpতে দরপত্র আহববান করা হবে। অসচ্ছল মুক্তিযোদ্ধাদের বাসস্থান নির্মাণ প্রকল্পের আওতায় অনুমোদিত ৮টি বাসস্থানের মধ্যে ০৪টি বাসস্থানের বাস্তবায়নের প্রক্রিয়া চলমান রয়েছে। ১টি বাসস্থানের জন্য জমির সীমানা নিধারন জায়গা বুঝিয়ে না দেওয়ায় এবং ১টি প্রকল্পের জমি ভরাটের কাজ চলমান থাকায় প্রকল্পের কাজ শুরু করা যায়নি। অন্য ২টি বাসস্থানের নির্মান কাজের কার্যাদেশ পাওয়া গেলে কাজ শুরু করা হবে। তিনি  ২০১৫-২০১৬ অর্থবছরে সকল সম্মানিত                                                       চেয়ারম্যানগণকে প্রকল্প দাখিল করার জন্য অনুরোধ করেন যাতে আগামী মাসিক সভার আগে কার্যক্রম শুরু করা যায়।  .  

 

 

 

১। সভায় বিস্তারিত আলোচনা হয় ।কার্যবিবরনীরেত ভূলছাপা হওয়া মেসার্স রুবিনা এনাটারপ্রাইজ এর পরিবর্তে প্রকৃত ঠিকাদার মেসার্স এইচ আর বি এন্টারপ্রাইজ নাম সংশোধন এবং ২০১৫-২০১৬ অর্থ বছরে বাষিক উন্নয়ন কর্মসূচীর আওতায় প্রকল্পের তালিকা দাখিল করতে সকল ইউপি চেয়ারম্যানকে অনুরোধ করা হয়। ।

উপজেলা প্রকৌশলী

 

৩.৬

উপজেলা সমাজসেবা বিভাগঃউপজেলা সমাজসেবা কর্মকর্তা জানান, তাঁর বিভাগের কার্যক্রম সুষ্ঠুভাবে চলছে। বিভাগীয় কাজের ধারা নিম্নণরূপঃ

ঋণ বিতরণ ও আদায়ঃ

(1)     আর, এস,এস ক্ষুদ্র ঋণ কার্যক্রমের আওতায় আদায়যোগ্য অর্থের মধ্যে (মূল ও সার্ভিস চার্জ) সর্বমোট = ৯১৩০০/-(একানববই হাজার তিনশত) টাকা আদায় হয়েছে। আদায়ের হার ৯৮%। এছাড়া ক্ষুদ্র ঋণ বিতরণ করা হয়েছে আর,এস এস=৫০,০০০/- টাকা। 

(2)    এসিডদগ্ধ ও শারীরিক প্রতিবন্ধী ব্যক্তিদের পূনর্বাসন কার্যক্রমের আওতায় সর্বমোট =৯,৪৫০/- (নয় হাজার চারশত পঞ্চাশ) টাকা আদায় হয়েছে এবং ব্যাংকে জমা করা হয়েছে। বিতরণ করা হয়েছে =৭৫,০০০/-(পঁচাত্তর  হাজার) টাকা।

ভাতা কার্যক্রমঃ২০১৪-২০১৫ অর্থ বছরে বয়স্কভাতা, বিধবা ও স্বামী পরিত্যক্তা দুঃস্থ মহিলা ভাতা, অসচ্ছল প্রতিবন্ধী ভাতা ও প্রতিবন্ধী শিক্ষা উপবৃত্তির অর্থ ৩য় কিস্তি পর্যন্ত ১০০% বিতরণ সম্পন্ন হয়েছে। প্রতিবন্ধী সনাক্তকরণ জরীপ কাজ ১০০% সম্পন্ন হয়েছে, বর্তমানে পরিচয় পত্র প্রদানের লক্ষ্যে ডাটা এন্ট্রির কাজ চলমান আছে। অন্যান্য কার্যক্রমঃ সামাজিক কার্যক্রমের আওতায় বাল্য বিবাহ রোধ যৌতুক বিরোধী প্রচারনা, জলাবদ্ধ পায়খানা ব্যবহার,বৃক্ষরোপন,পুষ্টি,পরিবার পরিকল্পনা ইত্যাদি বিষয়ে লক্ষ্যভূক্ত পরিবারের সদস্যদের মধ্যে সচেতনতা সৃষ্টির লক্ষ্যে কার্যক্রম অব্যাহত আছে। চলমান মাসে ১টি বাল্য বিবাহ প্রতিরোধ করা হয়েছে।

১। ক্ষুদ্র ঋণ আদায়ের হার ১০০% নিশ্চিত করতে হবে।

২। ভাতা বিতরণ ও ক্ষুদ্র ঋণ কার্যক্রমসহ অন্যান্য কার্যক্রম সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন করতে হবে। 

উপজেলা সমাজ সেবা কর্মকর্তা, মুন্সীগঞ্জ।

 

৩.৭

উপজেলা দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা বিভাগঃ   উপজেলা দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা বিভাগঃ  উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়নকর্মকর্তা  সভায় জানান যে, তার বিভাগের কার্যক্রম সুষ্ঠুভাবে চলছে। টিআর/কাবিখা হতে সোলার প্যানেল স্থাপনের জন্য সরকারি নির্দেশনা মোতাবেক কার্যক্রম বাস্তবায়ন করা  হয়েছে মর্মে উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা জানান। তিনি সভায় আরো জানান ২০১৪-২০১৫ অর্থ বছরে ১ম পর্যায় সাধারণ/বিশেষ/টি,আর/কাবিখা/অতি দরিদ্রদের জন্য কর্মসূচী প্রকল্পের কাজের অগ্রগতির প্রতিবেদন নিম্নরূপঃ

নং

খাতের বিবরণ

বরাদ্দের পরিমাণ

০১

বিশেষ টি,আর, নির্বাচনী এলাকা- মুন্সীগঞ্জ-০৩, ১ম পর্যায়

১৭৫.০০০ মেঃ টন

০২

বিশেষ কাবিখা, নির্বাচনী এলাকা- মুন্সীগঞ্জ-০৩, ১ম পর্যায়

১৭৫.০০০ মেঃ টন

০৩

জনাব ফজিলাতুননেসা,সংসদ সদস্য, মহিলা আসন-২২,

টি,আর-১ম পর্যায়

১৫.০০০ মেঃ টন

০৪

জনাব ফজিলাতুননেসা,সংসদ সদস্য, মহিলা আসন-২২,

কাবিখা-১ম পর্যায়

১৬.০০০ মেঃ টন

০৫

সাধারণ টি,আর ১ম পর্যায়

১১৪.২০০ মেঃ টন

 ০৬

সাধারণ কাবিখা-১ম পর্যায়

১২৬.৭৮০ মেঃ টন

০৭

মুন্সীগঞ্জ পৌরসভা-১ম পর্যায়

২৮.০০৬৬ মেঃ টন

০৮

মিরকাদিম পৌরসভা- ১ম পর্যায়

    ১৬.৩৪৪ মেঃ টন

০৯

অতিদরিদ্রদের জন্য কর্মসংস্থান কর্মসূচী

২০০৫ টি কার্ড= ১,৬০,৪০,০০০/-

১০

কমলাঘাট আশ্রয়ন প্রকল্প

   ১১৮.২৩৩ মেঃটন

১১

পবিত্র ঈদ-উল -আযহা উপলক্ষ্যে ভিজিএফ

     ৮৯,৩০০ মেঃ টন

১২

জি,আর দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়/জেলা প্রশাসক হতে প্রাপ্ত

১১২.৭৬০ মেঃ টন

১৩

বিশেষ টি, আর দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয় হতে প্রাপ্ত

   ৩৭.০০০ মেঃ টন

 

নং

২য় পর্যায়

বরাদ্দের পরিমাণ

০১

বিশেষ টি,আর, নির্বাচনী এলাকা- মুন্সীগঞ্জ-০৩, ২য় পর্যায়

৩৬,০০,০০০/-

 ০২

বিশেষ কাবিখা, নির্বাচনী এলাকা- মুন্সীগঞ্জ-০৩, ২য় পর্যায়

৮৬,০০০ মেঃ টন

 ০৩

বিশেষ কাবিটা নির্বাচনী  এলাকা,   মুন্সীগঞ্জ-০৩, ২য় পর্যায়

   ১৮,৪০,০০০/-

 ০৪

জনাব ফজিলাতুননেসা,সংসদ সদস্য, মহিলা আসন-২২,

টি,আর-২য় পর্যায়

১০,০০,০০০/-

 ০৫

জনাব ফজিলাতুননেসা,সংসদ সদস্য, মহিলা আসন-২২,

কাবিখা-২য় পর্যায়

     ৪,৮০,০০০/-

 ০৬

সাধারণ টি,আর -২য় পর্যায়

২২,৮০,১১৯/-

 ০৭

মুন্সীগঞ্জ পৌরসভা-১ম পর্যায়

৫,৬০,১৩২/৬৯

 ০৮

মিরকাদিম পৌরসভা- ১ম পর্যায়

   ৩,২৬,৮৭৯/২১

 ০৯

সাধারণ কাবিখা ২য় পর্যায়

১২৬.৬১০২ মেঃটন

 ১০

বিশেষ টি,আর, নির্বাচনী এলাকা, মুন্সীগঞ্জ-০৩, ৩য় পর্যায়  

১৯,২৬,১৩৪/-

 ১১

বিশেষ কাবিটা, নির্বাচনী এলাকা- মুন্সীগঞ্জ-০৩, ৩য় পর্যায়

৬,০০,০০০/-

 ১২

জনাব ফজিলাতুননেসা,সংসদ সদস্য, মহিলা আসন-২২,

টি,আর-২য় পর্যায়

৬,০০,০০০/-

 

 

 

 ১৩

অতিদরিদ্রদের জন্য কর্মসংস্থান কর্মসূচী

১৫৪৭টি কার্ড=১,২৩,৭৬,০০০/-

১৪

চরবেহের পাড়া আশ্রয়ন প্রকল্পের সংযোগ সড়ক নির্মাণ

৫২,৪০০ মেঃ টন

১৫

পবিত্র ঈদ-উল-ফিতর উপলক্ষ্যে ভিজিএফ

৮৯,৩০০ মেঃটন

১৬

ঢেউটিন ও গৃহ নির্মাণ

 ১৫টি পরিবার

১৭

 সেতু/কালভার্ট নির্মাণ

৭০.৯০.৯০৭/=

১৮

বিশেষ টি,আর, জেলা প্রশাসক হতে প্রাপ্ত

৬৫,০০০মেঃটন

  তিনি প্রকল্পের কাজ দ্রুত সম্পন্ন করার জন্য ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যানগণকে অনুরোধ করেন।

১। প্রকল্পগুলো যথাযথভাবে সম্পন্ন হয়েছে কিনা, তা পরিদর্শন করে প্রতিবেদন দিবেন।

উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা

এবং চেয়ারম্যান

(সকল) ইউ. পি ও ট্যাগ অফিসার

 

৩.৮

উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা বিভাগঃউপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার সভায় জানান যে,মাধ্যমিক শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে জানুয়ারি-জুন/২০১৫ (১ম কিস্তির) উপবৃত্তি বিতরণ চলছে ও প্রতিষ্ঠানে ওয়েবসাইট খোলার কাজ সম্পন্ন হয়েছে। তিনি আরো জানান, গত ২৮/০৭/২০১৫ হতে মাল্টিমিডিয়ার ক্লাশ চলছে।  দাপ্তরিক কাজ সুষ্ঠুও সুন্দরভাবে চলছে। 

১। যেসকল মাধ্যমিক  শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে সরকার কর্তৃক মাল্টিমিডিয়া সরবরাহ করা হয়েছে , সেসকল প্রতিষ্ঠানে  নিয়মিত মাল্টিমিডিয়া ক্লাস নেয়া হয় কিনা, তা মনিটরিং করার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার

 

৩.৯

উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা বিভাগঃ উপজেলা শিক্ষা অফিসার বলেন, মুন্সীগঞ্জ সদর উপজেলার সকল সরকারি প্রাথমিক  বিদ্যালয়সমূহে গ্রীষ্মকালীন অবকাশ ও পবিত্র মাহে রমজান উপলক্ষ্যে বিদ্যালয়গুলো বন্ধ ছিল। বর্তমানে ২৫/৭/২০১৫ ইং তারিখ  বিদ্যালয় কার্যক্রম শুরু হয়েছে এবং কার্যক্রম ভালভাবে চলছে। আগামী ০২/৮/২০১৫ ইং তারিখ থেকে ২য় সাময়িক পরীক্ষা শুরু হয়ে ০৯/৮/২০১৫ ইং তারিখ শেষ হবে। সকল ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মহোদয়কে স্ব স্ব ইউনিয়নের বিদ্যালয়গুলো পরিদর্শন করে শিক্ষার গুণগতমান উন্নয়নের জন্য সার্বিক সহযোগিতা গ্রহণ করার জন্য অনুরোধ করেন।  মুক্তারপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের মাঠে জলাবদ্ধতার কারণে সুষ্ঠুভাবে বিদ্যালয় পরিচালনা করা যাচ্ছে না। জলাবদ্ধতা দূরীকরণের ব্যাপারে সংশ্লিষ্ট ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান মহোদয়কে সার্বিক সহযোগিতা করার জন্য বিশেষভাবে অনুরোধ করা হলো। বঙ্গবন্ধু ও বঙ্গমাতা প্রাথমিক বিদ্যালয় ফুটবল খেলা শ্রীঘ্রই শুরু হতে যাচ্ছে, ফুটবল খেলাকে উপভোগকরাসহ সার্বিক সহযোগিতা করার জন্য সকল সদস্যকে বিশেষভাবে অনুরোধ করা হলো।      এছাড়া  অন্যান্য কার্যক্রম সুষ্ঠুভাবে চলছে।  

১। প্রাথমিক বিদ্যালয়সমূহের কার্যক্রম তদারকি করে প্রতিমাসের ০৩ তারিখের মধ্যে প্রতিবেদন দিবেন।

১। উপজেলা প্রাথমিকশিক্ষা অফিসার

২। সহকারী প্রাথমিক শিক্ষা অফিসারগণ।

 

৩.১০

উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা বিভাগঃ  উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা  তার বিভাগের কার্যক্রম তুলে ধরেন।  খাবার বড়ি বিতরন -২৩,৫৫৫ কনডম বিতরন -৩৭,০৭৫ ইনজেকটেবলঃ ভায়াল- ২,৪২৭ সিরিঞ্জ-২৫৯৫ আই ইউ ডিঃ স্বাভাবিক-২৯ প্রসব পরবর্তী - নাই, খুলে ফেলা-১২ টি, ইমপস্ন্যান্টঃ নতুন -৮, খুলে ফেলা - ১২ ইসিপি  (ডোজ)- নাই,  স্থায়ী পদ্ধতিঃ পুরুষ- নাই,  মহিলা স্বাভাবিক - ২, প্রসব পরবর্তী - ৩২ জন, মোট ৩৪ জন। সক্ষম দম্পতি ৭৭,৪৯২ জন। CAR = ৭১ু% ।

১। জনসংখ্যা নিয়ন্ত্রণে স্থায়ী ও দীর্ঘমেয়াদী পদ্ধতি বাড়ানোর সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

 উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা

 

৩.১১

মহিলা বিষয়ক বিভাগঃ  ভিজিডি কর্মসূচির আওতায় ২০১৫-২০১৬ ভিজিডি চক্রের ৭২২ জন উপকারভোগীর মাঝে জুন-১৫ মাসের খাদ্য বিতরণ সম্পন্ন  হয়েছে। নতুন অর্থ বছরের খাদ্য শস্যের বরাদ্দ অদ্যবদি পাওয়া যায়নি। বরাদ্দ প্রাপ্তি সাপেক্ষ্যে বিতরণ করা হবে। 

মাতৃত্বকাল ভাতা প্রদান কর্মসূচিরআওতায় মোট ৪৩২ জন উপকারভোগীর জানুয়ারী হতে জুন-১৫ মাসের জন্য বরাদ্দকৃত ১২,৯৬০০০/- (বার লক্ষ ছিয়ানববই হাজার) টাকা উপকার ভোগীদের স্ব স্ব ব্যাংক হিসাবের মাধ্যমে বিতরণ চলমান রয়েছে। উপকার ভোগীদের সচেতনতামূলক প্রশিক্ষণ কার্যক্রম সম্পন্ন হয়েছে। মহিলাদের আত্মকর্মসংস্থানের জন্য ক্ষুদ্রঋন কার্যক্রমের আওতায় ৪৩ জন মহিলার মাঝে ৪,৭৫,০০০/-(চার লক্ষ পঁচাত্তর হাজার)টাকা বিতরণ করা হয়েছে। বিভাগের অন্যান্য কাজ স্বাভাবিক ভাবে চলছে।

 

 

 

৩.১২

উপজেলা যুব উন্নয়ন বিভাগঃউপজেলা যুব উন্নয়ন কর্মকর্তা  সভায় জানান, মুন্সীগঞ্জ সদর উপজেলা কার্যালয়ের শুরু/৯৭ইং থেকে জুন/২০১৫ ইং মাস পর্যন্ত তথ্যাদি নিম্নরূপঃ

ক্রং

বিবরণ

লক্ষ্যমাত্রা

চলতি মাস

অর্থবছর

ক্রম পুঞ্জিত

ভ্রাম্যমান প্রশিক্ষণ

 ৫৭০ জন

  ১২০ জন

৫৭০জন

৫৬৩১ জন

আত্বকর্মীর সংখ্যা

 ৩১৫ জন

    ৯০ জন

৪০১ জন

৪৪৯৪ জন

যুবঋণ বরাদ্দ

---

   ---

---

৩১,১৮,৮০০/-

যুব ঋণ বিতরণ

২৮,৮০,০০০

   ---

২০,৮০,০০০

২,০৭,৯৫,০০০/-

যুবঋণ গ্রহীতার সংখ্যা

---

   ---

 ৩৫ জন

৬৬৭ জন

আদায় যোগ্য টাকা

---

১২,৯৭,২৪৬/-

---

১,৮০,০৫,২০০/-

আদায়কৃত টাকা

---

২,১০,৩০০/-

২৪,৪২,৮০০/

১,৬৯,১৮,২৫৪/-

আদায়ের হার চলমান

---

৮০%

---

৯৪%

ঋণ খেলাপী টাকা

৮,০৩,৫৪৬/

---

---

   ৭,৯৯,৫৪৬/-

১০

ঋণ খেলাপী থেকে আদায়

---

       ৪০০০/-

৪৬,৫০০/-

---

১১

কিস্তি খেলাপী টাকা

২,৬১,৫০০/-

---

---

  ২,৮৭,৪০০/-

১২

কিস্তি খেলাপী  থেকে আদায়

---

২১,০০০/-

২,৩৬,৫০০/

---

১৩

যুব সংগঠনের সংখ্যা

---

---

---

৭০ টি

তিনি আরো বলেন, বিভিন্ন ট্রেডে প্রশিক্ষণ কোর্স চালু হবে। এতে ১৮ হতে ৩৫ বছর বয়সের ছাত্র-ছাত্রী অংশ নিতে পারবে। তাছাড়া পোশাক শিল্পের কোর্সও চালু করা হবে। আগ্রহী শিক্ষার্থীদের ভর্তি করানোর জন্য সকলের প্রতি অনুরোধ জানান।

 

 

 

৩.১৩

জনস্বাস্থ্য প্রকৌশল বিভাগঃউপ-সহকারী প্রকৌশলী জনস্বাস্থ্য বিভাগ সভায় জানান যে, তার বিভাগের কার্যক্রম সুষ্ঠুভাবে চলছে। বিভাগীয় কাজের ধারা  নিম্নরূপঃ

 

 বিশেষ গ্রামীণ পানি সরবরাহ প্রকল্পঃ

নং

এডিপি

স্থান নির্ধারণ

সহায়ক চাঁদা

অগ্রগতি

 

মন্তব্য

 

০১.

২০১২-২০১৩

  ২০১৩-২০১৪ অর্থবছর

কেরিড ওভার

সাধারণ বরাদ্দ

৬নং গভীর নলকূপ

তারা গভীর নলকূপ

মোট

 

৬ নং গভীর নলকূপ

তারা গভীর নলকূপ

মোট

 

 

 

 

২০

২০

৪০

---

---

---

৪০ টি

৪০ট

৪০ টি

 

 

PEDPএর আওতায় WASH BLOCK নির্মাণ ও গভীর নলকূপ স্থাপনঃ

নং

বরাদ্দ

মোট

অগ্রগতি

মন্তব্য

২০১২-২০১৩

২০১৩-২০১৪

      ২০১৩-২০১৪

১.

WASH BLOCK

গভীর নলকূপ

WASH BLOCK

গভীর নলকূপ

WASH BLOCK

গভীর নলকূপ

WASH BLOCK

গভীর নলকূপ

 

২১

৪২

৩৪

--

৫৫ টি

৪২ টি

৫৪

৪২

 

 

১। যে সকল প্রাথমিক বিদ্যালয়ে টিউবওয়ের নেই বা নষ্ট হযে গেছে, সেসব বিদ্যালয়ের জন্য টিউবওয়েল চেযে মন্ত্রণালয়ে পত্র দেওয়ার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

উপজেলা জনস্বাস্থ্য প্রকৌশল বিভাগ।

 

৩.১৪

সমবায় বিভাগঃউপজেলা সমবায় কর্মকর্তা সভায় তার বিভাগের কার্যক্রম তুলে ধরেন।

(ক) অডিট অগ্রগতির তথ্যঃ

নং

সমিতির শ্রেনী

সমিতির সংখ্যা

অডিট যোগ্য সমিতির সংখ্যা

অডিট সমাপ্তির সংখ্যা

মোট দাখিলের

সংখ্যা

মোট দাখিলের

বাকী

অডিট অসমাপ্তির

সমিতির সংখ্যা

১.

কেন্দ্রীয় সমিতি বিভাগীয়

৫ টি

৫ টি

০৫টি

০৫টি

-

--

২.

কেন্দ্রীয় সমিতি পউবো

২ টি

২ টি

০২টি

০২টি

-

--

৩.

প্রাথমিক বিভাগীয়

১৮৫ টি

১৮৫ টি

১৮৫ টি

১৮৫ টি

১২ টি

   --

৪.

প্রাথমিক পউবো

২৫০ টি

২৫০ টি

১৩৪ টি

১৩৪ টি

---

১১৬ টি

 

মোট

৪৪২ টি

৪৪২ টি

৩২৬ টি

৩২৬ টি

১২ টি

  ১১৬ টি

 

১। উৎপাদনমুখী সমবায় সমিতি নিবন্ধন করতে হবে এবং নিবন্ধিত সমবায় সমিতির কার্যক্রম মনিটরিং অব্যাহত রাখতে হবে।

 উপজেলা সমবায় অফিসার।

 

 

৩.১৫

পল্লী উন্নয়ন বোর্ডঃউপজেলা পল্লী উন্নয়ন অফিসার জানান, এ পর্যন্ত ১। চলতি মাসে ঋণ বিতরন :  ৪,৬৪,০০০/- টাকা। ২। মোট ঋণ বিতরনঃ ১৫,৪৩,৮১,০০০/- টাকা ৩। চলতি মাসে ঋণ আদায়ঃ ৮,২৩,০০০/- টাকা। ৪। মোট ঋণ আদায়ঃ ১৩,৯৪,০৫,০০০/ টাকা  ৫। আদায়ের হার : ৯০% ৫। মোট সঞ্চয় আদায়ঃ ৬৬,৯১,০০০/- টাকা।

একটি  বাড়ি একটি খামার প্রকল্পের কার্যক্রমঃ ক. চলতি মাসে ঋণ বিতরনঃ নেই। খ. মোট ঋণ বিতরনঃ ৩,০১,২২,০০০/- টাকা। গ. চলতি মাসে ঋণ আদায়ঃ ১,৯৮,০০০/-টাকা ঘ. মোট ঋণ আদায়ঃ ১,১৬,৫৫,০০০/- টাকা  ঙ. মোট সঞ্চয় আদায়ঃ ১,৬৬,১৩,০০০/-

 

১। ঋণের কিস্তি আদায়ে আরো তৎপর হওয়ার সিদ্ধান্ত  গৃহীত হয়।

২। একটি বাড়ি একটি খামারের মাসিক তথ্য উপস্থাপনের সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

উপজেলা পল্লী উন্নয়ন কর্মকর্তা, মুন্সীগঞ্জ

 

 

৩.১৬

উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক অফিসঃ  উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক , মুন্সীগঞ্জ সদর জানান যে, খাদ্য বিভাগীয় কার্যক্রম সুষ্ঠুভাবে পরিচালনা করা হচ্ছে নিয়ম অনুযায়ী বিভিন্ন সংস্থা ও প্রকল্পের অনুকূলে বরাদ্দকৃত খাদ্য শস্য সুষ্ঠু ভাবে বিলি বিতরণ অব্যাহত আছে। অভ্যন্তরীন বোরো সংগ্রহ/১৫এর আওতায় মিরকাদিম ও কাটাখালী এল এস ডিতে ৩৭৪৭ মেঃটন চাল সংগ্রহ করা হয়েছে। অত্র সংস্থাপনাধীন কোন উন্নয়ন মূলক কাজ নেই । নিন্মে গুদামওায়ারী খাদ্য শষ্যের মজুদ পরিমান দেখানো হলোঃ- 

 

 

ক্রমিক নং

গুদামের নাম

চাউল

গম

০১.

মিরকাদিম

৪৩৩৫ মেঃটন

১৩৩ মেঃটন

০২.

কাটখালী

  ৮৭১   মেঃটন

  ৩৮   মেঃটন

 

মোট-

৫২০৬ মেঃটন

১৭১ মেঃটন

 

 

 

 

 

৩.১৭

বি এ ডিসি (সেচ):সিনিয়র উপ-সহকারী প্রকৌশলী সভায় তার বিভাগের কার্যক্রম তুলে ধরেন। গত ২০১২-১৩ সনে মুন্সীগঞ্জ সদর উপজেলার চরকেওয়ার ইউনিয়নের পিছামারা খালটির ১.৫০ কিঃমিঃ পুণঃখনন করা হয়েছে।তাছাড়া আধারা ইউনিয়নের ভাসানচর মৌজায় ২-কিউসেক এলএলপি স্কীমে ডিসচার্জবক্সসহ পাকা সেচনালা নির্মাণ ০১টি ও একই ইউনিয়নের দাইমী মৌজায় ২- কিউসেক এল এলপি স্কীমে পাকা সেচনালা নির্মাণ ০১টি। গত ২০১৩-১৪ সনে চরকেওয়ার ইউনিয়নের ভিটিহোগলা জলার খালটির ১.৫০ কিঃমিঃ পূণঃখনন করা হয়েছে। উক্ত সনে কোন পাকা সেচনালা নির্মাণ করা হয়নি। চলতি ২০১৪-১৫ সনে আধারা ইউনিয়নের খালাসীকান্দি খালটির ১.৫০ কিঃমিঃ  পুণঃখনন সম্পন্ন করা হয়েছে। একই ইউনিয়নের বকুলতলা খালটির ১.৫০ কিঃমিঃ পূণঃখনন শেষ হয়েছে। তাছাড়া বাংলাবাজার ইউনিয়নের বড়খালটির ১.৫০ কিঃমিঃ খাল পুণঃখনন করা হয়েছে। আধারা ইউনিয়নের চরআব্দুল্লাহ (দক্ষিণ) মৌজায় ২- কিউসেক এলএলপি স্কীমে ডিসচার্জ বক্সসহ  পাকা সেচনালা নির্মাণ করা হয়েছে ০১টি। ০৫টি পাম্পিং সেট ক্ষেত্রায়ন করা হয়েছে। এছাড়া বিভাগীয় অন্যান্য কার্যক্রম নিয়মিত চলছে।                           

 

 উচ্চতর উপ-সহকারী প্রকৌশলী (ক্ষুদ্র সেচ)

 

৩.১৮

উপজেলা নির্বাচন বিভাগঃউপজেলা নির্বাচন অফিসার সভায় জানান, মুন্সীগঞ্জ সদর  উপজেলায় হালনাগাদ কার্যক্রম শুরু হয়েছে।  আগামী ৯ আগষ্ট,২০১৫ পর্যন্ত বাড়ী বাড়ী গিয়ে তথ্য সংগ্রহের কাজ চলবে এবং ১১ আগষ্ট হতে নিবন্ধনের কার্যক্রম শুরু হবে। যাদের  জন্ম তারিখ ১ জানুয়ারী ২০০০ সাল বা তার পূর্বে তারা নিবন্ধিত হতে পারবেন। তিনি আরো বলেন, মহিলা ভোটার কম হচ্ছে । কারণ হিন্দু ভোটার বাবার বাড়িতে ভোটার হয়েছে। মহিলা ভোটার যাতে কম না হয় সেদিকে লক্ষ্য রাখার জন্য তিনি জনপ্রতিনিধিদের অনুরোধ করেন। তাছাড়া ভোটার হওয়ার জন্য মসজিদের মাইকে ঘোষণা দেয়ার জন্যও অনুরোধ করেন।  ভোটার তালিকা সুষ্ঠু, সুন্দর ও সূচারুরূপে সম্পন্নের জন্য উপজেলা পরিষদের সকল সদস্যের সার্বিক সহযোগিতা কামনা করেন।

 

 

 

 

৩.১৯

উপজেলা আনসার ও ভিডিপিঃ  উপজেলা আনসার ও ভিডিপি কর্মকর্তা  সভায় অনুপস্থিত থাকায়  তার বিভাগের কার্যক্রম সম্পর্কে আলোচনা করা গেল না।

 

 

 

৩.২০

উপজেলা পরিসংখ্যান বিভাগঃ ১) ধলাগাও বাজার ও মুন্সিগঞ্জ বাজার হতে দরছক পূরণ পূর্বক জেলা পরিসংখ্যান অফিসে প্রেরণ করা হয়েছে।

 ২) এমএসভিএসবি এর তথ্য সংগ্রহ করে জেলা পরিসংখ্যান্অফিসে প্রেরণ করা হয়েছে।

৩) বিভিন্ন ফসলের আনুমানিক হিসাব জেলা পরিসংখ্যান অফিসে প্রেরণ করা হয়েছে।

৪) বোরা ফসলের মূল্য ও উৎপাদন খরচ জরিপ এর  তথ্য সংগ্রহ করে জেলা পরিসংখ্যান অফিসে প্রেরণ করা হয়েছে।

৫) পাট ফসলের পূর্বাভাস জরিপ এর তথ্য  সংগ্রহ করে জেলা পরিসংখ্যান অফিসে প্রেরণ করা হয়েছে।

৬) মাসিক কৃষি মজুরীর তথ্য সংগ্রহ করে জেলা পরিসংখ্যান অফিসে প্রেরণ করা হয়েছে।

৭) এছাড়া বিভাগীয় নিয়মিত অন্যান্য কাজ সুষ্ঠুভাবে চলছে। বিভাগীয় কাজে কোন সমস্যা নাই ।

 

 

১। এ ধারা অব্যাহত রাখার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

 উপজেলা পরিসংখ্যান কর্মকর্তা

 

      

 

৩.২১

পল্লী দারিদ্র্য বিমোচন ফাউন্ডেশনঃপল্লী দারিদ্র্য বিমোচন কর্মকর্তাতার দপ্তরের বিভাগীয় কার্যক্রম তুলে ধরেন।

 

 

 

ঋণ বিতরণ ও আদায় বিবরণঃ

ঋণের প্রকার

মাসে

বছরে

ক্রমপুঞ্জিত

ঋণ বিতরন

(লক্ষ টাকায়)

ঋণ আদায়

(লক্ষ টাকায়)

আদায়ের

হার

ঋণ বিতরন

(লক্ষ টাকায়)

ঋণ আদায়

(লক্ষ টাকায়)

আদায়ের

হার

ঋণ বিতরন

(লক্ষ টাকায়)

ঋণ আদায়

(লক্ষ টাকায়)

আদায়ের

হার

 

১. ক্ষুদ্র ঋণ

২. ক্ষুদ্র  উদ্যোক্তা ঋণ

৭.৩৩

 ১.০০

৪.৭৯

১.৮৪

১০০%

১০০%

৪৯.১৯

 ২০.০০

 ৪২.২০

 ১৮.২৩

১০০%

১০০%

৭১.৬৯

৩৪.৭০

৫২.০৬

২৩.৬০

 

১০০%

 

১০০%

 

মোট

৮.৩৩

৬.৬৩

১০০%

৬৯.১৯

৬০.৪৩

১০০%

১০৬.৩৯

৭৫.৬৬

১০০%

 

০১। সমিতি গঠনঃ ২০ টি, ০২। মোট  সদস্য ভর্তি : ৪৮৪ জন, ০৩। মোট সঞ্চয় জমাঃ ১৩.৯৪ লক্ষ টাকা, ০৪। মোট সোনালী সঞ্চয় জমাঃ ৭.৭৫ লক্ষ টাকা ,০৫। মোট মেয়াদীসঞ্চয় জমাঃ ১.৫৫ লক্ষ, ০৬। মোট ক্ষুদ্র উদ্যোক্তা সদস্যঃ ১৭ জন।

তিনি আরো জানান, মুন্সীগঞ্জ জেলার ৬ (ছয়)টি উপজেলার মধ্যে সদর উপজেলার পল্লী দারিদ্র বিমোচন অফিসের ঋণ আদায় সবচেয়ে সন্তোষজনক।

 

 

 

উপজেলা পরিষদের রাজস্ব তহবিল : উপজেলা পরিষদের নিম্নবর্ণিত ব্যয় সর্বসম্মতিক্রমে অনুমোদনের জন্য উপস্থাপন করা হলো।                                           

            (০১) আনুসঙ্গিক-১৯০০/- টাকা

            (০২) আপ্যায়ন বাবদ-৪৯০০/- টাকা

            (০৩) ইন্টারনেট -৫০০/- টাকা

            (০৪) পাম্পের মবিল ২০০/- টাকা।

(০৫) সিডি-১৫০ টাকা।

(০৬) কটলেজের ব্যাটারী ও ঘড়ির ব্যাটারী ২৩০/- টাকা।

(০৭) টোনার  -৬০০০/-টাকা।

(০৮) ইউপিএস-৪০০০/- টাকা।

          (০৯) রাস্তায়  লাইট মেরামত-৫৮০/-টাকা।

            (১০) বাঁশ ও বেড়া ক্রয়বাবদ খরচ-২২,০০০/-

            (১১) প্যালাসাইডিং তৈরীর জন্য শ্রমিকের মজুরী বাবদ খরচ-৭০০০/-

            (১২) প্যালাসাইডিং স্থানে মাটি নেওয়ার জন্য ভ্যানভাড়া-৮০০০/-

            (১৩) উপজেলা সমবায় অফিস ও উপজেলা নির্বাহী অফিসারের বাসভবনে ০২ (দুই) টি নতুন সিলিং ফ্যান সংযোগ।

            (১৪) পবিত্র ঈদ-উল- ফিতর উপলক্ষ্যে অফিস কম্পাউন্ডে জঙ্গল ও ড্রেন পরিস্কার ও ইলেকট্রিক লাইন মেরামত খরচ-৭৫০০/ টাকা। 

 

চেয়ারম্যান, পঞ্চসার ইউনিয়ন পরিষদ সভায় বলেন, পঞ্চসার ইউনিয়নের ফেরিঙ্গিবাজার এলাকায় রাস্তা ভেঙ্গে গেছে। তা দ্রুত মেরামত করার জন্য উপজেলা প্রকৌশলী, মুন্সীগঞ্জ সদরকে অনুরোধ জানান।

চেয়ারম্যান, বজ্রযোগিনী ইউনিয়ন পরিষদবলেন, রাস্তা কেটে ক্যাবল নেয়া হয়। কিন্তু  পরে তা মেরামত করা হয় না। এ ব্যাপারে লক্ষ্য রাখার জন্য তিনি উপজেলা প্রকোশলীকে অনুরোধ জানান।

চেয়ারম্যান, মহাকালী  ইউনিয়ন পরিষদবলেন, বৃষ্টিতে রাস্তার ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে। তা মেরামত করার প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য তিনি জানান।

চেয়ারম্যান, শিলই  ইউনিয়ন পরিষদবলেন,বর্তমানে শিলই ইউনিয়নে যেসকল রাস্তা পাকা হবে তা আরসিসি ঢালাই এর মাধ্যমে করার জন্য উপজেলা প্রকৌশলীকে অনুরোধ করেন। তিনি আরো বলেন, বয়স্ক ভাতার টাকা উত্তোলনের জন্য মুন্সীগঞ্জে আসলে প্রচুর যাতায়াত ভাড়া খরচ হয়, ফলে ভাতার সার্থকতা খুঁজে পাওয়া যায় না। তাই বয়স্ক ভাতার টাকা উত্তোলনের জন্য ব্যাংক একাউন্ট দিঘীরপাড় শাখায় ট্রান্সফার করলে ভাল হয়।  

 চেয়ারম্যান, বাংলাবাজার  ইউনিয়ন পরিষদ শিলই ইউনিয়নের ন্যায় বয়স্ক ভাতার টাকা উত্তোলনের জন্য ব্যাংক একাউন্ট দিঘীরপাড় শাখায় ট্রান্সফার করার জন্য অনুরোধ করেন।  

চেয়ারম্যান, আধারা  ইউনিয়ন পরিষদ খাল খনন করার জন্য উচ্চতর উপ-সহকারী প্রকৌশলী (ক্ষুদ্র সেচ) এর প্রতিনিধিকে অনুরোধ করেন।   

 

উপজেলা নির্বাহী অফিসার সভায় বলেন, আগামী ১৩ আগষ্ট ২০১৫ বৃক্ষরোপন কর্মসূচী গ্রহণ করা হবে। গত বছর প্রত্যেক ছাত্র-ছাত্রীকে ১টি করে চারা দেয়া হয়েছিল। এ বছর ২টি করে চারা দেয়া হবে। Kaizenনিয়ে আলোচনা হয়েছে। সিদ্ধান্ত হয়েছে। পরবর্তী সভায় বিস্তারিত আলোচনা করা হবে। লাইব্রেরী

চালু করে ৭ (সাত) কার্যদিবসের মধ্যে জানানোর জন্য তিনি ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যানগণকে অনুরোধ করেন। এছাড়া কারো  কোন উদ্ভাবণী থাকলে তা জানালে আগষ্টের শুরুতে এটুআই প্রোগ্রামে জানাবেন বলে তিনি জানান। তিনি আরো বলেন, হাতে লেখা জন্ম নিবন্ধন অন লাইন ভিত্তিক চালু করতে হবে। বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি ক্লাব গঠন করতে হবে বলে তিনি জানান। তিনি বলেন, অনেকগুলো গাছ পড়ে গেছে, চেয়ারম্যান মহোদয় অনুমতি দিলে তা কেটে ফেলা যাবে।

 

চেয়ারম্যান,উপজেলা পরিষদ,মুন্সীগঞ্জ সদর ও সভাপতি উপজেলা পরিষদ মাসিক সভা, বলেন, উচ্চতর সহকারী প্রকৌশলী, বিএডিসি  (সেচ)  এর প্রতিনিধি  সদরসহ গজারিয়া উপজেলার দায়িত্ব পালন করায় তাকে সপ্তাহে কমপক্ষে ২ (দুই) দিন  তাঁর সাথে অথবা  উপজেলা নির্বাহী অফিসার এর সাথে স্বাক্ষাত করার জন্য বলেন। তাছাড়া প্রতিটি  বিভাগের কর্মকর্তাগণকে মাসিক সভায় উপস্থিত থাকার জন্য অনুরোধ করেন।  তিনি উপজেলা পরিষদের  সকল কর্মকর্তগণকে দায়িত্বশীলভাবে কাজ করার অনুরোধ জানান। অতঃপর আর কোন আলোচনা না থাকায় সভাপতি সকলকে ধন্যবাদ জানিয়ে সভার সমাপ্তি ঘোষণা করেন।

 

 

 

 

                   (আনিছ উজ্জামান)

চেয়ারম্যান

 উপজেলা পরিষদ,

সভাপতি, উপজেলা পরিষদ  মাসিক সভা

মুন্সীগঞ্জ সদর, মুন্সীগঞ্জ।

 

স্মারক নং-  ০৫.৩০.৫৯৫৬.০০৬.০১.০০১.১১-           (৫০)                                                  তারিখঃ          /২০১৫ খ্রিঃ

 

        অনুলিপি অবগতি ও প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য প্রেরণ করা হলোঃ

 

০১. মেয়র, মুন্সীগঞ্জ/মিরকাদিম পৌরসভা, মুন্সীগঞ্জ সদর, মুন্সীগঞ্জ।

০২. উপজেলা ...................................................অফিসার, মুন্সীগঞ্জ সদর।

০৩. চেয়ারম্যান ...............................................ইউনিয়ন পরিষদ (সকল), মুন্সীগঞ্জ সদর।

 

স্মারক নং- ০৫.৩০.৫৯৫৬.০০৬.০১.০০১.১১-                                                                    তারিখঃ          /২০১৫খ্রিঃ

 

  অনুলিপি সদয় অবগতির জন্য প্রেরণ করা হলো।                                                                                                              

 

০১. মাননীয় সংসদ সদস্য,মুন্সীগঞ্জ-০৩।

০২. সিনিয়র সচিব, স্থানীয় সরকার,পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয়,বাংলাদেশ সচিবালয়, ঢাকা।

০৩. জেলা প্রশাসক, মুন্সীগঞ্জ।

০৪. জেলা হিসাব রক্ষণ অফিসার, মুন্সীগঞ্জ।

 

 

উপজেলা নির্বাহী অফিসার

মুন্সীগঞ্জ সদর, মুন্সীগঞ্জ।

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 


উপজেলা পরিষদ

মুন্সীগঞ্জ সদর, মুন্সীগঞ্জ

মুন্সীগঞ্জ সদর উপজেলা পরিষদের জুলাই / ২০১৫ মাসে অনুষ্ঠিত মাসিক সভার কার্যবিবরণী।

আলোচ্য মাস- জুন / ২০১৫

 

সভাপতি     :

 

 

জনাব মোঃ আনিছ উজ্জামান

চেয়ারম্যান, উপজেলা পরিষদ,

মুন্সীগঞ্জ সদর, মুন্সীগঞ্জ।

স্থান           :

উপজেলা পরিষদ সম্মেলন কক্ষ।

তারিখ ও সময়ঃ

২৯.০৭.২০১৫ খ্রিঃ বেলা ১২.০০ ঘটিকা

 

(সভায় উপস্থিত সদস্যদের তালিকা পরিশিষ্ট -‘ক’ )

( সভায় অনুপস্থিত সদস্যদের তালিকা পরিশিষ্ট-‘খ’)

সভাপতি উপস্থিত সকলকে স্বাগত জানিয়ে সভার কাজ শুরু করেন।  সভাপতি গত সভার কার্যবিবরণী পাঠ ও অনুমোদনের জন্য সকলকে আহবান জানান। 

আলোচ্যসূচি-০১: বিগত সভার কার্যবিবরণী পাঠ ও অনুমোদন- বিগত সভার কার্যবিবরণী পাঠ করে শুনানো হয় এবং তা যথাযথভাবে উপস্থাপিত হওয়ায় সর্বসম্মতিক্রমে অনুমোদন করা হয়।

আলোচ্যসূচি-০২: বিগত সভায় গৃহীত সিদ্ধান্ত বাস্তবায়ন ও অগ্রগতি পর্যালোচনা।

নং

বিভাগ

সিদ্ধান্ত

অগ্রগতি

০১

 উপজেলা স্বাস্থ্য বিভাগ

০১। কমিউনিটি ক্লিনিক এবং ইউনিয়ন স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ কেন্দ্রের সকল কাজ নিয়মিত মনিটরিং করতে হবে। ০২। উপজেলা স্বাস্থ্য কমপেস্নক্সে সেবার মান বৃদ্ধি করতে হবে।

০১। কার্যক্রম চলমান আছে।

০২

উপজেলা কৃষি বিভাগ

 

০১। বিশেষ কর্মসূচী ও মাননীয় প্রধানমন্ত্রী কর্তৃক নির্দেশিত কার্যক্রম বাস্তবায়নের জন্য গুরুত্ব দিতে হবে।

০১। কার্যক্রম চলমান আছে।

০৩

উপজেলা প্রাণীসম্পদ বিভাগ

 

০১। ১০০ জন খামারীর হাতে কলমে প্রশিক্ষণ প্রদান ও প্রয়োজনীয় ঔষধ  ও প্রতিষেধক টিকা সরবরাহের সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

 

০২। কার্যক্রম চলমান আছে

০৪

উপজেলা প্রকৌশল বিভাগ

০১। সংশ্লিষ্ট ঠিকাদারের কার্যাদেশ  বাতিলসহ ১ বছরের জন্য কালো তালিকাভূক্ত করার সর্বসম্মত  সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।  

০১। চলমান আছে।

০৫

 উপজেলা সমাজসেবা বিভাগ

০১। ক্ষুদ্রঋণ আদায়ের হার ১০০% নিশ্চিত করতে হবে।

০২। ভাতা বিতরন ও ক্ষুদ্র ঋণ কার্যক্রম সহ অন্যান্য  কার্যক্রম সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন করতে হবে।

০৩। আগামী সভার পূর্বে প্রতিবন্ধী ভাতাপ্রাপ্তদের ডাটাবেজ তৈরী এবং প্রতিটি আবেদন সকল কাগজপত্র সহ উপজেলা নির্বাহী অফিসার এর নিকট উপস্থাপন করতে হবে।

০১। চলমান আছে।

০৬

উপজেলা দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা  বিভাগ

০১। প্রকল্পগুলো যথাযথভাবে সম্পন্ন হয়েছে কিনা তা পরিদর্শন করে প্রতিবেদন দিবেন।

০১। কার্যক্রম চলমান আছে।

০৭

উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা বিভাগ

০১। যেসকল মাধ্যমিক শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে সরকার কর্তৃক মাল্টিমিডিয়া সরবরাহ করা হয়েছে, সেসকল প্রতিষ্ঠানে নিয়মিত মাল্টিমিডিয়া ক্লাস নেয়া হয় কিনা, তা মনিটরিং করার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।    

০১। মনিটরিং অব্যাহত আছে।

০৮

উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা বিভাগঃ 

০১। প্রাথমিক বিদ্যালয় সমূহের কার্যক্রম তদারকি করে প্রতিমাসের ০৩ তারিখের মধ্যে প্রতিবেদন দিবেন।

০১। কার্যক্রম চলমান আছে।

০৯

উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা বিভাগ

 

০১।  জনসংখ্যা নিয়ন্ত্রণে স্থায়ী ও দীর্ঘ মেয়াদী  পদ্ধতি বাড়ানোর সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

০১। অব্যাহত আছে।

১০

জনস্বাস্থ্য প্রকৌশল বিভাগ

 

০১। যে সকল প্রাথমিক বিদ্যালয়ে টিউবওয়েল নেই বা নষ্ট হয়ে গেছে সেসব বিদ্যালয়ের জন্য টিউবওয়েল চেয়ে মন্ত্রণালয়ে পত্র দেয়ার  সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

২। আর্সেনিক পরীক্ষার জন্য বরাদ্দকৃত অর্থ যথাযথভাবে কার্যক্রম সম্পন্ন করে প্রতিবেদন দিতে হবে।

০১। কার্যক্রম চলমান আছে।

১১

 

পল্লী উন্নয়ন বোর্ড

০১। ঋণের কিস্তি আদায়ে আরো তৎপর হওয়ার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

০২। একটি বাড়ি একটি খামারের মাসিক তথ্য উপস্থানের সিদ্ধান্ত গৃহীত

হয়।

০৩। খরচ বাবদ ১,৮০,০০০/-টাকা অনুমোদন করা হলো এবং বাকী ১,৮০,৫৫৭/১০ বিআরডিবির হিসাবে ও অবশিষ্ট ২০,০৬১/৯০ টাকা রাজস্ব খাতে জমা করার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

০১। চলমান আছে।

১২

বি এ ডিসি  (সেচ)

০১। গত ১৯১২-১৩,১৯১৩-১৪ ও ১৯১৪-১৫ অর্থ বছরে যে কয়টি খাল  ও সেচনারা তৈরী হয়েছে, তার তালিকা আগামী সভায় উপস্থাপনেরসিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

০১। চলমান আছে।

১৩

উপজেলা নির্বাচন বিভাগ

এ ধারা অব্যাহত রাখার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

০১। চলমান আছে।

১৪

উপজেলা পরিসংখ্যান  বিভাগ

এ ধারা অব্যাহত রাখার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

০১। চলমান আছে।

 

আলোচ্যসূচি-০৩: বিভাগ ভিত্তিক আলোচনাঃ

নং

 

সিদ্ধান্ত

বাস্তবায়নে

 

৩.১

উপজেলা স্বাস্থ্য বিভাগঃউপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা সভায় জানান যে, চিকিৎসা সেবার মান উত্তরোত্তর বৃদ্ধির চেষ্টা অব্যাহত আছে। তিনি আরো জানান, সদর উপজেলায় উপ-স্বাস্থ্য কেন্দ্র-০২ টি । সেবা প্রাপ্ত রোগীর সংখ্যা : পুরুষ-১০৩৪ জন, মহিলা-১৩২৮ জন, শিশু-৪১০ জন, মোট = ২৭৭২ জন। চালুকৃত কমিউনিটি ক্লিনিকের সংখ্যা : ১৪ টি। রোগীর সংখ্যা- পুরুষ : ৩৪৫৮ জন, মহিলা : ৪৭৮০ জন, শিশু : ১৯১৪ জন, মোট = ১০১৫২ জন। শিশু জন্মের সংখ্যাঃ পুরুষ- ৩২২ জন, মহিলা -৩২৬ জন, মোট = ৬৪৮ জন। মৃত্যুর সংখ্যাঃ ০-৭ দিন = ০৯ জন, ০৮-২৮ দিন = ০৩ জন, ২৯ দিন-১ বৎসর = ১৪ জন, মৃত জম্মের সংখ্যা ০১ জন, ১-৫ বছরের মধ্যে = ১৫ জন। পানিতে ডুবে- ০১ জন ০৫ বছরের উর্দ্ধে = ৯৯ জন। ই,পি,আই কার্যক্রমঃ  বিসিজি ৮%, পেন্টা ৮%, পোলিও ৮%, এম,আর ৮%, হাম ৮%, টিটি ৮%। ডায়রিয়া রোগীর কার্যক্রমঃ নো- ডিহাইড্রেশনঃ  ১৩০৪ জন, সাম- ডিহাইড্রেশনঃ ৪ জন, সিভিয়ার ডিহাইড্রেশনঃ ০০ জন, মোট = ১৩০০ জন। টিবি রোগী (চিকিৎসাধীন) কার্যক্রমঃ পুরুষ ১৯ জন, মহিলা ৮ জন,শিশু-০১ জন মোট = ২৮ জন । কুষ্ঠ রোগী (চিকিৎসাধীন) কার্যক্রমঃ পুরুষ  ০৭ জন, মহিলা - ০৩ জন, শিশু - নাই, মোট = ১০ জন। আর্সেনিকোসিস রোগী (চিকিৎসাধীন) কার্যক্রমঃ পুরুষ - ১৩৮ জন, মহিলা - ১০১ জন, শিশু - নাই, মোট = ২৩৯ জন। তিনি আরো জানান,বর্তমানে নতুন কোন কার্যক্রম নেই।  

১। কমিউনিটি ক্লিনিক এবং ইউনিয়ন স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ কেন্দ্রের সকল কাজ নিয়মিত মনিটরিং করতে হবে।

২। উপজেলা স্বাস্থ্য কমপেস্নক্সে সেবার মান বৃদ্ধি করতে হবে।

 উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা অফিসার, মুন্সীগঞ্জ

 

 

 ৩.২

উপজেলা কৃষি বিভাগ :  উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা  তাঁর বিভাগের কার্যক্রম তুলে ধরেন। ফসল আবাদঃ খরিপ- ২ মৌসুমঃ আউশ আবাদ-১৭৩ হেক্টর,   বোনা আমন আবাদ- ৬৪৬৫ হেক্টর,  ধৈঞ্চা আবাদ- ৬২০ হেক্টর, শাক সব্জী আবাদ-১২৫ হেক্টর।

পাট কর্তনঃ পাট আবাদ হয়েছে-৫৩৭ হেক্টর, বর্তমানে কর্তন চলছে, এ যাবৎ ৪৩০ হেক্টর কর্তন হয়েছে।

কাইজেন থিমঃ ‘‘শাক সব্জী ও ফলমূলে ব্যবহৃত বালাইনাশক প্রিজারভেটিভ এবং রাইপেনার এর ক্ষতিকর প্রভাব দূর করার সহজ উপায় সম্পর্কে জনসচেতনতা বৃদ্ধিকরন’’ শিরোনামে ক্ষুদ্র উন্নয়ন কর্মসূচী কৃষি বিভাগে নেয়া হয়েছে। কর্মসূচী বাস্তবায়নে পোষ্টার ও লিফলেট তৈরী করে প্রদর্শন, ১২৮ টি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে আলোচনা ও ১৫০ টি সাধারণ দলীয় আলোচনা এবং ০৫ টি কৃষক প্রশিক্ষণ/মাঠ দিবসে বিষয়টি নিয়ে উদ্বুদ্ধকরণ কার্যক্রম চলমান আছে।

বৃক্ষরোপন কর্মসূচীঃ বর্তমানে বৃক্ষরোপন চলছে। লক্ষ্যমাত্রাঃ ফলজ-২১২২৫ টি, ঔষধি-১৪০৯ টি। এ পর্যন্ত ফলজ-১৩৬৪২ টি, ঔষধি-১৬১৩ টি অর্জিত হয়েছে। ফলজ বৃক্ষরোপন কার্যক্রম চলমান আছে।

 বিশেষ কর্মসূচী গ্রহণঃ বর্তমান মৌসুমে ২৭০০ টি আমচারা ক্যাফট গ্রাফটিং করে উন্নত জাতের চারা উৎপাদন করার লক্ষ্যমাত্রা গ্রহণ করা হয়েছে। এ পর্যন্ত ৮৫০ টি অর্জিত হয়েছে। অপ্রচলিত ফল তাল ও খেজুর প্রতি ব্লকে ৩০০ চারা/বীজ লাগানের কর্মসূচী গ্রহণ করা হয়েছে।

এ ছাড়াও মাননীয প্রধানমন্ত্রী কর্তৃক নির্দেশিত ২৭ টি বিশেষ কার্যক্রমের লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ পূর্বক কাজ যথারীতি এগিয়ে যাচ্ছে।   

সার,বীজ সরবরাহ ও মজুদ পরিস্থিতিঃ সার ও বীজের মজুদ সন্তোষজনক।

এ ছাড়াও বিভাগীয় নিয়মিত কার্যক্রম সুষ্ঠু ও স্বাভাবিকভাবে চলছে।

 

 

এছাড়া বিভাগীয় নিয়মিত কার্যক্রম সুষ্ঠু ও স্বাভাবিক ভাবে চলছে।

১। এডিপি হতে ১০০০০০/-(এক লক্ষ) অর্থ দ্বারা গৃহীত প্রকল্পের বাস্তবায়ন সম্পর্কে আগামী সভায়  উপস্থাপন করার সিদ্ধান্ত গৃহীত  হয়।

 উপজেলা কৃষি অফিসার

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

          

 

৩.৩

উপজেলা মৎস্য বিভাগঃ  সিনিয়র উপজেলা মৎস্য  অফিসার সভায় জানান, উপজেলার ৪টি মাছ বাজারে ফরমালিন বিরোধী অভিযান পরিচালনা করা হয়েছে। ৮ জন মাছ চাষীর পুকুর সরেজমিন পরিদর্শন করে তাদের বৈজ্ঞানিক পদ্ধতিতে মাছ চাষ করার পরামর্শ প্রদান করা হয়েছে। ০১টি মৎস্য খাদ্যের নমুনা গুণগত মান ও ভেজাল পরীক্ষার নিমিত্ত মৎস্য অধিদপ্তরের মান নিয়ন্ত্রণ ল্যাবে পাঠানো হয়েছে। বিগত ০২ মাস যাবৎ পাঠানো মৎস্য খাদ্যের নমুনায় কোন ভেজাল দ্রব্যাদি পাওয়া যায়নি।

১। মৎস্য খাদ্যের গুনগতমান ও ভেজাল পরীক্ষা কার্যক্রম নিয়মিত সম্পন্ন করার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

সিনিয়র উপজেলা মৎস্য অফিসার

 

৩.৪

উপজেলা প্রাণীসম্পদ বিভাগঃ  উপজেলা প্রাণীসম্পদ কর্মকর্তা তার বিভাগীয় কার্যক্রম তুলে ধরেন। ০১। রোগ প্রতিরোধ ব্যবস্থা : (ক) গবাদি পশুর টিকাদানঃ ৪,৪৩৬ মাত্রা (খ) হাঁস মুরগীর টিকাদানঃ ৫২,৩০০ মাত্রা। (গ) গবাদি পশুর চিকিৎসাঃ ২৬০৩ টি (ঘ) হাঁস মুরগীর চিকিৎসাঃ ২৩,৬৭৬ টি (ঙ) কৃত্রিম প্রজননের সংখ্যাঃ ১,৫৫৪ টি (চ) বাচ্চা জন্মের সংখ্যাঃ (ক) এঁড়ে  : ৩১২ টি

                                                                            (খ) বকনা : ৩৫৬ টি

                                                                               মোট     : ৬৬৮ টি

সম্প্রসারণ কার্যক্রমঃ- (ক) ০১ দিনের মুরগীর বাচ্চা বিতরণঃ ৮৫,০০০ টি। (খ)  গাভীর খামার স্থাপনঃ  ০৩ টি। (গ) মুরগীর খামার স্থাপন = ০৬ টি, (ঘ) হাঁসের খামার স্থাপন-০১টি (ঙ) ছাগলের খামার স্থাপন-০২ টি (চ) ভেড়ার খামার স্থাপন -০৮ টি  (ছ) বিভাগীয় প্রশিক্ষণঃ ৬৯১ জন

(জ) ঘাসচাষ (একর)-৪.৭৫ একর।

রাজস্ব আয়ঃ- (ক) টিকাবীজ বিক্রয় বাবদ =১৩,৫৫০/ টাকা। (খ) কৃত্রিম প্রজনন ফি বাবদ = ৩৭,৫২৭/ টাকা। মোট আয় = ৫১,০৭৭/- টাকা। তিনি ধনী ব্যক্তিদের অধিক সংখ্যায় পশু কুরবাণী না করে   সীমিত কুরবাণী দেওয়ার জন্য অনুরোধ করেন।

১। আসন্ন ঈদ-উল- আযহায় গরু মোটাতাজাকরণ এর জন্য ষ্টেরয়েড ঔষধ বিষয়ে এর ব্যবহার  বিষয়ে খামারীদের সম্পূর্ণ নি রুৎসাহিত বিষয়ে সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

উপজেলা প্রাণিসম্পদ কর্মকর্তা

 

৩.৫

উপজেলা প্রকৌশল বিভাগ :উপজেলা প্রকৌশলী সভায় জানান যে, বিগত ২০১৪-১৫ ইং অর্থ বছরে বার্ষিক উন্নয়ন কর্মসূচীর ‘‘আধারা জাজিরা বকচর রাস্তার জাজিরা মসজিদ হতে তোফাজুল গাজীর বাড়ী পর্যন্ত রাস্তা BFSদ্বারা উন্নয়ন’’ গ্রুপ নং-২৬ প্রকল্পটি বাদে অন্য সকল প্রকল্পের কাজ সুষ্ঠুভাবে সমাপ্ত হয়েছে।  কিন্তু জুন/২০১৫ইং মাসের সভার কার্যবিবরনীতে বাতিলকৃত ২৬নং প্যাকেজের ঠিকাদারের নাম  মেসার্স রুবিনা এন্টারপ্রাইজ, প্রোঃ মোঃ নাজমুল হুদা, কোর্টগাও, সদর মুন্সীগঞ্জ, ভূল ছাপা হয়েছে। যার প্রকৃতপক্ষে নাম হবে মেসার্স এইচ, আর, বি এন্টারপ্রাইজ,পোঃ মোঃ আবু হাছান ভূইয়া,মধ্য কোর্টগাও, সদর মুন্সীগঞ্জ। ব্যথ ঠিকাদারের কার্যাদেশ বাতিল ও ১ বছরের জন্য কালো তালিকাভূক্ত করার জন্য বিগত সভায় সর্বসম্মত সিদ্ধান্ত রয়েছে। তাছাড়া ২০১৫-২০১৬ইং অর্থ বছরের বাষিক উন্নয়ন কর্মসূচীর(এডিপি) প্রকল্পের তালিকা অতিসত্বর প্রদানের জন্য সকল ইউপি চেয়ারম্যানকে অনুরোধ জানানো হয়।

 উপজেলা প্রকৌশলী সভায় আরো জানান যে, প্রাথমিক শিক্ষা প্রকল্পের আওতায় চলমান ৫টি সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের নির্মাণ কাজ সমাপ্তির পথে। ইদ্রাকপুর ০১নং ও কেওয়ার সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় ০২টির সংশোধিত প্রশাসনিক অনুমোদন অদ্যাবধি পাওয়া যায়নি। পাওয়া গেলে বিদ্যালয় ০২টিতে e-gpতে দরপত্র আহববান করা হবে। অসচ্ছল মুক্তিযোদ্ধাদের বাসস্থান নির্মাণ প্রকল্পের আওতায় অনুমোদিত ৮টি বাসস্থানের মধ্যে ০৪টি বাসস্থানের বাস্তবায়নের প্রক্রিয়া চলমান রয়েছে। ১টি বাসস্থানের জন্য জমির সীমানা নিধারন জায়গা বুঝিয়ে না দেওয়ায় এবং ১টি প্রকল্পের জমি ভরাটের কাজ চলমান থাকায় প্রকল্পের কাজ শুরু করা যায়নি। অন্য ২টি বাসস্থানের নির্মান কাজের কার্যাদেশ পাওয়া গেলে কাজ শুরু করা হবে। তিনি  ২০১৫-২০১৬ অর্থবছরে সকল সম্মানিত                                                       চেয়ারম্যানগণকে প্রকল্প দাখিল করার জন্য অনুরোধ করেন যাতে আগামী মাসিক সভার আগে কার্যক্রম শুরু করা যায়।  .  

চেয়ারম্যান, পঞ্চসার ইউনিয়ন পরিষদ সভায় বলেন, পঞ্চসার ইউনিয়নের ফেরিঙ্গিবাজার এলাকায় রাস্তা ভেঙ্গে গেছে। তা দ্রুত মেরামত করার জন্য উপজেলা প্রকৌশলী, মুন্সীগঞ্জ সদরকে অনুরোধ জানান।

চেয়ারম্যান, বজ্রযোগিনী ইউনিয়ন পরিষদবলেন, রাস্তা কেটে ক্যাবল নেয়া হয়। কিন্তু  পরে তা মেরামত করা হয় না। এ ব্যাপারে লক্ষ্য রাখার জন্য তিনি উপজেলা প্রকোশলীকে অনুরোধ জানান।

চেয়ারম্যান, মহাকালী  ইউনিয়ন পরিষদবলেন, বৃষ্টিতে রাস্তার ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে। তা মেরামত করার প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য তিনি জানান।

চেয়ারম্যান, শিলই  ইউনিয়ন পরিষদবলেন,বর্তমানে শিলই ইউনিয়নে যেসকল রাস্তা পাকা হবে তা আরসিসি ঢালাই এর মাধ্যমে করার জন্য উপজেলা প্রকৌশলীকে অনুরোধ করেন।

 

 

 

 

 

১।  ২০১৫-২০১৬ অর্থ বছরে বাষিক উন্নয়ন কর্মসূচীর আওতায় প্রকল্পের তালিকা দাখিল করতে সকল ইউপি চেয়ারম্যানকে অনুরোধ করা হয়। ।

উপজেলা প্রকৌশলী

 

৩.৬

উপজেলা সমাজসেবা বিভাগঃউপজেলা সমাজসেবা কর্মকর্তা জানান, তাঁর বিভাগের কার্যক্রম সুষ্ঠুভাবে চলছে। বিভাগীয় কাজের ধারা নিম্নণরূপঃ

ঋণ বিতরণ ও আদায়ঃ

(1)     আর, এস,এস ক্ষুদ্র ঋণ কার্যক্রমের আওতায় আদায়যোগ্য অর্থের মধ্যে (মূল ও সার্ভিস চার্জ) সর্বমোট = ৯১৩০০/-(একানববই হাজার তিনশত) টাকা আদায় হয়েছে। আদায়ের হার ৯৮%। এছাড়া ক্ষুদ্র ঋণ বিতরণ করা হয়েছে আর,এস এস=৫০,০০০/- টাকা। 

(2)    এসিডদগ্ধ ও শারীরিক প্রতিবন্ধী ব্যক্তিদের পূনর্বাসন কার্যক্রমের আওতায় সর্বমোট =৯,৪৫০/- (নয় হাজার চারশত পঞ্চাশ) টাকা আদায় হয়েছে এবং ব্যাংকে জমা করা হয়েছে। বিতরণ করা হয়েছে =৭৫,০০০/-(পঁচাত্তর  হাজার) টাকা।

ভাতা কার্যক্রমঃ২০১৪-২০১৫ অর্থ বছরে বয়স্কভাতা, বিধবা ও স্বামী পরিত্যক্তা দুঃস্থ মহিলা ভাতা, অসচ্ছল প্রতিবন্ধী ভাতা ও প্রতিবন্ধী শিক্ষা উপবৃত্তির অর্থ ৩য় কিস্তি পর্যন্ত ১০০% বিতরণ সম্পন্ন হয়েছে। প্রতিবন্ধী সনাক্তকরণ জরীপ কাজ ১০০% সম্পন্ন হয়েছে, বর্তমানে পরিচয় পত্র প্রদানের লক্ষ্যে ডাটা এন্ট্রির কাজ চলমান আছে। অন্যান্য কার্যক্রমঃ সামাজিক কার্যক্রমের আওতায় বাল্য বিবাহ রোধ যৌতুক বিরোধী প্রচারনা, জলাবদ্ধ পায়খানা ব্যবহার,বৃক্ষরোপন,পুষ্টি,পরিবার পরিকল্পনা ইত্যাদি বিষয়ে লক্ষ্যভূক্ত পরিবারের সদস্যদের মধ্যে সচেতনতা সৃষ্টির লক্ষ্যে কার্যক্রম অব্যাহত আছে। চলমান মাসে ১টি বাল্য বিবাহ প্রতিরোধ করা হয়েছে। 

চেয়ারম্যান, শিলই ইউনিয়নবলেন, বয়স্ক ভাতার টাকা উত্তোলনের জন্য মুন্সীগঞ্জে আসলে প্রচুর যাতায়াত ভাড়া খরচ হয়, ফলে ভাতার সার্থকতা খুঁজে পাওয়া যায় না। তাই বয়স্ক ভাতার টাকা উত্তোলনের জন্য ব্যাংক একাউন্ট দিঘীরপাড় শাখায় ট্রান্সফার করলে ভাল হয়।  

চেয়ারম্যান, বাংলাবাজার  ইউনিয়ন পরিষদ  বয়স্ক ভাতার টাকা উত্তোলনের জন্য ব্যাংক একাউন্ট দিঘীরপাড় শাখায় ট্রান্সফার করার জন্য অনুরোধ করেন

১। ক্ষুদ্র ঋণ আদায়ের হার ১০০% নিশ্চিত করতে হবে।

২। ভাতা বিতরণ ও ক্ষুদ্র ঋণ কার্যক্রমসহ অন্যান্য কার্যক্রম সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন করতে হবে। 

উপজেলা সমাজ সেবা কর্মকর্তা, মুন্সীগঞ্জ।

 

৩.৭

উপজেলা দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা বিভাগঃ   উপজেলা দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা বিভাগঃ  উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়নকর্মকর্তা  সভায় জানান যে, তার বিভাগের কার্যক্রম সুষ্ঠুভাবে চলছে। টিআর/কাবিখা হতে সোলার প্যানেল স্থাপনের জন্য সরকারি নির্দেশনা মোতাবেক কার্যক্রম বাস্তবায়ন করা  হয়েছে মর্মে উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা জানান। তিনি সভায় আরো জানান ২০১৪-২০১৫ অর্থ বছরে ১ম পর্যায় সাধারণ/বিশেষ/টি,আর/কাবিখা/অতি দরিদ্রদের জন্য কর্মসূচী প্রকল্পের কাজের অগ্রগতির প্রতিবেদন নিম্নরূপঃ

নং

খাতের বিবরণ

বরাদ্দের পরিমাণ

০১

বিশেষ টি,আর, নির্বাচনী এলাকা- মুন্সীগঞ্জ-০৩, ১ম পর্যায়

১৭৫.০০০ মেঃ টন

০২

বিশেষ কাবিখা, নির্বাচনী এলাকা- মুন্সীগঞ্জ-০৩, ১ম পর্যায়

১৭৫.০০০ মেঃ টন

০৩

জনাব ফজিলাতুননেসা,সংসদ সদস্য, মহিলা আসন-২২,

টি,আর-১ম পর্যায়

১৫.০০০ মেঃ টন

০৪

জনাব ফজিলাতুননেসা,সংসদ সদস্য, মহিলা আসন-২২,

কাবিখা-১ম পর্যায়

১৬.০০০ মেঃ টন

০৫

সাধারণ টি,আর ১ম পর্যায়

১১৪.২০০ মেঃ টন

 ০৬

সাধারণ কাবিখা-১ম পর্যায়

১২৬.৭৮০ মেঃ টন

০৭

মুন্সীগঞ্জ পৌরসভা-১ম পর্যায়

২৮.০০৬৬ মেঃ টন

০৮

মিরকাদিম পৌরসভা- ১ম পর্যায়

    ১৬.৩৪৪ মেঃ টন

০৯

অতিদরিদ্রদের জন্য কর্মসংস্থান কর্মসূচী

২০০৫ টি কার্ড= ১,৬০,৪০,০০০/-

১০

কমলাঘাট আশ্রয়ন প্রকল্প

   ১১৮.২৩৩ মেঃটন

১১

পবিত্র ঈদ-উল -আযহা উপলক্ষ্যে ভিজিএফ

     ৮৯,৩০০ মেঃ টন

১২

জি,আর দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়/জেলা প্রশাসক হতে প্রাপ্ত

১১২.৭৬০ মেঃ টন

১৩

বিশেষ টি, আর দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয় হতে প্রাপ্ত

   ৩৭.০০০ মেঃ টন

 

নং

২য় পর্যায়

বরাদ্দের পরিমাণ

০১

বিশেষ টি,আর, নির্বাচনী এলাকা- মুন্সীগঞ্জ-০৩, ২য় পর্যায়

৩৬,০০,০০০/-

 ০২

বিশেষ কাবিখা, নির্বাচনী এলাকা- মুন্সীগঞ্জ-০৩, ২য় পর্যায়

৮৬,০০০ মেঃ টন

 ০৩

বিশেষ কাবিটা নির্বাচনী  এলাকা,   মুন্সীগঞ্জ-০৩, ২য় পর্যায়

   ১৮,৪০,০০০/-

 ০৪

জনাব ফজিলাতুননেসা,সংসদ সদস্য, মহিলা আসন-২২,

টি,আর-২য় পর্যায়

১০,০০,০০০/-

 ০৫

জনাব ফজিলাতুননেসা,সংসদ সদস্য, মহিলা আসন-২২,

কাবিখা-২য় পর্যায়

     ৪,৮০,০০০/-

 ০৬

সাধারণ টি,আর -২য় পর্যায়

২২,৮০,১১৯/-

 ০৭

মুন্সীগঞ্জ পৌরসভা-১ম পর্যায়

৫,৬০,১৩২/৬৯

 ০৮

মিরকাদিম পৌরসভা- ১ম পর্যায়

   ৩,২৬,৮৭৯/২১

 ০৯

সাধারণ কাবিখা ২য় পর্যায়

১২৬.৬১০২ মেঃটন

 ১০

বিশেষ টি,আর, নির্বাচনী এলাকা, মুন্সীগঞ্জ-০৩, ৩য় পর্যায়  

১৯,২৬,১৩৪/-

 ১১

বিশেষ কাবিটা, নির্বাচনী এলাকা- মুন্সীগঞ্জ-০৩, ৩য় পর্যায়

৬,০০,০০০/-

 ১২

জনাব ফজিলাতুননেসা,সংসদ সদস্য, মহিলা আসন-২২,

টি,আর-২য় পর্যায়

৬,০০,০০০/-

 

 

 

 ১৩

অতিদরিদ্রদের জন্য কর্মসংস্থান কর্মসূচী

১৫৪৭টি কার্ড=১,২৩,৭৬,০০০/-

১৪

চরবেহের পাড়া আশ্রয়ন প্রকল্পের সংযোগ সড়ক নির্মাণ

৫২,৪০০ মেঃ টন

১৫

পবিত্র ঈদ-উল-ফিতর উপলক্ষ্যে ভিজিএফ

৮৯,৩০০ মেঃটন

১৬

ঢেউটিন ও গৃহ নির্মাণ

 ১৫টি পরিবার

১৭

 সেতু/কালভার্ট নির্মাণ

৭০.৯০.৯০৭/=

১৮

বিশেষ টি,আর, জেলা প্রশাসক হতে প্রাপ্ত

৬৫,০০০মেঃটন

  তিনি প্রকল্পের কাজ দ্রুত সম্পন্ন করার জন্য ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যানগণকে অনুরোধ করেন।

১। প্রকল্পগুলো যথাযথভাবে সম্পন্ন হয়েছে কিনা, তা পরিদর্শন করে প্রতিবেদন দিবেন।

উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা

এবং চেয়ারম্যান

(সকল) ইউ. পি ও ট্যাগ অফিসার

 

৩.৮

উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা বিভাগঃউপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার সভায় জানান যে,মাধ্যমিক শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে জানুয়ারি-জুন/২০১৫ (১ম কিস্তির) উপবৃত্তি বিতরণ চলছে ও প্রতিষ্ঠানে ওয়েবসাইট খোলার কাজ সম্পন্ন হয়েছে। তিনি আরো জানান, গত ২৮/০৭/২০১৫ হতে মাল্টিমিডিয়ার ক্লাশ চলছে।  দাপ্তরিক কাজ সুষ্ঠুও সুন্দরভাবে চলছে। 

১। যেসকল মাধ্যমিক  শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে সরকার কর্তৃক মাল্টিমিডিয়া সরবরাহ করা হয়েছে , সেসকল প্রতিষ্ঠানে  নিয়মিত মাল্টিমিডিয়া ক্লাস নেয়া হয় কিনা, তা মনিটরিং করে প্রতিমাসের ০৩ তারিখের মধ্যে প্রতিবেদন দেয়ার  সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

১। উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার।

২। সহকারী মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার।

 

৩.৯

উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা বিভাগঃ উপজেলা শিক্ষা অফিসার বলেন, মুন্সীগঞ্জ সদর উপজেলার সকল সরকারি প্রাথমিক  বিদ্যালয়সমূহে গ্রীষ্মকালীন অবকাশ ও পবিত্র মাহে রমজান উপলক্ষ্যে বিদ্যালয়গুলো বন্ধ ছিল। বর্তমানে ২৫/৭/২০১৫ ইং তারিখ  বিদ্যালয় কার্যক্রম শুরু হয়েছে এবং কার্যক্রম ভালভাবে চলছে। আগামী ০২/৮/২০১৫ ইং তারিখ থেকে ২য় সাময়িক পরীক্ষা শুরু হয়ে ০৯/৮/২০১৫ ইং তারিখ শেষ হবে। সকল ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মহোদয়কে স্ব স্ব ইউনিয়নের বিদ্যালয়গুলো পরিদর্শন করে শিক্ষার গুণগতমান উন্নয়নের জন্য সার্বিক সহযোগিতা গ্রহণ করার জন্য অনুরোধ করেন।  মুক্তারপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের মাঠে জলাবদ্ধতার কারণে সুষ্ঠুভাবে বিদ্যালয় পরিচালনা করা যাচ্ছে না। জলাবদ্ধতা দূরীকরণের ব্যাপারে সংশ্লিষ্ট ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান মহোদয়কে সার্বিক সহযোগিতা করার জন্য বিশেষভাবে অনুরোধ করা হলো। বঙ্গবন্ধু ও বঙ্গমাতা প্রাথমিক বিদ্যালয় ফুটবল খেলা শ্রীঘ্রই শুরু হতে যাচ্ছে, ফুটবল খেলাকে উপভোগকরাসহ সার্বিক সহযোগিতা করার জন্য সকল সদস্যকে বিশেষভাবে অনুরোধ করা হলো।      এছাড়া  অন্যান্য কার্যক্রম সুষ্ঠুভাবে চলছে।  

১। প্রাথমিক বিদ্যালয়সমূহের কার্যক্রম তদারকি করে প্রতিমাসের ০৩ তারিখের মধ্যে প্রতিবেদন দিবেন।

১। উপজেলা শিক্ষা অফিসার

২। সহকারী প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার।

 

 

৩.১০

উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা বিভাগঃ  উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা  তার বিভাগের কার্যক্রম তুলে ধরেন।  খাবার বড়ি বিতরন -২৩,৫৫৫ কনডম বিতরন -৩৭,০৭৫ ইনজেকটেবলঃ ভায়াল- ২,৪২৭ সিরিঞ্জ-২৫৯৫ আই ইউ ডিঃ স্বাভাবিক-২৯ প্রসব পরবর্তী - নাই, খুলে ফেলা-১২ টি, ইমপস্ন্যান্টঃ নতুন -৮, খুলে ফেলা - ১২ ইসিপি  (ডোজ)- নাই,  স্থায়ী পদ্ধতিঃ পুরুষ- নাই,  মহিলা স্বাভাবিক - ২, প্রসব পরবর্তী - ৩২ জন, মোট ৩৪ জন। সক্ষম দম্পতি ৭৭,৪৯২ জন। CAR = ৭১ু% ।

১। জনসংখ্যা নিয়ন্ত্রণে স্থায়ী ও দীর্ঘমেয়াদী পদ্ধতি বাড়ানোর সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

 উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা

 

৩.১১

মহিলা বিষয়ক বিভাগঃ  ভিজিডি কর্মসূচির আওতায় ২০১৫-২০১৬ ভিজিডি চক্রের ৭২২ জন উপকারভোগীর মাঝে জুন-১৫ মাসের খাদ্য বিতরণ সম্পন্ন  হয়েছে। নতুন অর্থ বছরের খাদ্য শস্যের বরাদ্দ অদ্যবদি পাওয়া যায়নি। বরাদ্দ প্রাপ্তি সাপেক্ষ্যে বিতরণ করা হবে। 

মাতৃত্বকাল ভাতা প্রদান কর্মসূচিরআওতায় মোট ৪৩২ জন উপকারভোগীর জানুয়ারী হতে জুন-১৫ মাসের জন্য বরাদ্দকৃত ১২,৯৬০০০/- (বার লক্ষ ছিয়ানববই হাজার) টাকা উপকার ভোগীদের স্ব স্ব ব্যাংক হিসাবের মাধ্যমে বিতরণ চলমান রয়েছে। উপকার ভোগীদের সচেতনতামূলক প্রশিক্ষণ কার্যক্রম সম্পন্ন হয়েছে। মহিলাদের আত্মকর্মসংস্থানের জন্য ক্ষুদ্রঋন কার্যক্রমের আওতায় ৪৩ জন মহিলার মাঝে ৪,৭৫,০০০/-(চার লক্ষ পঁচাত্তর হাজার)টাকা বিতরণ করা হয়েছে। বিভাগের অন্যান্য কাজ স্বাভাবিক ভাবে চলছে।

১। ভাতা বিতরণ ও প্রশিক্ষণ কার্যক্রমসহ সকল কাজ সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন করতে হবে।

উপজেলা মহিলা বিষয়ক  কর্মকর্তা।

 

৩.১২

উপজেলা যুব উন্নয়ন বিভাগঃউপজেলা যুব উন্নয়ন কর্মকর্তা  সভায় জানান, মুন্সীগঞ্জ সদর উপজেলা কার্যালয়ের শুরু/৯৭ইং থেকে জুন/২০১৫ ইং মাস পর্যন্ত তথ্যাদি নিম্নরূপঃ

ক্রং

বিবরণ

লক্ষ্যমাত্রা

চলতি মাস

অর্থবছর

ক্রম পুঞ্জিত

ভ্রাম্যমান প্রশিক্ষণ

 ৫৭০ জন

  ১২০ জন

৫৭০জন

৫৬৩১ জন

আত্বকর্মীর সংখ্যা

 ৩১৫ জন

    ৯০ জন

৪০১ জন

৪৪৯৪ জন

যুবঋণ বরাদ্দ

---

   ---

---

৩১,১৮,৮০০/-

যুব ঋণ বিতরণ

২৮,৮০,০০০

   ---

২০,৮০,০০০

২,০৭,৯৫,০০০/-

যুবঋণ গ্রহীতার সংখ্যা

---

   ---

 ৩৫ জন

৬৬৭ জন

আদায় যোগ্য টাকা

---

১২,৯৭,২৪৬/-

---

১,৮০,০৫,২০০/-

আদায়কৃত টাকা

---

২,১০,৩০০/-

২৪,৪২,৮০০/

১,৬৯,১৮,২৫৪/-

আদায়ের হার চলমান

---

৮০%

---

৯৪%

ঋণ খেলাপী টাকা

৮,০৩,৫৪৬/

---

---

   ৭,৯৯,৫৪৬/-

১০

ঋণ খেলাপী থেকে আদায়

---

       ৪০০০/-

৪৬,৫০০/-

---

১১

কিস্তি খেলাপী টাকা

২,৬১,৫০০/-

---

---

  ২,৮৭,৪০০/-

১২

কিস্তি খেলাপী  থেকে আদায়

---

২১,০০০/-

২,৩৬,৫০০/

---

১৩

যুব সংগঠনের সংখ্যা

---

---

---

৭০ টি

তিনি আরো বলেন, বিভিন্ন ট্রেডে প্রশিক্ষণ কোর্স চালু হবে। এতে ১৮ হতে ৩৫ বছর বয়সের ছাত্র-ছাত্রী অংশ নিতে পারবে। তাছাড়া পোশাক শিল্পের কোর্সও চালু করা হবে। আগ্রহী শিক্ষার্থীদের ভর্তি করানোর জন্য সকলের প্রতি অনুরোধ জানান।

১। খেলাপী ঋণ আদায়ে আরো তৎপর হতে এবং যথাসময়ে প্রশিক্ষণ সমাপ্ত করতে হবে।

উপজেলা যুব উন্নয়ন অফিসার

 

৩.১৩

জনস্বাস্থ্য প্রকৌশল বিভাগঃউপ-সহকারী প্রকৌশলী জনস্বাস্থ্য বিভাগ সভায় অনুপস্থিত থাকায়  তার বিভাগের কার্যক্রম সম্পর্কে আলোচনা করা গেল না।

 

 

 

 

 

৩.১৪

সমবায় বিভাগঃউপজেলা সমবায় কর্মকর্তা সভায় তার বিভাগের কার্যক্রম তুলে ধরেন।

(ক) অডিট অগ্রগতির তথ্যঃ

নং

সমিতির শ্রেনী

সমিতির সংখ্যা

অডিট যোগ্য সমিতির সংখ্যা

অডিট সমাপ্তির সংখ্যা

মোট দাখিলের

সংখ্যা

মোট দাখিলের

বাকী

অডিট অসমাপ্তির

সমিতির সংখ্যা

১.

কেন্দ্রীয় সমিতি বিভাগীয়

৫ টি

৫ টি

০৫টি

০৫টি

-

--

২.

কেন্দ্রীয় সমিতি পউবো

২ টি

২ টি

০২টি

০২টি

-

--

৩.

প্রাথমিক বিভাগীয়

১৮৫ টি

১৮৫ টি

১৮৫ টি

১৮৫ টি

১২ টি

   --

৪.

প্রাথমিক পউবো

২৫০ টি

২৫০ টি

১৩৪ টি

১৩৪ টি

---

১১৬ টি

 

মোট

৪৪২ টি

৪৪২ টি

৩২৬ টি

৩২৬ টি

১২ টি

  ১১৬ টি

 

১। উৎপাদনমুখী সমবায় সমিতি নিবন্ধন করতে হবে এবং নিবন্ধিত সমবায় সমিতির কার্যক্রম মনিটরিং অব্যাহত রাখতে হবে।

 উপজেলা সমবায় অফিসার।

 

 

৩.১৫

পল্লী উন্নয়ন বোর্ডঃউপজেলা পল্লী উন্নয়ন অফিসার জানান, এ পর্যন্ত ১। চলতি মাসে ঋণ বিতরন :  ৪,৬৪,০০০/- টাকা। ২। মোট ঋণ বিতরনঃ ১৫,৪৩,৮১,০০০/- টাকা ৩। চলতি মাসে ঋণ আদায়ঃ ৮,২৩,০০০/- টাকা। ৪। মোট ঋণ আদায়ঃ ১৩,৯৪,০৫,০০০/ টাকা  ৫। আদায়ের হার : ৯০% ৫। মোট সঞ্চয় আদায়ঃ ৬৬,৯১,০০০/- টাকা।

একটি  বাড়ি একটি খামার প্রকল্পের কার্যক্রমঃ ক. চলতি মাসে ঋণ বিতরনঃ নেই। খ. মোট ঋণ বিতরনঃ ৩,০১,২২,০০০/- টাকা। গ. চলতি মাসে ঋণ আদায়ঃ ১,৯৮,০০০/-টাকা ঘ. মোট ঋণ আদায়ঃ ১,১৬,৫৫,০০০/- টাকা  ঙ. মোট সঞ্চয় আদায়ঃ ১,৬৬,১৩,০০০/-

 

১। ঋণের কিস্তি আদায়ে আরো তৎপর হওয়ার সিদ্ধান্ত  গৃহীত হয়।

২। একটি বাড়ি একটি খামারের মাসিক তথ্য উপস্থাপনের সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

উপজেলা পল্লী উন্নয়ন কর্মকর্তা, মুন্সীগঞ্জ

 

 

৩.১৬

উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক অফিসঃ  উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক , মুন্সীগঞ্জ সদর জানান যে, খাদ্য বিভাগীয় কার্যক্রম সুষ্ঠুভাবে পরিচালনা করা হচ্ছে নিয়ম অনুযায়ী বিভিন্ন সংস্থা ও প্রকল্পের অনুকূলে বরাদ্দকৃত খাদ্য শস্য সুষ্ঠু ভাবে বিলি বিতরণ অব্যাহত আছে। অভ্যন্তরীন বোরো সংগ্রহ/১৫এর আওতায় মিরকাদিম ও কাটাখালী এল এস ডিতে ৩৭৪৭ মেঃটন চাল সংগ্রহ করা হয়েছে। অত্র সংস্থাপনাধীন কোন উন্নয়ন মূলক কাজ নেই । নিন্মে গুদামওায়ারী খাদ্য শষ্যের মজুদ পরিমান দেখানো হলোঃ- 

 

 

ক্রমিক নং

গুদামের নাম

চাউল

গম

০১.

মিরকাদিম

৪৩৩৫ মেঃটন

১৩৩ মেঃটন

০২.

কাটখালী

  ৮৭১   মেঃটন

  ৩৮   মেঃটন

 

মোট-

৫২০৬ মেঃটন

১৭১ মেঃটন

 

 

১। খাদ্যদ্রব্যসহ নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্যের মূল্যের বিষয়ে অসঙ্গতি পরিলক্ষিত হলে দ্রুত ব্যবস্থা নিতে হবে।

উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক

 

৩.১৭

বি এ ডিসি (সেচ):সিনিয়র উপ-সহকারী প্রকৌশলী সভায় তার বিভাগের কার্যক্রম তুলে ধরেন। গত ২০১২-১৩ সনে মুন্সীগঞ্জ সদর উপজেলার চরকেওয়ার ইউনিয়নের পিছামারা খালটির ১.৫০ কিঃমিঃ পুণঃখনন করা হয়েছে। তাছাড়া আধারা ইউনিয়নের ভাসানচর মৌজায় ২-কিউসেক এলএলপি স্কীমে ডিসচার্জবক্সসহ পাকা সেচনালা নির্মাণ ০১টি ও একই ইউনিয়নের দাইমী মৌজায় ২- কিউসেক এল এলপি স্কীমে পাকা সেচনালা নির্মাণ ০১টি। গত ২০১৩-১৪ সনে চরকেওয়ার ইউনিয়নের ভিটিহোগলা জলার খালটির ১.৫০ কিঃমিঃ পূণঃখনন করা হয়েছে। উক্ত সনে কোন পাকা সেচনালা নির্মাণ করা হয়নি। চলতি ২০১৪-১৫ সনে আধারা ইউনিয়নের খালাসীকান্দি খালটির ১.৫০ কিঃমিঃ  পুণঃখনন সম্পন্ন করা হয়েছে। একই ইউনিয়নের বকুলতলা খালটির ১.৫০ কিঃমিঃ পূণঃখনন শেষ হয়েছে। তাছাড়া বাংলাবাজার ইউনিয়নের বড়খালটির ১.৫০ কিঃমিঃ খাল পুণঃখনন করা হয়েছে। আধারা ইউনিয়নের চরআব্দুল্লাহ (দক্ষিণ) মৌজায় ২- কিউসেক এলএলপি স্কীমে ডিসচার্জ বক্সসহ  পাকা সেচনালা নির্মাণ করা হয়েছে ০১টি। ০৫টি পাম্পিং সেট ক্ষেত্রায়ন করা হয়েছে। এছাড়া বিভাগীয় অন্যান্য কার্যক্রম নিয়মিত চলছে।

 চেয়ারম্যান, আধারা  ইউনিয়ন পরিষদ খাল খনন করার জন্য উচ্চতর উপ-সহকারী প্রকৌশলী (ক্ষুদ্র সেচ) এর প্রতিনিধিকে অনুরোধ করেন।  

              

১। কোন্ কোন্ খাল খনন করা প্রয়োজন তা ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যানদের সাথে আলোচনাক্রমে  নির্ধারণ পূর্বক বরাদ্দ  প্রাপ্তির জন্য মন্ত্রণালয়ে প্রেরণ করতে হবে।

 উচ্চতর উপ-সহকারী প্রকৌশলী (ক্ষুদ্র সেচ)

 

 

 

 

 

 

 

 

 

৩.১৮

উপজেলা নির্বাচন বিভাগঃউপজেলা নির্বাচন অফিসার সভায় জানান, মুন্সীগঞ্জ সদর  উপজেলায় হালনাগাদ কার্যক্রম শুরু হয়েছে।  আগামী ৯ আগষ্ট,২০১৫ পর্যন্ত বাড়ী বাড়ী গিয়ে তথ্য সংগ্রহের কাজ চলবে এবং ১১ আগষ্ট হতে নিবন্ধনের কার্যক্রম শুরু হবে। যাদের  জন্ম তারিখ ১ জানুয়ারী ২০০০ সাল বা তার পূর্বে তারা নিবন্ধিত হতে পারবেন। তিনি আরো বলেন, মহিলা ভোটার কম হচ্ছে । কারণ হিন্দু ভোটার বাবার বাড়িতে ভোটার হয়েছে। মহিলা ভোটার যাতে কম না হয় সেদিকে লক্ষ্য রাখার জন্য তিনি জনপ্রতিনিধিদের অনুরোধ করেন। তাছাড়া ভোটার হওয়ার জন্য মসজিদের মাইকে ঘোষণা দেয়ার জন্যও অনুরোধ করেন।  ভোটার তালিকা সুষ্ঠু, সুন্দর ও সূচারুরূপে সম্পন্নের জন্য উপজেলা পরিষদের সকল সদস্যের সার্বিক সহযোগিতা কামনা করেন।

 

১। ভোটার তালিকা হালনাগাদ করণে প্রচারণা ও সহযোগিতা করার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

১। উপজেলা নির্বাচন অফিসার

২। চেয়ারম্যান ইউনিয়ন পরিষদ (সকল)

 

৩.১৯

উপজেলা আনসার ও ভিডিপিঃ  উপজেলা আনসার ও ভিডিপি কর্মকর্তা  সভায় অনুপস্থিত থাকায়  তার বিভাগের কার্যক্রম সম্পর্কে আলোচনা করা গেল না।

 

 

 

৩.২০

উপজেলা পরিসংখ্যান বিভাগঃ ১) ধলাগাও বাজার ও মুন্সিগঞ্জ বাজার হতে দরছক পূরণ পূর্বক জেলা পরিসংখ্যান অফিসে প্রেরণ করা হয়েছে।

 ২) এমএসভিএসবি এর তথ্য সংগ্রহ করে জেলা পরিসংখ্যান্অফিসে প্রেরণ করা হয়েছে।

৩) বিভিন্ন ফসলের আনুমানিক হিসাব জেলা পরিসংখ্যান অফিসে প্রেরণ করা হয়েছে।

৪) বোরা ফসলের মূল্য ও উৎপাদন খরচ জরিপ এর  তথ্য সংগ্রহ করে জেলা পরিসংখ্যান অফিসে প্রেরণ করা হয়েছে।

৫) পাট ফসলের পূর্বাভাস জরিপ এর তথ্য  সংগ্রহ করে জেলা পরিসংখ্যান অফিসে প্রেরণ করা হয়েছে।

৬) মাসিক কৃষি মজুরীর তথ্য সংগ্রহ করে জেলা পরিসংখ্যান অফিসে প্রেরণ করা হয়েছে।

৭) এছাড়া বিভাগীয় নিয়মিত অন্যান্য কাজ সুষ্ঠুভাবে চলছে। বিভাগীয় কাজে কোন সমস্যা নাই ।

 

 

১। এ ধারা অব্যাহত রাখার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

 উপজেলা পরিসংখ্যান কর্মকর্তা

 

      

 

৩.২১

পল্লী দারিদ্র্য বিমোচন ফাউন্ডেশনঃপল্লী দারিদ্র্য বিমোচন কর্মকর্তাতার দপ্তরের বিভাগীয় কার্যক্রম তুলে ধরেন।

 

উপজেলা দারিদ্র বিমোচন অফিসার

 

ঋণ বিতরণ ও আদায় বিবরণঃ

ঋণের প্রকার

মাসে

বছরে

ক্রমপুঞ্জিত

ঋণ বিতরন

(লক্ষ টাকায়)

ঋণ আদায়

(লক্ষ টাকায়)

আদায়ের

হার

ঋণ বিতরন

(লক্ষ টাকায়)

ঋণ আদায়

(লক্ষ টাকায়)

আদায়ের

হার

ঋণ বিতরন

(লক্ষ টাকায়)

ঋণ আদায়

(লক্ষ টাকায়)

আদায়ের

হার

 

১. ক্ষুদ্র ঋণ

২. ক্ষুদ্র  উদ্যোক্তা ঋণ

৭.৩৩

 ১.০০

৪.৭৯

১.৮৪

১০০%

১০০%

৪৯.১৯

 ২০.০০

 ৪২.২০

 ১৮.২৩

১০০%

১০০%

৭১.৬৯

৩৪.৭০

৫২.০৬

২৩.৬০

 

১০০%

 

১০০%

 

মোট

৮.৩৩

৬.৬৩

১০০%

৬৯.১৯

৬০.৪৩

১০০%

১০৬.৩৯

৭৫.৬৬

১০০%

 

০১। সমিতি গঠনঃ ২০ টি, ০২। মোট  সদস্য ভর্তি : ৪৮৪ জন, ০৩। মোট সঞ্চয় জমাঃ ১৩.৯৪ লক্ষ টাকা, ০৪। মোট সোনালী সঞ্চয় জমাঃ ৭.৭৫ লক্ষ টাকা ,০৫। মোট মেয়াদীসঞ্চয় জমাঃ ১.৫৫ লক্ষ, ০৬। মোট ক্ষুদ্র উদ্যোক্তা সদস্যঃ ১৭ জন।

তিনি আরো জানান, মুন্সীগঞ্জ জেলার ৬ (ছয়)টি উপজেলার মধ্যে সদর উপজেলার পল্লী দারিদ্র বিমোচন অফিসের ঋণ আদায় সবচেয়ে সন্তোষজনক।

 

উপজেলা নির্বাহী অফিসারসভায় বলেন, আগামী ১৩ আগষ্ট ২০১৫  জেলা প্রশাসনের উদ্যোগে ১৫ আগষ্ট জাতীয় শোক দিবস স্মরণে গত বছরের মত এবারও  শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ছাত্র-ছাত্রীদের হাতে ০২টি করে চারা দিয়ে আনুষ্ঠানিকতার মাধ্যমে বৃক্ষরোপন কর্মসূচী পালন করা হবে। চারা ক্রয়ের জন্য উপজেলা পরিষদের নিজস্ব ফান্ড হতে অর্থ প্রদানের প্রস্তাব করেন। কমিটির সকল সদস্য একমত পোষণ করেন।

উপজেলা পরিষদের রাজস্ব তহবিল : উপজেলা পরিষদের নিম্নবর্ণিত ব্যয় সর্বসম্মতিক্রমে অনুমোদনের জন্য উপস্থাপন করা হলো।                                           

            (০১) আনুসঙ্গিক-১৯০০/- টাকা

            (০২) আপ্যায়ন বাবদ-৪৯০০/- টাকা

            (০৩) ইন্টারনেট -৫০০/- টাকা

            (০৪) পাম্পের মবিল ২০০/- টাকা।

(০৫) সিডি-১৫০ টাকা।

(০৬) কটলেস এর ব্যাটারী ও ঘড়ির ব্যাটারী ২৩০/- টাকা।

(০৭) টোনার  -৬০০০/-টাকা।

(০৮) ইউপিএস-৪০০০/- টাকা।

          (০৯) রাস্তায়  লাইট মেরামত-৫৮০/-টাকা।

            (১০) বাঁশ ও বেড়া ক্রয়বাবদ খরচ-২২,০০০/-

            (১১) প্যালাসাইডিং তৈরীর জন্য শ্রমিকের মজুরী বাবদ খরচ-৭০০০/-

            (১২) প্যালাসাইডিং স্থানে মাটি নেওয়ার জন্য ভ্যানভাড়া-৮০০০/-

            (১৩) উপজেলা সমবায় অফিস ও উপজেলা নির্বাহী অফিসারের বাসভবনে ০২ (দুই) টি নতুন সিলিং ফ্যান সংযোগ।

            (১৪) পবিত্র ঈদ-উল- ফিতর উপলক্ষ্যে অফিস কম্পাউন্ডে জঙ্গল ও ড্রেন পরিস্কার ও ইলেকট্রিক লাইন মেরামত খরচ-৭৫০০/ টাকা। 

 

চেয়ারম্যান,উপজেলা পরিষদ,মুন্সীগঞ্জ সদর ও সভাপতি উপজেলা পরিষদ মাসিক সভা, বলেন, উচ্চতর সহকারী প্রকৌশলী, বিএডিসি  (সেচ)  এর প্রতিনিধি  সদরসহ গজারিয়া উপজেলার দায়িত্ব পালন করায় তাকে সপ্তাহে কমপক্ষে ২ (দুই) দিন  তাঁর সাথে অথবা  উপজেলা নির্বাহী অফিসার এর সাথে স্বাক্ষাত করার জন্য বলেন। তাছাড়া প্রতিটি  বিভাগের কর্মকর্তাগণকে মাসিক সভায় উপস্থিত থাকার জন্য অনুরোধ করেন।  তিনি উপজেলা পরিষদের  সকল কর্মকর্তগণকে দায়িত্বশীলভাবে কাজ করার অনুরোধ জানান। অতঃপর আর কোন আলোচনা না থাকায় সভাপতি সকলকে ধন্যবাদ জানিয়ে সভার সমাপ্তি ঘোষণা করেন।

 

 

                     (আনিছ উজ্জামান)

চেয়ারম্যান

 উপজেলা পরিষদ,

সভাপতি, উপজেলা পরিষদ  মাসিক সভা

মুন্সীগঞ্জ সদর, মুন্সীগঞ্জ।

 

স্মারক নং-  ০৫.৩০.৫৯৫৬.০০৬.০১.০০১.১১-           (৫০)                                                  তারিখঃ          /২০১৫ খ্রিঃ

 

        অনুলিপি অবগতি ও প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য প্রেরণ করা হলোঃ

 

০১. মেয়র, মুন্সীগঞ্জ/মিরকাদিম পৌরসভা, মুন্সীগঞ্জ সদর, মুন্সীগঞ্জ।

০২. উপজেলা ...................................................অফিসার, মুন্সীগঞ্জ সদর।

০৩. চেয়ারম্যান ...............................................ইউনিয়ন পরিষদ (সকল), মুন্সীগঞ্জ সদর।

 

স্মারক নং- ০৫.৩০.৫৯৫৬.০০৬.০১.০০১.১১-                                                                    তারিখঃ          /২০১৫খ্রিঃ

 

  অনুলিপি সদয় অবগতির জন্য প্রেরণ করা হলো।                                                                                                              

 

০১. মাননীয় সংসদ সদস্য,মুন্সীগঞ্জ-০৩।

০২. সিনিয়র সচিব, স্থানীয় সরকার,পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয়,বাংলাদেশ সচিবালয়, ঢাকা।

০৩. জেলা প্রশাসক, মুন্সীগঞ্জ।

০৪. জেলা হিসাব রক্ষণ অফিসার, মুন্সীগঞ্জ।

 

 

উপজেলা নির্বাহী অফিসার

মুন্সীগঞ্জ সদর, মুন্সীগঞ্জ।

 


উপজেলা পরিষদ

মুন্সীগঞ্জ সদর, মুন্সীগঞ্জ

মুন্সীগঞ্জ সদর উপজেলা পরিষদের জুন / ২০১৫ মাসে অনুষ্ঠিত মাসিক সভার কার্যবিবরণী।

আলোচ্য মাস- মে / ২০১৫

 

সভাপতি     :

 

 

জনাব মোঃ আনিছ উজ্জামান

চেয়ারম্যান, উপজেলা পরিষদ,

মুন্সীগঞ্জ সদর, মুন্সীগঞ্জ।

স্থান           :

উপজেলা পরিষদ সম্মেলন কক্ষ।

তারিখ ও সময়ঃ

২১.০৬.২০১৫ খ্রিঃ বেলা ১২.০০ ঘটিকা

 

(সভায় উপস্থিত সদস্যদের তালিকা পরিশিষ্ট -‘ক’ )

( সভায় অনুপস্থিত সদস্যদের তালিকা পরিশিষ্ট-‘খ’)

 

সভাপতি উপস্থিত সকলকে স্বাগত জানিয়ে সভার কাজ শুরু করেন।  সভাপতি গত সভার কার্যবিবরণী পাঠ ও অনুমোদনের জন্য সকলকে আহবান জানান। 

আলোচ্যসূচি-০১: বিগত সভার কার্যবিবরণী পাঠ ও অনুমোদন- বিগত সভার কার্যবিবরণী পাঠ করে শুনানো হয় এবং তা যথাযথভাবে উপস্থাপিত হওয়ায় সর্বসম্মতিক্রমে অনুমোদন করা হয়।

আলোচ্যসূচি-০২: বিগত সভায় গৃহীত সিদ্ধান্ত বাস্তবায়ন ও অগ্রগতি পর্যালোচনা।

নং

বিভাগ

সিদ্ধান্ত

অগ্রগতি

০১

 উপজেলা স্বাস্থ্য বিভাগ

০১। কমিউনিটি ক্লিনিক এবং ইউনিয়ন স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ কেন্দ্রের সকল কাজ নিয়মিত মনিটরিং করতে হবে। ০২। উপজেলা স্বাস্থ্য কমপেস্নক্সে সেবার মান বৃদ্ধি করতে হবে।

০১। কার্যক্রম চলমান আছে।

০২

উপজেলা কৃষি বিভাগ

 

০১। বিশেষ কর্মসূচী ও মাননীয় প্রধানমন্ত্রী কর্তৃক নির্দেশিত কার্যক্রম বাস্তবায়নের জন্য গুরুত্ব দিতে হবে।

০১। কার্যক্রম চলমান আছে।

০৩

উপজেলা মৎস্য বিভাগ

০১। মাছে ফরমালিন রোধ ও কারেন্ট জাল নির্মূলের জন্য নিয়মিত মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করতে হবে।

০১।  চলমান আছে।

০৪

উপজেলা প্রাণীসম্পদ বিভাগ

 

০১। বার্ড ফ্লু নিয়ন্ত্রণে কার্যকরী  ব্যবস্থা গ্রহণ করতে হবে।

০২। খামারীদের নিয়মিত প্রশিক্ষণ দিতে হবে।

০২। কার্যক্রম চলমান আছে

০৫

উপজেলা প্রকৌশল বিভাগ

০১। কার্যাদেশে প্রদত্ত সময়সীমার মধ্যে কাজ সম্পন্ন করার জন্য ঠিকাদারগণকে তাগিদপত্র দেওয়ার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয় এবং নির্ধারিত সময়সীমার মধ্যে কাজ সম্পন্ন করতে ব্যর্থ হলে ঠিকাদারের কার্যাদেশ বাতিল করার সর্বসম্মত সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।  

০১। চলমান আছে।

০৬

 উপজেলা সমাজসেবা বিভাগ

০১। ক্ষুদ্রঋণ আদায়ের হার ১০০% নিশ্চিত করতে হবে।

০২। ভাতা বিতরন ও ক্ষুদ্র ঋণ কার্যক্রম সহ অন্যান্য  কার্যক্রম সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন করতে হবে।

০১। চলমান আছে।

০৭

উপজেলা দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা  বিভাগ

০১। প্রকল্পগুলো যথাযথভাবে সম্পন্ন হয়েছে কিনা তা পরিদর্শন করে প্রতিবেদন দিবেন।

০১। কার্যক্রম চলমান আছে।

০৮

উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা বিভাগ

০১। যেসকল মাধ্যমিক শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে সরকার কর্তৃক মাল্টিমিডিয়া সরবরাহ করা হয়েছে, সেসকল প্রতিষ্ঠানে নিয়মিত মাল্টিমিডিয়া ক্লাস নেয়া হয় কিনা, তা মনিটরিং করার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।    

০১। মনিটরিং অব্যাহত আছে।

০৯

উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা বিভাগঃ 

০১। প্রাথমিক বিদ্যালয় সমূহের কার্যক্রম তদারকি করে প্রতিমাসের ০৩ তারিখের মধ্যে প্রতিবেদন দিবেন।

০১। কার্যক্রম চলমান আছে।

১০

উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা বিভাগ

 

০১।  জনসংখ্যা নিয়ন্ত্রণে স্থায়ী ও দীর্ঘ মেয়াদী  পদ্ধতি বাড়ানোর সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

০১। অব্যাহত আছে।

১১

মহিলা বিষয়ক বিভাগ

০১। ভাতা বিতরন ও প্রশিক্ষণ কার্যক্রমসহ অন্যান্য সকল কাজ সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন করতে হবে।

০১। কার্যক্রম চলমান আছে।

১২

 উপজেলা যুব উন্নয়ন বিভাগ

০১। খেলাপী ঋণ আদায়ে আরো তৎপর হতে হবে এবং যথাসময়ে প্রশিক্ষণ সমাপ্ত করতে হবে।

০১। চলমান আছে।

১৩

জনস্বাস্থ্য প্রকৌশল বিভাগ

 

০১। যে সকল প্রাথমিক বিদ্যালয়ে টিউবওয়েল নেই বা নষ্ট হয়ে গেছে সেসব বিদ্যালয়ের জন্য টিউবওয়েল চেয়ে মন্ত্রণালয়ে পত্র দেয়ার  সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

০১। কার্যক্রম চলমান আছে।

১৪

সমবায় বিভাগঃ

০১।  উৎপাদনমুখী সমবায় সমিতি নিবন্ধন  করতে হবে নিবন্ধিত সমবায় সমিতির কার্যক্রম মনিটরিং অব্যাহত রাখতে হবে।

০১। চলমান আছে।

১৫

পল্লী উন্নয়ন বোর্ড

০১। ঋণের কিস্তি আদায়ে আরো তৎপর হওয়ার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

০২। একটি বাড়ি একটি খামারের মাসিক তথ্য উপস্থানের সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

০১। চলমান আছে।

১৬

উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক অফিস

০১। খাদ্যদ্রব্যসহ নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্যের মূল্যের বিষয়ে অসঙ্গতি পরিলক্ষিত হলে দ্রুত ব্যবস্থা নিতে হবে।

০১। চলমান আছে।

১৭

বি এ ডিসি  (সেচ)

০১। বাংলাবাজার ইউনিয়নের ‘বড়খাল’ পুণঃখননের অবশিষ্ট ৩০% কাজ দ্রুত সম্পন্ন করার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

০১। চলমান আছে।

১৮

 

উপজেলা আনসার ও ভিডিপি

০১। প্রশিক্ষণ কার্যক্রম অব্যাহত রাখতে হবে।

০১। কার্যক্রম চলমান আছে।

১৯

উপজেলা পরিসংখ্যান বিভাগ

০১। এ ধারা অব্যাহত রাখার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

০১। চলমান আছে।

 

 

আলোচ্যসূচি-০৩: বিভাগ ভিত্তিক আলোচনাঃ

নং

 

সিদ্ধান্ত

বাস্তবায়নে

 

৩.১

উপজেলা স্বাস্থ্য বিভাগঃউপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা সভায় জানান যে, চিকিৎসা সেবার মান উত্তরোত্তর বৃদ্ধির চেষ্টা অব্যাহত আছে। তিনি আরো জানান, সদর উপজেলায় উপ-স্বাস্থ্য কেন্দ্র-০২ টি । সেবা প্রাপ্ত রোগীর সংখ্যা : পুরুষ-১২২০ জন, মহিলা-১৮৪৩ জন, শিশু- ৬৮২ জন, মোট = ৩৭৪৫জন। চালুকৃত কমিউনিটি ক্লিনিকের সংখ্যা : ১৩টি। রোগীর সংখ্যা- পুরুষ : ৪৪৬২ জন, মহিলা : ৬৫৫৭ জন, শিশু : ৩০৩৪ জন, মোট = ১৪০৫৩ জন। শিশু জন্মের সংখ্যাঃ পুরুষ- ৩০০ জন, মহিলা -২৯৬ জন, মোট = ৫৯৬ জন। মৃত্যুর সংখ্যাঃ ০-৭ দিন = ০২ জন, ০৮-২৮ দিন = ০১ জন, ২৯ দিন-১ বৎসর =০৫ জন, মৃত জম্মের সংখ্যা ০৩ জন, ১-৫ বছরের মধ্যে = ০৪ জন। পানিতে ডুবে- ০১ জন ০৫ বছরের উর্দ্ধে = ১০০ জন। ই,পি,আই কার্যক্রমঃ  বিসিজি ৮%, পেন্টা ৮%, পোলিও ৮%, এম,আর ৮%, হাম ৮%, টিটি ৮%। ডায়রিয়া রোগীর কার্যক্রমঃ নো- ডিহাইড্রেশনঃ ১৬১৯ জন, সাম- ডিহাইড্রেশনঃ ১১ জন, সিভিয়ার ডিহাইড্রেশনঃ ০০ জন, মোট = ১৬৩০ জন। টিবি রোগী (চিকিৎসাধীন) কার্যক্রমঃ পুরুষ ১৯ জন, মহিলা ৫ জন,শিশু-০০ জন মোট = ২৪ জন । কুষ্ঠ রোগী (চিকিৎসাধীন) কার্যক্রমঃ পুরুষ  ০৭ জন, মহিলা - ০৩ জন, শিশু - নাই, মোট = ১০ জন। আর্সেনিকোসিস রোগী (চিকিৎসাধীন) কার্যক্রমঃ পুরুষ - ১৩৮ জন, মহিলা - ৯৯ জন, শিশু - নাই, মোট = ২৩৭ জন।

১। কমিউনিটি ক্লিনিক এবং ইউনিয়ন স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ কেন্দ্রের সকল কাজ নিয়মিত মনিটরিং করতে হবে।

২। উপজেলা স্বাস্থ্য কমপেস্নক্সে সেবার মান বৃদ্ধি করতে হবে।

 উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা অফিসার, মুন্সীগঞ্জ

 

 

 ৩.২

উপজেলা কৃষি বিভাগ :  উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা  তাঁর বিভাগের কার্যক্রম তুলে ধরেন। ফসল আবাদঃ খরিপ- ১ মৌসুমঃ পাট আবাদ-৫০১ হেক্টর, আউশ আবাদ-১৪৭ হেক্টর, বোনা আমন আবাদ- ৬২০৮ হেক্টর, তিল আবাদ-২২০ হেক্টর, কাউন আবদ - ২২২ হেক্টর, ধৈঞ্চা আবাদ- ৬২০ হেক্টর,ভূট্টা আবাদ-১৫ হেক্টর, গ্রীষ্মকালীন মরিচ- ১১৮ হেক্টর,  শাক সব্জী আবাদ-১৪৪৭ হেক্টর। বোরো শস্য কর্তন- ৯০৫ হেক্টর উফশী এবং ১৪৬ হেক্টর স্থানীয় বোরো আবাদ হয়েছে। এ যাবৎ ৯৩৬ হেক্টর কর্তন হয়েছে। এর মধ্যে উফশী-৭৯০ হেক্টর কর্তন হয়েছে এবং ফলনঃ ৬.৫০ মে.টন/হেক্টর (ধানে)। স্থানীয় -১৪৬ হেক্টর কর্তন হয়েছে এবং ফলনঃ ১.৮০ মে.টন/ হেক্টর। বিশেষ কর্মসূচী গ্রহণঃ ৭৫০ জংলী কুলগাছকে বাডিং এর মাধ্যমে উন্নত জাতে রূপান্তরের কাজ  চলছে। ৫০ হেক্টর সব্জী ফসলে সেক্স ফেরোমন ফাঁদ ও বিষটোপ ব্যবহারের লক্ষ্যমাত্রা নিয়ে কাজ চলছে। এছাড়াও মাননীয প্রধানমন্ত্রী কর্তৃক নির্দেশিত ২৭ টি বিশেষ কার্যক্রমের লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ পূর্বক কাজ যথারীতি এগিয়ে যাচ্ছে।  

সার,বীজ সরবরাহ ও মজুদ পরিস্থিতিঃ সার ও বীজের মজুদ সন্তোষজনক।

এছাড়া বিভাগীয় নিয়মিত কার্যক্রম সুষ্ঠু ও স্বাভাবিক ভাবে চলছে।

১। বিশেষ কর্মসূচী ও মাননীয় প্রধানমন্ত্রী কর্তৃক নির্দেশিত কার্যক্রম বাস্তবায়নের জন্য  গুরুত্ব দিতে হবে।

 উপজেলা কৃষি অফিসার

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

          

 

৩.৩

উপজেলা মৎস্য বিভাগঃ  সিনিয়র উপজেলা মৎস্য  অফিসার সভায়  অনুপস্থিত থাকায়  তার বিভাগের কার্যক্রম সম্পর্কে আলোচনা করা গেল না।

 

 

 

৩.৪

উপজেলা প্রাণীসম্পদ বিভাগঃ  উপজেলা প্রাণীসম্পদ কর্মকর্তা তার বিভাগীয় কার্যক্রম তুলে ধরেন। ০১। রোগ প্রতিরোধ ব্যবস্থা : (ক) গবাদি পশুর টিকাদানঃ ৮৩২৮ মাত্রা (খ) হাঁস মুরগীর টিকাদানঃ ১,১৯,২০০ মাত্রা। (গ) গবাদি পশুর চিকিৎসাঃ ২০৮০ টি (ঘ) হাঁস মুরগীর চিকিৎসাঃ ৮১৫২ টি (ঙ) কৃত্রিম প্রজননের সংখ্যাঃ ১,৫০৮ টি (চ) বাচ্চা জন্মের সংখ্যাঃ (ক) এঁড়ে  : ৩০৫ টি

                                                                       (খ) বকনা : ২৫৭ টি

                                                                          মোট     : ৫৬২ টি

সম্প্রসারণ কার্যক্রমঃ- (ক) ০১ দিনের মুরগীর বাচ্চা বিতরণঃ ৭০,০০০ টি। (খ)  গাভীর খামার স্থাপনঃ  ০৮ টি। (গ) মুরগীর খামার স্থাপন = ০১ টি, (ঘ) হাঁসের খামার স্থাপন-০১টি (ঙ) ছাগলের খামার স্থাপন-০৫ টি (চ) ভেড়ার খামার স্থাপন -০০ টি  (ছ) বিভাগীয় প্রশিক্ষণঃ ২৬৯ জন

(জ) ঘাসচাষ (একর)-৬.৫০ একর।

রাজস্ব আয়ঃ- (ক) টিকাবীজ বিক্রয় বাবদ =১৩,৪২৫/ টাকা। (খ) কৃত্রিম প্রজনন ফি বাবদ = ৩৬,৫২৮/ টাকা। মোট আয় = ৪৯,৯৫৩/- টাকা।

১০০ জন খামারীর হাতে কলমে প্রশিক্ষণ প্রদান ও প্রয়োজনীয় ঔষধ ও প্রতিষেধক টিকা সরবরাহের সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

উপজেলা প্রাণিসম্পদ কর্মকর্তা

 

৩.৫

উপজেলা প্রকৌশল বিভাগ :উপজেলা প্রকৌশলী সভায় জানান যে, বার্ষিক উন্নয়ন কর্মসূচীর আওতায় চলমান অর্থবছরে ৩১টি প্যাকেজের মধ্যে ‘‘আধারা জাজিরা বকচর রাস্তার জাজিরা মসজিদ হতে তোফাজুল গাজীর বাড়ী পর্যন্ত রাস্তা          দ্বারা উন্নয়ন’’ (গ্রুপ-২৬), ঠিকাদার মেসার্স রুবিনা এন্টারপ্রাইজ, প্রোঃ মোঃ নাজমুল হুদা, কোর্টগাও, সদর মুন্সীগঞ্জ, অদ্যাবধি প্রকল্পের কাজ শুরু করেন নাই। গত মে/২০১৫ ইং মাসিক সভার সিদ্ধান্ত মোতাবেক সংশ্লিষ্ট ঠিকাদেরকে ০৩ (তিন) দিনের মধ্যে মালামাল মজুদ করতঃ কাজ শুরু করার জন্য সর্বশেষ চূড়ান্ত তাগিদপত্র দেওয়া হয়।  (যার স্মারক নং-এলজিইডি/উঃপঃ/মুঃসঃ/২০১৫/৪১৩; তারিখঃ ০১/০৬/১৫ ইং। ঠিকাদারকে পরপর ০২টি তাগিদপত্র দেয়া হলেও ঠিকাদার কাজটি শুরু না করায় এবং বর্তমান অর্থবছর সমাপ্ত হয়ে যাওয়ায় পিপিআর-২০০৮ এর বিধিবিধান অনুযায়ী দরপত্র দলিলের অনুচ্ছেদ ৩৬(এ) নং শতৃ মোতাবেক সভায় উপস্থিত সকল সদস্য কার্যাদেশ বাতিলসহ সংশ্লিষ্ট ঠিকাদারের লাইসেন্স আগামী ১ বছরের জন্য কালোতালিকাভূক্ত করার প্রস্তাব করেন উপজেলা প্রকৌশলী সভায আরো জানান যে, প্রাথমিক শিক্ষা প্রকল্পের আওতায় চলমান ৫টি সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের নির্মাণ কাজ সমাপ্তির পথে। ইদ্রাকপুর ০১নং ও কেওয়ার সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় ০২টি         তে দরপত্র আহবানের প্রস্তাব পাওয়া গিয়াছে। অনুমোদন পত্রের নির্দেশনা অনুযায়ী জনস্বাস্থ্য অধিদপ্তর কর্তৃক উক্ত বিদ্যালয় ০২টিতে পিইডিপি-৩ প্রকল্পের আওতায়              নির্মিত হলে কিংবা প্রস্তাব থাকলে                          অংশটি বাস্তবায়ন প্রক্রিয়া হতে বাদ দেওয়ার সিদ্ধান্ত রয়েছে। যেহেতু ইদ্রাকপুর ০১ নং সরকারী প্রাথমিক বিদ্যারয়ে ইতোমধ্যে পিইডিপি-৩ এর আওতায়          নির্মিত হয়েছে এবঙ কেওয়ার সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ে                  নির্মাণের প্রস্তাব থাকায় মূল  প্রাক্কলন হতে                    বাদ দেওয়ার জন্য অত্র দপ্তর হতে উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষকে অবহিত করা হয়েছে। সদর দপ্তর হতে সংশোধিত প্রাক্কলন ও প্রশাসনিক অনুমোদন পাওয়া গেলে          এ দরপত্র আহবান করা হবে। তাছাড়াও ১৪টি সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ে ০১টি কক্ষ নির্মাণের জন্য,তথ্র প্রেরণের জন্র সদর দপ্তর হতে অনুমোদন পাওয়া গিয়াছে। তাছাড়া অসচ্ছল মুক্তিযোদ্ধাদের বাসস্থান নির্মাণ প্রকল্পের আওতায় অনুমোদিত ৮টি বাসস্থানের মধ্যে ৪টি বাসস্থানের বাস্তবায়ন প্রক্রিয়া চলমান রয়েছে। ১টি বাসস্থানের জন্য জমির সীমানা নির্ধারণে করে জায়গা বুঝিয়ে না দেওয়ায় এবং প্রকল্পের জমি ভরাটের প্রয়োজন

থাকায় জমি ভরাট কাজ শেষ না হওয়ায় প্রকল্পের কাজ শুরু হয়নি।বাকি ২টি বাসস্থানের কার্যাদেশ পাওয়া গেলে কাজ শুরু করা হবে।                                                      

 

 

 

 

১। সভায় বিস্তারিত আলোচনা হয় । আলোচনামেত্ম সংশ্লিষ্ট ঠিকাদারের কার্যাদেশ বাতিলসহ  ১ বছরের জন্য কালোতালিকাভূক্ত করার সর্বসম্মত সিদ্ধান্ত গৃহীত হয় । 

উপজেলা প্রকৌশলী

 

৩.৬

উপজেলা সমাজসেবা বিভাগঃউপজেলা সমাজসেবা কর্মকর্তা জানান, তাঁর বিভাগের কার্যক্রম সুষ্ঠুভাবে চলছে। বিভাগীয় কাজের ধারা নিম্নণরূপঃ

ঋণ বিতরণ ও আদায়ঃ

(1)     আর, এস,এস ক্ষুদ্র ঋণ কার্যক্রমের আওতায় আদায়যোগ্য অর্থের মধ্যে (মূল ও সার্ভিস চার্জ) সর্বমোট =১,১০,০০০/-(এক  লক্ষ দশ হাজার ) টাকা আদায় হয়েছে। আদায়ের হার ৯৮%। এছাড়া ক্ষুদ্র ঋণ বিতরণ করা হয়েছে আর,এস এস=১,০০,০০০/- টাকা। 

(2)    এসিডদগ্ধ ও শারীরিক প্রতিবন্ধী ব্যক্তিদের পূনর্বাসন কার্যক্রমের আওতায় সর্বমোট =৫৬,৪৯০/-  (ছাপ্পান্ন হাজার চারশত নববই) টাকা আদায় হয়েছে এবং ব্যাংকে জমা করা হয়েছে। বিতরণ করা হয়েছে =৯৫,০০০/-(পঁচানববই হাজার) টাকা।

ভাতা কার্যক্রমঃ২০১৪-২০১৫ অর্থ বছরে বয়স্কভাতা, বিধবা ও স্বামী পরিত্যক্তা দুঃস্থ মহিলা ভাতা, অসচ্ছল প্রতিবন্ধী ভাতা ও প্রতিবন্ধী শিক্ষা উপবৃত্তির অর্থ ৩য় কিস্তি পর্যন্ত ১০০% বিতরণ সম্পন্ন হয়েছে। প্রতিবন্ধী সনাক্তকরণ জরীপ কাজ ১০০% সম্পন্ন হয়েছে, বর্তমানে পরিচয় পত্র প্রদানের লক্ষ্যে ডাটা এন্ট্রির কাজ চলমান আছে। অন্যান্য কার্যক্রমঃ সামাজিক কার্যক্রমের আওতায় বাল্য বিবাহ রোধ যৌতুক বিরোধী প্রচারনা, জলাবদ্ধ পায়খানা ব্যবহার,বৃক্ষরোপন,পুষ্টি,পরিবার পরিকল্পনা ইত্যাদি বিষয়ে লক্ষ্যভূক্ত পরিবারের সদস্যদের মধ্যে সচেতনতা সৃষ্টির লক্ষ্যে কার্যক্রম অব্যাহত আছে। চলমান মাসে ২টি বাল্য বিবাহ প্রতিরোধ করা হয়েছে।

১। ক্ষুদ্র ঋণ আদায়ের হার ১০০% নিশ্চিত করতে হবে।

২। ভাতা বিতরণ ও ক্ষুদ্র ঋণ কার্যক্রমসহ অন্যান্য কার্যক্রম সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন করতে হবে। 

উপজেলা সমাজ সেবা কর্মকর্তা, মুন্সীগঞ্জ।

 

৩.৭

উপজেলা দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা বিভাগঃ   উপজেলা দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা বিভাগঃ  উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়নকর্মকর্তা  সভায় জানান যে, তার বিভাগের কার্যক্রম সুষ্ঠুভাবে চলছে। টিআর/কাবিখা হতে সোলার প্যানেল স্থাপনের জন্য সরকারি নির্দেশনা মোতাবেক কার্যক্রম বাস্তবায়ন করা  হয়েছে মর্মে উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা জানান। তিনি সভায় আরো জানান ২০১৪-২০১৫ অর্থ বছরে ১ম পর্যায় সাধারণ/বিশেষ/টি,আর/কাবিখা/অতি দরিদ্রদের জন্য কর্মসূচী প্রকল্পের কাজের অগ্রগতির প্রতিবেদন নিম্নরূপঃ

নং

খাতের বিবরণ

বরাদ্দের পরিমাণ

০১

বিশেষ টি,আর, নির্বাচনী এলাকা- মুন্সীগঞ্জ-০৩, ১ম পর্যায়

১৭৫.০০০ মেঃ টন

০২

বিশেষ কাবিখা, নির্বাচনী এলাকা- মুন্সীগঞ্জ-০৩, ১ম পর্যায়

১৭৫.০০০ মেঃ টন

০৩

জনাব ফজিলাতুননেসা,সংসদ সদস্য, মহিলা আসন-২২,

টি,আর-১ম পর্যায়

১৫.০০০ মেঃ টন

০৪

জনাব ফজিলাতুননেসা,সংসদ সদস্য, মহিলা আসন-২২,

কাবিখা-১ম পর্যায়

১৬.০০০ মেঃ টন

০৫

সাধারণ টি,আর ১ম পর্যায়

১১৪.২০০ মেঃ টন

০৬

মুন্সীগঞ্জ পৌরসভা-১ম পর্যায়

২৮.০০৬৬ মেঃ টন

০৭

মিরকাদিম পৌরসভা- ১ম পর্যায়

    ১৬.৩৪৪ মেঃ টন

০৮

সাধারণ কাবিখা-১ম পর্যায়

১২৬.৭৮০ মেঃ টন

০৯

জেলা প্রশাসক, মুন্সীগঞ্জ এর ১ম পর্যায় বরাদ্দ

   ৩২.০০০ মেঃটন

১০

অতিদরিদ্রদের জন্য কর্মসংস্থান কর্মসূচী

২০০৫ টি কার্ড= ১,৬০,৪০,০০০/-

১১

সেতু/কালভার্ট

৬৯,১৩,১১৭/-

 

নং

২য় পর্যায়

 

০১

সাধারন টি,আর-২য় পর্যায়

২২,৮০,১১৯ /-

 ০২

মুন্সীগঞ্জ পৌরসভা-১ম পর্যায়

 ---

 ০৩

মিরকাদিম পৌরসভা- ১ম পর্যায়

---

 ০৪

সাধারণ কাবিখা -১২৬.

১২৬.৬১০২মেঃটন

 ০৫

দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা  ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়-জি,আর বরাদ্দ

৩০.০০০ মেঃটন

 ০৬

দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা  ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়-টি,আর বরাদ্দ

৩৭.০০০ মেঃটন

০৭

অতিদরিদ্রদের জন্য কর্মসংস্থান কর্মসূচী-২য় পর্যায়

১৫৪৭ টি কার্ড= ১,২৩,৭৬,০০০/-

 

১। প্রকল্পগুলো যথাযথভাবে সম্পন্ন হয়েছে কিনা, তা পরিদর্শন করে প্রতিবেদন দিবেন।

উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা

এবং চেয়ারম্যান

(সকল) ইউ. পি ও ট্যাগ অফিসার

 

৩.৮

উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা বিভাগঃউপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার সভায় জানান যে, ১। অর্ধবার্ষিক পরীক্ষা সুন্দরভাবে সমাপ্ত হয়েছে। ২। ৮ম শেণী ও দশম শ্রেণীর কোচিং অব্যাহত আছে। ৩। ডিজিটাল কন্টেন্ডতৈরীর জন্য স্কুল এবং কলেজের শিক্ষকদের সাবজেক্টওয়ারী পর্যায়ক্রমে      তে প্রশিক্ষণ চলছে। ৪। গত ২০/০৬/২০১৫ ইং তারিখ রোজ শনিবার অটিজম শিশুদের অভিভাবক, প্রধান শিক্ষক, মহিলা শিক্ষক  এবং মহিলা মেম্বারদের নিয়ে ১দিনের কর্মশালা অনুষ্ঠিত হয়েছে। উক্ত অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার, সদর, মুন্সীগঞ্জ, প্রধান অতিথি ও বিশেষ অতিথি উপজেলা চেয়ারম্যান ও ভাইস- চেয়ারম্যান (মহিলা)। ৫। স্কুল, কলেজ ও মাদ্রাসার         এর কার্যক্রম এখন থেকে উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কার্যালয় থেকে              এর মাধ্যমে সমাপন করতে হবে। ৬। উচ্চ মাধ্যমিক পর্যায়ে উপবৃত্তি প্রদান মোবাইল ব্যাংকের মাধ্যমে ছাত্র-ছাত্রীদের মোবাইলে প্রদান করা হবে এ বিষয়ে কলেজগুলোতে কাজ চলছে। এছাড়া দাপ্তরিক কাজ সুষ্ঠুভাবে চলছে।  

১। যেসকল মাধ্যমিক  শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে সরকার কর্তৃক মাল্টিমিডিয়া সরবরাহ করা হয়েছে , সেসকল প্রতিষ্ঠানে  নিয়মিত মাল্টিমিডিয়া ক্লাস নেয়া হয় কিনা, তা মনিটরিং করার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার

 

৩.৯

উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা বিভাগঃ উপজেলা শিক্ষা অফিসার বলেন, মুন্সীগঞ্জ সদর উপজেলার সকল সরকারি প্রাথমিক  বিদ্যালয়সমূহে গ্রীষ্মকালীন অবকাশ ও পবিত্র মাহে রমজান উপলক্ষ্যে ছুটি গত ১৫/০৬/২০১৫ ইং তারিখ থেকে  শুরু হয়ে ২৪/০৭২০১৫ ইং তারিখ পর্যন্ত চলবে। বর্তমানে বিদ্যালয়গুলোতে পঞ্চম শ্রেণীর শিক্ষার্থীদের বিশেষ পাঠদান কার্যক্রম চলমান রয়েছে। উপজেলার ৯টি ইউনিয়নের সর্বমোট ৯২টি বিদ্যালয়ে উপবৃত্তি বিতরণ কার্যক্রম (৩য় ও ৪র্থ কিস্তি একত্রে) গত ১৪/০৬/২০১৫ ইং তারিখ থেকে শুরু হয়েছে এবং বিতরণ কার্যক্রম ২২/০৬/২০১৫ ইং তারিখ শেষ হবে। বিতরণ কার্যক্রম চলমান এবং সুষ্ঠুভাবে বিতরণ হচ্ছে। উপজেলার অন্যান্য কার্যক্রমের মধ্যে সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষকদের ৫টি ব্যাচে ৩০জন শিক্ষকের প্রশিক্ষণ           পিটিআই কেন্দ্রে চলমান রয়েছে। উপজেলায় এ ইউ ইও গনের প্রশিক্ষণ ও চলমান রয়েছে এবং অফিস স্টাফও প্রশিক্ষণে আছেন। অর্থাৎ বিভিন্ন প্রশিক্ষণ অব্যাহত রয়েছে। এছাড়া  অন্যান্য কার্যক্রম সুষ্ঠুভাবে চলছে।  

১। প্রাথমিক বিদ্যালয়সমূহের কার্যক্রম তদারকি করে প্রতিমাসের ০৩ তারিখের মধ্যে প্রতিবেদন দিবেন।

১। উপজেলা প্রাথমিকশিক্ষা অফিসার

২। সহকারী প্রাথমিক শিক্ষা অফিসারগণ।

 

৩.১০

উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা বিভাগঃ  উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা  তার বিভাগের কার্যক্রম তুলে ধরেন।  খাবার বড়ি বিতরন -২৩,২২২ কনডম বিতরন -৩৮,৫২৪ ইনজেকটেবলঃ ভায়াল- ২,১৪৪ সিরিঞ্জ-২৩৪৬ আই ইউ ডিঃ স্বাভাবিক-২০ প্রসব পরবর্তী - নাই, খুলে ফেলা-৫ টি, ইমপস্ন্যান্টঃ নতুন - ৫, খুলে ফেলা - ০৯ ইসিপি  (ডোজ)- নাই,  স্থায়ী পদ্ধতিঃ পুরুষ- নাই,  মহিলা স্বাভাবিক - নাই, প্রসব পরবর্তী - ২৯ জন, মোট ২৯ জন। সক্ষম দম্পতি ৭৭,২৪৩ জন। CAR = ৭১.১২% ।

১। জনসংখ্যা নিয়ন্ত্রণে স্থায়ী ও দীর্ঘমেয়াদী পদ্ধতি বাড়ানোর সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

 উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা

 

৩.১১

মহিলা বিষয়ক বিভাগঃউপজেলা মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তা সভায় অনুপস্থিত থাকায় তার বিভাগের কার্যক্রম সম্পর্কে আলোচনা করা গেল না।

 

 

 

৩.১২

উপজেলা যুব উন্নয়ন বিভাগঃউপজেলা যুব উন্নয়ন কর্মকর্তা  সভায় অনুপস্থিত থাকায়  তার বিভাগের কার্যক্রম সম্পর্কে আলোচনা করা গেল না।

 

 

 

৩.১৩

জনস্বাস্থ্য প্রকৌশল বিভাগঃউপ-সহকারী প্রকৌশলী জনস্বাস্থ্য বিভাগ সভায় জানান যে, তার বিভাগের কার্যক্রম সুষ্ঠুভাবে চলছে। বিভাগীয় কাজের ধারা  নিম্নরূপঃ

 

 বিশেষ গ্রামীণ পানি সরবরাহ প্রকল্পঃ

নং

এডিপি

স্থান নির্ধারণ

সহায়ক চাঁদা

অগ্রগতি

 

মন্তব্য

 

০১.

২০১২-২০১৩

  ২০১৩-২০১৪ অর্থবছর

কেরিড ওভার

সাধারণ বরাদ্দ

৬নং গভীর নলকূপ

তারা গভীর নলকূপ

মোট

 

৬ নং গভীর নলকূপ

তারা গভীর নলকূপ

মোট

 

 

 

 

২০

২০

৪০

---

---

---

৪০ টি

৪০ট

৪০ টি

 

 

PEDPএর আওতায় WASH BLOCK নির্মাণ ও গভীর নলকূপ স্থাপনঃ

নং

বরাদ্দ

মোট

অগ্রগতি

মন্তব্য

২০১২-২০১৩

২০১৩-২০১৪

      ২০১৩-২০১৪

১.

WASH BLOCK

গভীর নলকূপ

WASH BLOCK

গভীর নলকূপ

WASH BLOCK

গভীর নলকূপ

WASH BLOCK

গভীর নলকূপ

 

২১

৪২

৩৪

--

৫৫ টি

৪২ টি

৫৪

৪২

 

 

১। যে সকল প্রাথমিক বিদ্যালয়ে টিউবওয়ের নেই বা নষ্ট হযে গেছে, সেসব বিদ্যালয়ের জন্য টিউবওয়েল চেযে মন্ত্রণালয়ে পত্র দেওয়ার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

উপজেলা জনস্বাস্থ্য প্রকৌশল বিভাগ।

 

৩.১৪

সমবায় বিভাগঃউপজেলা সমবায় কর্মকর্তা সভায় তার বিভাগের কার্যক্রম তুলে ধরেন।

(ক) অডিট অগ্রগতির তথ্যঃ

নং

সমিতির শ্রেনী

সমিতির সংখ্যা

অডিট যোগ্য সমিতির সংখ্যা

অডিট সমাপ্তির সংখ্যা

মোট দাখিলের

সংখ্যা

মোট দাখিলের

বাকী

অডিট অসমাপ্তির

সমিতির সংখ্যা

১.

কেন্দ্রীয় সমিতি বিভাগীয়

৫ টি

৫ টি

০৫টি

০৫টি

-

--

২.

কেন্দ্রীয় সমিতি পউবো

২ টি

২ টি

০২টি

০২টি

-

--

৩.

প্রাথমিক বিভাগীয়

১৮৫ টি

১৮৫ টি

১৮৫ টি

১৭৩ টি

১২ টি

   --

৪.

প্রাথমিক পউবো

২৫০ টি

২৫০ টি

১৩৪ টি

১৩৪ টি

---

১১৬ টি

 

মোট

৪৪২ টি

৪৪২ টি

৩২৬ টি

৩১৪ টি

১২ টি

  ১১৬ টি

 

১। উৎপাদনমুখী সমবায় সমিতি নিবন্ধন করতে হবে এবং নিবন্ধিত সমবায় সমিতির কার্যক্রম মনিটরিং অব্যাহত রাখতে হবে।

 উপজেলা সমবায় অফিসার।

 

 

৩.১৫

পল্লী উন্নয়ন বোর্ডঃউপজেলা পল্লী উন্নয়ন অফিসার জানান, এ পর্যন্ত ১। চলতি মাসে ঋণ বিতরন :  ২,৭৫,০০০/- টাকা। ২। মোট ঋণ বিতরনঃ ১৫,৩৯,১৭,০০০/- টাকা ৩। চলতি মাসে ঋণ আদায়ঃ ৫,৯৬,০০০/- টাকা। ৪। মোট ঋণ আদায়ঃ ১৩,৮৫,৮২,০০০/ টাকা  ৫। আদায়ের হার : ৯০% ৫। মোট সঞ্চয় আদায়ঃ ৬৬,৫৩,০০০/- টাকা।

একটি  বাড়ি একটি খামার প্রকল্পের কার্যক্রমঃ ক. চলতি মাসে ঋণ বিতরনঃ ১০,৬৫,০০০/- টাকা। খ. মোট ঋণ বিতরনঃ ৩,০১,২২,০০০/- টাকা। গ. চলতি মাসে ঋণ আদায়ঃ ৫,৬৩,০০০/-টাকা ঘ. মোট ঋণ আদায়ঃ ১,১৪,৫৭,০০০/- টাকা  ঙ. মোট সঞ্চয় আদায়ঃ ১,৫৭,৩৬,০০০/-

 

১। ঋণের কিস্তি আদায়ে আরো তৎপর হওয়ার সিদ্ধান্ত  গৃহীত হয়।

২। একটি বাড়ি একটি খামারের মাসিক তথ্য উপস্থাপনের সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

উপজেলা পল্লী উন্নয়ন কর্মকর্তা, মুন্সীগঞ্জ

 

 

৩.১৬

উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক অফিসঃ উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক, সভায়  অনুপস্থিত থাকায়  তার বিভাগের কার্যক্রম সম্পর্কে আলোচনা করা গেল না। 

 

 

 

 

৩.১৭

বি এ ডিসি (সেচ):সিনিয়র উপ-সহকারী প্রকৌশলী সভায় তার বিভাগের কার্যক্রম তুলে ধরেন। গত ২০১২-১৩ সনে মুন্সীগঞ্জ সদর উপজেলার চরকেওয়ার ইউনিয়নের পিছামারা খালটির ১.৫০ কিঃমিঃ পুণঃখনন করা হয়েছে। তাছাড়া আধারা ইউনিয়নের ভাসানচর মৌজায় ২-কিউসেক এলএলপি স্কীমে ডিসচার্জবক্সসহ পাকা সেচনালা নির্মাণ ০১টি ও একই ইউনিয়নের দাইমী মৌজায় ২- কিউসেক এল এলপি স্কীমে পাকা সেচনালা নির্মাণ ০১টি। গত ২০১৩-১৪ সনে চরকেওয়ার ইউনিয়নের হোগলাকান্দি জলার খালটির ১.৫০ কিঃমিঃ পূণঃখনন করা হয়েছে। উক্ত সনে কোন পাকা সেচনালা নির্মাণ করা হয়নি। চলতি ২০১৪-১৫ সনে আধারা ইউনিয়নের খালাসীকান্দি খালটির ১.৫০ কিঃমিঃ  পুণঃখনন সম্পন্ন করা হয়েছে। একই ইউনিয়নের বকুলতলা খালটির ১.৫০ কিঃমিঃ পূণঃখনন শেষ হয়েছে। তাছাড়া বাংলাবাজার ইউনিয়নের বড়খালটির ১.৫০ কিঃমিঃ খাল পুণঃখনন শেষ হয়েছে। আধারা ইউনিয়নের চরআব্দুল্লাহ (দক্ষিণ) মৌজায় ২- কিউসেক এলএলপি স্কীমে ডিসচার্জবক্সসহ  পাকা সেচনালা নির্মাণ করা হয়েছে ০১টি। ০৫টি পাম্পিং সেট ক্ষেত্রায়ন করা হয়েছে। এছাড়া বিভাগীয় অন্যান্য কার্যক্রম সুষ্ঠুভাবে চলছে।                           

 

 উচ্চতর উপ-সহকারী প্রকৌশলী (ক্ষুদ্র সেচ)

 

৩.১৮

উপজেলা নির্বাচন বিভাগঃউপজেলা নির্বাচন অফিসার সভায় জানান, উপজেলা নির্বাচন অফিসের দৈনন্দিন কার্যক্রম সুষ্ঠু ও  সুন্দরভাবে চলছে।তিনি আরও জানান যে,চতুর্থ উপজেলা পরিষদের সংরক্ষিত আসনের মহিলা সদস্র পদের নির্বাচন আগামী ১৫/০৬/২০১৫ ইং তারিখে অনুষ্ঠিত হবে।

এবিষয়ে সকলেল সার্বিক সহযোগিতা কামনা করেন।

 

 

 

৩.১৯

উপজেলা আনসার ও ভিডিপিঃ  উপজেলা আনসার ও ভিডিপি কর্মকর্তা  সভায় অনুপস্থিত থাকায়  তার বিভাগের কার্যক্রম সম্পর্কে আলোচনা করা গেল না।

 

 

 

৩.২০

উপজেলা পরিসংখ্যান বিভাগঃ ১) ধলাগাও বাজার ও মুন্সিগঞ্জ বাজার হতে দরছক পূরণ পূর্বক জেলা পরিসংখ্যান অফিসে প্রেরণ করা হয়েছে।

 ২) এমএসভিএসবি এর তথ্য সংগ্রহ করে জেলা পরিসংখ্যান্অফিসে প্রেরণ করা হয়েছে।

৩) বিভিন্ন ফসলের আনুমানিক হিসাব জেলা পরিসংখ্যান অফিসে প্রেরণ করা হয়েছে।

৪) মাসিক কৃষি মজুরির তথ্য সংগ্রহ করে জেলা পরিসংখ্যান অফিসে প্রেরণ করা হয়েছে।

 ৫) এছাড়া বিভাগীয় নিয়মিত অন্যান্য কাজ সুষ্ঠুভাবে চলছে। বিভাগীয় কাজে কোন সমস্যা নাই ।

১। এ ধারা অব্যাহত রাখার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

 উপজেলা পরিসংখ্যান কর্মকর্তা

 

      

 

৩.২১

পল্লী দারিদ্র্য বিমোচন ফাউন্ডেশনঃপল্লী দারিদ্র্য বিমোচন কর্মকর্তাতার দপ্তরের বিভাগীয় কার্যক্রম তুলে ধরেন।

 

 

 

ঋণ বিতরণ ও আদায় বিবরণঃ

ঋণের প্রকার

মাসে

বছরে

ক্রমপুঞ্জিত

ঋণ বিতরন

(লক্ষ টাকায়)

ঋণ আদায়

(লক্ষ টাকায়)

আদায়ের

হার

ঋণ বিতরন

(লক্ষ টাকায়)

ঋণ আদায়

(লক্ষ টাকায়)

আদায়ের

হার

ঋণ বিতরন

(লক্ষ টাকায়)

ঋণ আদায়

(লক্ষ টাকায়)

আদায়ের

হার

 

১. ক্ষুদ্র ঋণ

২. ক্ষুদ্র  উদ্যোক্তা ঋণ

 ৪.১৮

 ৪.৩০

৪.১৮

১.৫৩

১০০%

১০০%

৪১.৮৬

 ১৯.০০

 ৩৭.৪৯

 ১৬.৩৯

১০০%

১০০%

৬৪.৩৬

৩৩.৭০

৪৭.২৭

২১.৭৬

 

১০০%

 

১০০%

 

মোট

৮.৪৮

৫.৭১

১০০%

৬০.৮৬

৫৪.৮০

১০০%

৯৮.০৬

৬৯.০৩

১০০%

 

০১। সমিতি গঠনঃ ২০ টি, ০২। মোট  সদস্য ভর্তি : ৪৭২ জন, ০৩। মোট সঞ্চয় জমাঃ ১২.৭২ লক্ষ টাকা, ০৪। মোট সোনালী সঞ্চয় জমাঃ ৭.১১ লক্ষ টাকা ,০৫। মোট মেয়াদীসঞ্চয় জমাঃ ১.০০ লক্ষ, ০৬। মোট ক্ষুদ্র উদ্যোক্তা সদস্যঃ ১৬ জন।

 

 

 

উপজেলা পরিষদের রাজস্ব তহবিল : উপজেলা পরিষদের নিম্নবর্ণিত ব্যয় সর্বসম্মতিক্রমে অনুমোদনের জন্য উপস্থাপন করা হলো।                                           

            (০১) আনুসঙ্গিক-১৯০০/- টাকা

            (০২) আপ্যায়ন বাবদ-৪৯০০/- টাকা

            (০৩) ব্যাটারী -৮৫০০/- টাকা

            (০৪)  টিউবওয়েল মেরামত ১৫০০/- টাকা।

(০৫) তালা-৮৩০ টাকা।

(০৬) ইন্টারনেট-৫০০/- টাকা।

(০৭) পাম্পের মবিল -২০০/-টাকা।

(০৮) উপজেলা চেয়ারম্যান মহোদয়ের অফিস কক্ষের তালা ও ট্যাব ক্রয়- -৫৭০/- টাকা।

          (০৯) মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক বই ক্রয়-১৫০০০/-

 

 

 

 

চেয়ারম্যান,উপজেলা পরিষদ,মুন্সীগঞ্জ সদর ও সভাপতি উপজেলা পরিষদ মাসিক সভা, বলেন, উচ্চতর সহকারী প্রকৌশলী, বিএডিসি  (সেচ)  মাসিক সভায় উপস্থিত থাকেন না। যিনি ভারপ্রাপ্ত আছেন তিনি নিয়মিত সভায় থাকেন না। চেয়ারম্যান, উপজেলা পরিষদ এবং উপজেলা নির্বাহী অফিসার এর সাথে বিএডিসি (সেচ) কর্মকর্তা দাপ্তরিক উন্নয়নমূলক কর্মকান্ডে মতবিনিময় করেন না। এজন্য তিনি জেলা পর্যায়ে লিখিতভাবে জানানোর জন্য উপজেলা নির্বাহী অফিসারকে অনুরোধ করেন। তাছাড়া প্রতিটি  বিভাগের কর্মকর্তাগণকে মাসিক সভায় উপস্থিত থাকার জন্য অনুরোধ করেন।  তিনি উপজেলা পরিষদের  সকল কর্মকর্তগণকে দায়িত্বশীলভাবে কাজ করার অনুরোধ জানান। অতঃপর আর কোন আলোচনা না থাকায় সভাপতি সকলকে ধন্যবাদ জানিয়ে সভার সমাপ্তি ঘোষণা করেন।

 

 

 

 

                   (আনিছ উজ্জামান)

চেয়ারম্যান

 উপজেলা পরিষদ,

সভাপতি, উপজেলা পরিষদ  মাসিক সভা

মুন্সীগঞ্জ সদর, মুন্সীগঞ্জ।

 

স্মারক নং-  ০৫.৩০.৫৯৫৬.০০৬.০১.০০১.১১-           (৫০)                                                  তারিখঃ          /২০১৫ খ্রিঃ

 

        অনুলিপি অবগতি ও প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য প্রেরণ করা হলোঃ

 

০১. মেয়র, মুন্সীগঞ্জ/মিরকাদিম পৌরসভা, মুন্সীগঞ্জ সদর, মুন্সীগঞ্জ।

০২. উপজেলা ...................................................অফিসার, মুন্সীগঞ্জ সদর।

০৩. চেয়ারম্যান ...............................................ইউনিয়ন পরিষদ (সকল), মুন্সীগঞ্জ সদর।

 

স্মারক নং- ০৫.৩০.৫৯৫৬.০০৬.০১.০০১.১১-                                                                    তারিখঃ          /২০১৫খ্রিঃ

 

  অনুলিপি সদয় অবগতির জন্য প্রেরণ করা হলো।                                                                                                              

 

০১. মাননীয় সংসদ সদস্য,মুন্সীগঞ্জ-০৩।

০২. সিনিয়র সচিব, স্থানীয় সরকার,পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয়,বাংলাদেশ সচিবালয়, ঢাকা।

০৩. জেলা প্রশাসক, মুন্সীগঞ্জ।

০৪. জেলা হিসাব রক্ষণ অফিসার, মুন্সীগঞ্জ।

 

 

উপজেলা নির্বাহী অফিসার

মুন্সীগঞ্জ সদর, মুন্সীগঞ্জ।

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 


 

গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার

উপজেলা নির্বাহী অফিসারের কার্যালয়

মুন্সীগঞ্জ সদর, মুন্সীগঞ্জ।

 

স্মারক নং-০৫.৩০.৫৯৫৬.০০৬.০১.০০১.১৫-                                             তারিখঃ     /০৭/২০১৫ খ্রিঃ

 

‘‘নোটিশ’’

 

 

অনিবার্যকারণবশত মুন্সীগঞ্জ সদর উপজেলার জুন/২০১৫ মাসের আইন-শৃংখলা কমিটির সভা  আগামী ২৮/০৭/২০১৫ তারিখের পরিবর্তে ২৯/০৭/২০১৫ তারিখ সকাল ১০.০০ ঘটিকায় উপজেলা পরিষদ সভাকক্ষে অনুষ্ঠিত হবে।    উক্ত  সভায় নির্ধারিত তারিখ ও সময়ে উপস্থিত থাকার জন্য অনুরোধ করা হলো।

 

 

 

 

 

 

প্রাপক..................................................

 

       ..................................................

          মুন্সীগঞ্জ সদর, মুন্সীগঞ্জ।

 

      

(শারাবান তাহুরা)

উপজেলা নির্বাহী অফিসার

মুন্সীগঞ্জ সদর,মুন্সীগঞ্জ।

unomunshiganjsadar@yahoo.com

ফোনঃ ৭৬১২১৩৩

ফ্যাক্সঃ ৭৬১০৫৫৩

 

 

অনুলিপিঃ সদয় জ্ঞাতার্থে ও কার্যার্থে

            ০১। মাননীয় সংসদ সদস্য, মুন্সীগঞ্জ -৩ আসন।

            ০২। জেলা প্রশাসক, মুন্সীগঞ্জ।

            ০৩। পুলিশ সুপার, মুন্সীগঞ্জ।

            ০৪। চেয়ারম্যান, উপজেলা পরিষদ, মুন্সীগঞ্জ সদর, মুন্সীগঞ্জ।

            ০৫। মেয়র, মুন্সীগঞ্জ/মিরকাদিম পৌরসভা, মুন্সীগঞ্জ।

            ০৬। জনাব আমির হোসেন গাজী, ভাইস চেয়ারম্যান, মুন্সীগঞ্জ সদর উপজেলা পরিষদ।

            ০৭। বেগম মেহেরুন নেছা (নাজমা) মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান, মুন্সীগঞ্জ সদর উপজেলা পরিষদ।

            ০৮। উপজেলা................................................................. অফিসার,  মুন্সীগঞ্জ সদর, মুন্সীগঞ্জ।

            ০৯। অফিসার ইন-চার্জ, সদর থানা, মুন্সীগঞ্জ।

            ১০। চেয়ারম্যান,...................................... ইউনিয়ন পরিষদ, মুন্সীগঞ্জ সদর উপজেলা ও সদস্য।